রবিবার ২ কার্তিক ১৪২৮, ১৭ অক্টোবর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

হজযাত্রীদের বিমানভাড়া ১ লাখ টাকার নিচে নির্ধারণ দাবি

স্টাফ রিপোর্টার ॥ হজযাত্রীদের বিমান ভাড়া ১ লাখ টাকার নিচে নির্ধারণ করাসহ পাঁচদফা দাবি জানিয়েছে ‘বাংলাদেশ হজযাত্রী ও হাজি কল্যাণ পরিষদ’। বিমান ভাড়া না কমালে কাফনের কাপড় পরে রাস্তায় নামতে বাধ্য হবেন বলে হুমকি দিয়েছেন পরিষদ নেতারা। বুধবার দুপুরে রিপোর্টার্স ইউনিটির নসরুল হামিদ মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনে এ হুমকি দেন সংগঠনের সভাপতি ড. আব্দুল্লাহ আল নাসের। পরিষদ নেতাদের ঘোষিত পাঁচ দফা দাবির মধ্যে অন্য দাবিগুলো হলো-প্রতিযোগিতামূলক বাজারে প্রতিবেশী দেশ ভারত, মালয়েশিয়ার মতো মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক এয়ারলাইন্সকে হজযাত্রী পরিবহনের সুযোগ তথা থার্ড ক্যারিয়ার চালু করা; কোন প্রকার হয়রানি ছাড়া যাতে হজ এজেন্সি হজযাত্রীর সংখ্যা অনুযায়ী টিকেট পায় সে ব্যবস্থা নেয়া; হজের টিকেট বিক্রয়ে ফড়িয়া, দালাল সিন্ডিকেট বাতিল ও সৌদি এয়ারলাইন্সে সিন্ডিকেট প্রথা বাতিল করে হজ এজেন্সির হজযাত্রীর সংখ্যা অনুপাতে টিকেট বরাদ্দ এবং প্রতিবছর বেশি করে যাতে হজযাত্রী যেতে পারেন সেজন্য গণমাধ্যমের মাধ্যমে হজের ফজিলত বর্ণনা করে মুসলমানদের হজে যেতে উৎসাহিত করা। সংগঠনের সভাপতি আল নাসের বলেন, এবার জ্বালানির দাম, ট্যাক্স কোন কিছুই বাড়েনি। কিন্তু অযৌক্তিকভাবে হজযাত্রীদের বিমান ভাড়া বাড়ানো হয়েছে ৫২ হাজার টাকা। তা শুধু বেআইনী নয়, আল্লাহর মেহমানদের ওপর জুলুম। বিমান ভাড়া বাড়িয়ে বিমান সারাবছর যা লস করেছে, তা হজযাত্রীদের কাছ থেকে উসুল করার চেষ্টা করছে। এটা অন্যায় ও অযৌক্তিক সিদ্ধান্ত। শুধু তাই নয়, ২০২০ সালে এই বাড়তি বিমান ভাড়া যদি বহাল রাখা হয় তাহলে অর্ধেক হজযাত্রী পরিবহন করে সৌদি এয়ালাইন্সের মাধ্যমে ৩৫৬ কোটি টাকা নীরবে পাচার হয়ে যাবে। সংবাদ সম্মেলনে আটাবের সাবেক মহাসচিব ও হাব নেতা আসলাম খান বলেন, বিমান ভাড়া কোনভাবে বাড়ানোর সুযোগ নেই, বরং কমানোর সুযোগ আছে। কারণ, এখন আমাদের তিনটি বড় উড়োজাহাজ বিমানবহরে যুক্ত হয়েছে। বিমানের ৪২ দিন হজযাত্রীর প্যাকেজকে অযৌক্তিক দাবি করে এটি ৩০ দিনের প্যাকেজ ঘোষণার দাবি জানান হাবের সাবেক সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা তাজুল ইসলাম।

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আটাবের সাবেক মহাসচিব আসলাম খান, হাবের সাবেক সভাপতি আব্দুস সোবহান ভূঁইয়া হাসান, হজযাত্রী ও হাজি কল্যাণ পরিষদের সহ-সভাপতি মাওলানা বশির আহমেদ, আব্দুল বাতেন, তাজাম্মুল হুসাইন ও রুহুল আমিন মিন্টু, রফিকুল ইসলাম।

শীর্ষ সংবাদ:
দাঙ্গা বাঁধানোই ছিল কুমিল্লার ঘটনার উদ্দেশ্য ॥ স্থানীয় সরকারমন্ত্রী         ‘কুমিল্লার ঘটনায় জড়িতদের শিগগিরই গ্রেফতার করা হবে’         দেশের বাতাসে ষড়যন্ত্র, ছাত্রলীগকে সতর্ক থাকার আহ্বান         মধুর ক্যান্টিনে মুখোমুখি ছাত্রলীগ-ছাত্রদল, ক্যাম্পাসে উত্তেজনা         জি বাংলার পর সম্প্রচারে স্টার জলসা         রাশিয়ার ইয়েকাতেরিনবুর্গে ভেজাল মদের বিষক্রিয়ায় ১৮ জনের মৃত্যু         অতিবৃষ্টি ও বন্যায় কেরালায় নিহত ১৮         কাকরাইলে সংঘর্ষের ঘটনায় দুই মামলা ॥ আসামি ৪ হাজার         খিলক্ষেতে আরেক চিকিৎসকের লাশ উদ্ধার         আইয়ুব বাচ্চু স্মরণে ‘আসা যাওয়া’ প্রকাশ পাচ্ছে আগামীকাল         প্রায় দুই বছর পর খুললো রাবির হল         বরিশালে তিনটি মন্দিরে ভাঙচুরের ঘটনায় মামলা         বৃষ্টি হলেও কাটেনি ভ্যাপসা গরমের অস্বস্তি         চট্রগ্রামের বায়েজিদ বোস্তামী এলাকায় বিস্ফোরণ, নিহত ১, আহত ২         প্রতীক্ষা শেষ, শ্রেণিকক্ষে ফিরলেন ঢাবি শিক্ষার্থীরা         বিশ্বব্যাপী পুরুষরা বেশি আত্মহত্যাপ্রবণ         গুচ্ছভুক্ত ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা শুরু হয়েছে আজ         ‘করোনা মহামারী প্রেক্ষাপটে উন্নত স্যানিটেশনের গুরুত্ব বেড়েছে’         ‘বাঙালীর মুক্তিযুদ্ধের গৌরবময় ইতিহাস বিশ্ববাসীকে জানাতে হবে’         পর্যটক প্রিয় হয়ে উঠেছে সাতছড়ি জাতীয় উদ্যান