রবিবার ৭ আষাঢ় ১৪২৮, ২০ জুন ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

পঞ্চগড় পৌর এলাকায় জলাবদ্ধতায় ৩০ পরিবার

পঞ্চগড় পৌর এলাকায় জলাবদ্ধতায় ৩০ পরিবার

স্টাফ রিপোর্টার, পঞ্চগড় ॥ পঞ্চগড় পৌরসভার এম আর কলেজ রোডের ডোকরোপাড়ায় হঠাৎ জলাবদ্ধতায় পড়েছে প্রায় ৩০টি পরিবার। প্রবল বৃষ্টিতে পানি সরে না যাওয়ায় এই জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। ময়লা-আবর্জনা আর দুর্গন্ধযুক্ত পানি এলাকার পরিবেশ দুষিত করে তুলেছে। স্থানীয়দের অভিযোগ, পাশের একটি কার্লভার্টের মূখে এক ব্যাক্তি দেয়াল নির্মান করায় এবং কয়েকদিন ধরে লাগাতার বৃষ্টিপাতের এই জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। শুধু কলেজরোড এলাকাই নয় পঞ্চগড় পৌরসভার অনেক এলাকায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। অপরিকল্পিত ড্রেনেজ ব্যবস্থাসহ নির্মানাধীন ড্রেনের ময়লা পরিস্কার না করায় পানি সরে যেতে বাধাগ্রস্থ হচ্ছে। ফলে পানি উপচে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হচ্ছে। সোমবার সকালে পঞ্চগড় সরকারী এম আর কলেজ রোডের পাশে ডোকরোপাড়ায় গিয়ে দেখা গেছে, কয়েকদিনের বৃষ্টিতে সেখানে হাটু পানি জমে আছে। ময়লা ও দুর্গন্ধযুক্ত পানিতে পরিবেশ মারাত্মকভাবে দুষিত হচ্ছে। স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী ছাড়াও বাড়ির সকলে এই ময়লা পানির ওপর দিয়ে যাতায়াত করতে বাধ্য হচ্ছে। দ্রুত দুর্গন্ধযুক্ত পানি না সরাতে পারলে রোগ-ব্যাধি ছড়ানোর আশংকা করছেন এলাকাবাসী

ভূক্তভোগিদের অভিযোগ, আগে এই এলাকায় কোন জলাবদ্ধতা ছিল না। এম আর কলেজ রোডের একটি কার্লভার্ট দিয়ে এই পানি দ্রুত সরে যেত। এক বছর আগে ওই এলাকায় জমি কিনে এক ব্যক্তি কার্লভার্টের পানি যাওয়ার স্থানে রাতারাতি দেয়াল নির্মান করে। তখন থেকেই এই এলাকায় জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। তারা জানিয়েছেন বিষয়টি নিয়ে বেশ কয়েকবার পৌর মেয়র ও স্থানীয় কাউন্সিলরকে অভিযোগ করার পরও তারা কোন ব্যবস্থা নেননি।

ডোকরোপাড়ার গৃহিনী আফরোজা বেগম জানান, কয়েকদিনের বৃষ্টিতে জলাবদ্ধতায় আটকে গেছি আমরা। পানি সরে না যাওয়ায় চরম ভোগান্তির মধ্যে দিন কাটাচ্ছি । হাটু পরিমান ময়লা পানি ডিঙ্গিয়ে ছেলে-মেয়েরা স্কুলে যেতে চায়না। ঘরের ভেতরে পানি উঠে যাচ্ছে। ওই এলাকার বাসিন্দা তফছের আলী জানান, আমাদের এলাকায় চলাচলের কোন রাস্তা এবং পানি সরে যাওয়ার কোন ড্রেন নেই। তাই একটু বৃষ্টিতেই জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। পানি জমে থাকায় আমার একটি পেঁপে বাগান নষ্ট হয়ে গেছে।

এ ব্যাপারে ওই এলাকার পৌর কাউন্সিলর বেলাল হোসেন কার্লভার্টের মূখ দেয়াল দিয়ে বন্ধ করে দেয়ার কথা স্বীকার করে বলেন, রাতারাতি এখানে কে বা কারা দেয়াল নির্মান করেছে তা আমরা জানিনা। পৌর মেয়র দেশের বাইরে আছেন। তিনি ফিরে আসলে এ ব্যাপারে পদক্ষেপ নেয়া হবে।

করোনাভাইরাস আপডেট
বিশ্বব্যাপী
বাংলাদেশ
আক্রান্ত
১৭৭০৯৫৪৫৫
আক্রান্ত
৮৪৪৯৭০
সুস্থ
১৬১৩০৪৬০১
সুস্থ
৭৭৮৪২১
শীর্ষ সংবাদ:
বিষ ছড়াচ্ছে পলিথিন ॥ হুমকির মুখে জনস্বাস্থ্য ও প্রাকৃতিক পরিবেশ         প্রধানমন্ত্রী আজ ৫৩ হাজার পরিবারকে দিচ্ছেন জমি ও ঘর         রাজধানীতে একই পরিবারের ৩ জন খুন         গণটিকাদান কর্মসূচী শুরু         পুঁজিবাজারের সামনে ভাল ভবিষ্যৎ রয়েছে         প্রিয় পিতার জন্য ভালবাসা         ভুটানের সঙ্গে পিটিএ কার্যকর হচ্ছে নতুন বছরে         করোনায় একদিনে মৃত্যু বেড়ে ৬৭         করোনা বেড়ে যাওয়ায় পর্যটনশিল্প ফের অনিশ্চয়তায়         নাসির ও অমির তিন রক্ষিতা কারাগারে         রোহিঙ্গাদের এনআইডি পাওয়ার নেপথ্যে চাঞ্চল্যকর জালিয়াতি         প্রাকৃতিক গ্যাস অনুসন্ধানই জ্বালানি নিরাপত্তার অন্যতম উপায়         প্রমাণ সরবরাহ করলে তথ্য দেবে সুইস ব্যাংক         সাবেক জেলা নির্বাচন কর্মকর্তাসহ ১৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা         একই স্থানে সব সেবা প্রদান সুবিধা থাকা বাঞ্ছনীয় : বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্য ৬৭         “১২ বছর আগের পিছিয়ে পরা বাংলাদেশ আজ অপ্রতিরোধ্য গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে”         খুলনা বিভাগে একদিনে করোনায় সর্বোচ্চ মৃত্যু ২২, শনাক্ত ৬২৫         দেশব্যাপী সিনোফার্মের ভ্যাকসিন দেওয়া শুরু         ‘আবার ব্যাপকভাবে জনগণকে টিকা দেওয়ার কার্যক্রম শুরু হবে’