ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯

বরগুনা আঞ্চলিক সড়কে বড় বড় গর্ত, নজর নেই কর্তৃপক্ষের

সংবাদদাতা, বাকেরগঞ্জ

প্রকাশিত: ২০:২১, ১৯ আগস্ট ২০২২

বরগুনা আঞ্চলিক সড়কে বড় বড় গর্ত, নজর নেই কর্তৃপক্ষের

সড়কে সৃষ্ট বড় বড় গর্ত।

বরগুনার বাকেরগঞ্জ উপজেলার উপর দিয়ে বরিশাল টু বরগুনা সড়কের পাদ্রীশিবপুর নিউমার্কেট স্ট্যান্ড থেকে মহেশপুর হয়ে আঞ্চলিক সড়কটি বরগুনা জেলার সঙ্গে সংযোগ হয়েছে। সড়কটির বিভিন্ন স্থানে বড় বড় গর্ত সৃষ্টি হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে সড়কটি পথচারীদের ভোগান্তির কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

সড়কটির অনেক স্থানে এত বড় গর্ত তৈরি হয়েছে যে, গর্তে পড়ে প্রায়ই দুর্ঘটনা ঘটছে। আর এই পরিস্থিতি মোকাবিলায় মাঝে মধ্যে পিচ রাস্তার গর্তে স্থানীয় চেয়ারম্যান এর উদ্যোগে ইটের সলিং করে চলাচলের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

বরিশাল সড়ক ও জনপথ বিভাগে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বরিশাল থেকে বরগুনা যেতে বাকেরগঞ্জ হয়ে আঞ্চলিক সড়কটি ৬০ কিলোমিটারের। এই সড়কের বাকেরগঞ্জ থেকে নিয়ামতি পর্যন্ত বর্তমানে চলাচলের ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। বেশিরভাগ স্থানে সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্ত ও বৃষ্টির পানিতে জলাবদ্ধতা। 

সরেজমিনে দেখা গেছে, বাকেরগঞ্জ টু বরগুনা আঞ্চলিক সড়কের নিউমার্কেট বাস স্ট্যান্ডে বরগুনা সড়কের সংযোগ মুখে বৃষ্টির পানিতে হাঁটু সমান হয়ে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। মাসের পর মাস পানি জমে থাকায় সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্ত। হাসান নগর মাদ্রাসা সংলগ্ন আঞ্চলিক সড়কে বিভিন্ন স্থানে বিটুমিন (পিচ) আর পাথর উঠে বড় বড় গর্ত সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়াও মহেশপুর, নতুন বাজার, নিয়ামতি বাস স্ট্যান্ড, নিয়ামতি বাজার সেতুর ঢালে বিটুমিন (পিচ) উঠে গিয়ে বিভিন্ন জায়গায় খানাখন্দ সৃষ্ট হয়েছে। সড়কের মাঝখানে গর্তের কারণে প্রতিনিয়ত ঘটছে ছোট বড় দুর্ঘটনা। সড়ক বিভাগ থেকে মাঝে মধ্যে সংস্কার করার আশ্বাস দিলেও কাজের কাজ কিছুই করছেন না বলে অভিযোগ। সৃষ্টি হওয়া গর্তগুলো দিন দিন বড় হয়ে যাচ্ছে। 

ওই সড়কে গাড়ি চলাচলকারি চালকরা জানান, মাত্র ১ ঘণ্টার পথ এখন ২ ঘণ্টায় যাওয়া যাচ্ছে না। সামান্য বৃষ্টি হলেই সড়কটির বিভিন্ন স্থানে পানি জমে যায়। পিচ-পাথর উঠে বড় বড় গর্ত তৈরি হচ্ছে। তাছাড়া এই ভাঙাচুরা সড়কে প্রায়ই দুর্ঘটনা ঘটছে। সড়কটুকুতে সু-নজর নেই কর্তৃপক্ষের। 

স্থানীয় বাসিন্দা মহব্বত আলী বেপারীর পুত্র সোহরাব বেপারী জানান, এই সড়ক হয়ে আমাদের বাকেরগঞ্জ উপজেলার উপর দিয়েই উত্তরবঙ্গে যানবাহন চলাচলের একমাত্র মাধ্যম এই সড়ক। এছাড়াও গুরুত্বপূর্ণ এই আঞ্চলিক সড়কটি দিয়ে ঢাকা, রাজশাহী, ফরিদপুরসহ জাতীয় ও আঞ্চলিক বিভিন্ন রুটের যাত্রীবাহী বাসসহ পণ্যবাহী যানবাহন চলাচল করে থাকে। কিন্তু সড়কটির নিউ মার্কেট থেকে শুরু করে হাসান নগড় হয়ে নিয়ামতি বাজার পর্যন্ত ভেঙেচুরে বড় বড় গর্ত হয়ে যাওয়ায় অতিরিক্ত সময়ের পাশাপাশি ভোগান্তির শেষ নেই। এই সড়কে রাতদিন যানবাহন চলাচল করে সড়কের মাঝে বড় বড় গর্তে যানবাহন পড়ে গিয়ে বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটার আশঙ্কা রয়েছে। 

বরিশার জেলা এলজিইডি'র প্রকৌশলী শরীফ জামাল উদ্দিন জানান, বাকেরগঞ্জ বরগুনা আঞ্চলিক সড়কের সঙ্গে পানি উন্নয়ন বোর্ডের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে। তাদের সঙ্গে সমন্বয় করে সড়কের ভাঙ্গন ও গর্ত রোধ করে রিপায়ার কাজ শিঘ্রই করা হবে। 

বরিশাল পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী দীপক চন্দ্র দাস জানান, বাকেরগঞ্জ টু বরগুনা আঞ্চলিক সড়কের বিষয়ে এলজিইডি'র কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা হয়েছে। সড়কটির সরেজমিনে গিয়ে সমস্যাগুলো চিহ্নিত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।