ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০

ওয়ালটন প্রথম বিভাগ মহিলা দাবা লিগ শুরু বুধবার 

প্রকাশিত: ২১:১৩, ১৮ মার্চ ২০২৩

ওয়ালটন প্রথম বিভাগ মহিলা দাবা লিগ শুরু বুধবার 

দাবা ফেডারেশনের সভাকক্ষে সংবাদ সম্মেলন।

ওয়ালটন হাইটেক ইন্ডাস্ট্রিস লিমিটেড (পিএলসি)-এর পৃষ্ঠপোষকতায় ও বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে আগামী বুধবার (২২ মার্চ, ২০২৩) থেকে শুরু হতে যাচ্ছে ‘ওয়ালটন প্রথম বিভাগ মহিলা দাবা লিগ-২০২৩’। ১২টি দলের অংশগ্রহণে ৭ দিনব্যাপী এই প্রতিযোগিতা চলবে ২৮ মার্চ পর্যন্ত। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হবে ২৯ মার্চ সকালে।

শনিবার (১৮ মার্চ) প্রতযোগিতার বিষয়ে বিস্তারিত জানাতে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। 

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের জ্যেষ্ঠ নির্বাহী পরিচালক (গেমস অ্যান্ড স্পোর্টস, মার্কেটিং) এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন), বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক মাসুদুর রহমান মল্লিক দিপু, ফেডারেশনের নির্বাহী কমিটির সদস্য ও নারী কমিটির চেয়ারম্যান মিসেস আঞ্জুমান আরা আকসির ও আন্তর্জাতিক বিচারক হারুন-অর- রশিদসহ অন্যান্যরা।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয় প্রথম বিভাগ মহিলা দাবা লিগ একটি দলগত দাবা ইভেন্ট।এতে অংশগ্রহণ করার জন্য ১২টি দলকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। ইতোমধ্যে আটটি দল অংশগ্রহণ নিশ্চিত করেছে। আমন্ত্রিত কোনো দল যদি অংশ না নেয় তাহলে তারা দ্বিতীয় বিভাগে নেমে যাবে।

লিগে অংশ নিতে যাওয়া দলগুলো হলো গতবারের চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ নৌবাহিনী,বাংলাদেশ পুলিশ, তিতাস ক্লাব, উত্তরা সেন্ট্রাল চেস ক্লাব, রূপালী ব্যাংক ক্রীড়া পরিষদ, বসির মেমোরিয়াল চেস ক্লাব, শেখ রাসেল চেস ক্লাব, শাহিন চেস ক্লাব,সোনালী ব্যাংক ক্রীড়া ও বিনোদন ক্লাব, সুলতানা কামাল স্মৃতি পাঠাগার, টিম বরিশাল ও বসির মেমোরিয়াল চেস একাডেমি।

প্রতিটি দলে ৪ নিয়মিত ও ২ অতিরিক্ত খেলোয়াড় থাকবে। লিগের খেলা রাউন্ড-রবিন লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হবে।

আরও জানানো হয়, এটি একটি আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা। এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ার মাধ্যমে ভালো করা খেলোয়াড়দের রেটিং বাড়বে, খারাপ করা খেলোয়াড়দের রেটিং কমবে। আবার নতুন খেলোয়াড়রা রেটিংপ্রাপ্ত হবেন।

প্রতিযোগিতার প্রাইজমানি থাকবে ৫০ হাজার টাকা। তার মধ্যে চ্যাম্পিয়ন দল ২৫ হাজার, রানার্সআপ দল ১৫ হাজার ও তৃতীয় স্থান অধিকারকারী দল ১০ হাজার টাকা প্রাইজমানি পাবে। এছাড়া শীর্ষস্থানপ্রাপ্ত তিনটি দলকে ট্রফি ও মেডেল দেয়া হবে।

সংবাদ সম্মেলনে এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন) বলেন, বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সঙ্গে অনেকদিন ধরেই আমরা কাজ করছি। দাবা ফেডারেশনের সঙ্গে ওয়ালটন গ্রুপের একটি আত্মিক সম্পর্ক তৈরি হয়েছে। বুদ্ধিদীপ্ত সমাজ গঠন এবং সামাজিক দায়বদ্ধতার অংশ হিসেবে আমরা ওয়ালটন পরিবার দাবাকে নিয়মিত পৃষ্ঠপোষকতা করছি। 

আমরা প্রতি বছর বিভিন্ন দাবা লিগ, আন্তর্জাতিক রেটিং দাবা, মহানগরী ফিদে রেটিং দাবা, জাতীয় মহিলা দাবা চ্যাম্পিয়নশিপ ও দ্বিতীয় বিভাগ দাবা লিগে পৃষ্ঠপোষকতা করার চেষ্টা করছি। দৃষ্টিহীনদের দাবার শুরু থেকেই ছিল ওয়ালটন গ্রুপ। দাবায় প্রাইজমানির পদ্ধতিটি আমরা ওয়ালটন পরিবারই প্রথম চালু করি।

ওয়ালটন গ্রুপকে ধন্যবাদ দিয়ে ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক মাসুদুর রহমান মল্লিক বলেন,  ওয়ালটন গ্রুপ অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে কখনো ওয়ালটনের ব্যানারে, আবার কখনো মার্সেলের ব্যানারে দাবা খেলার নিয়মিত পৃষ্ঠপোষকতা করে আসছে। ২০১৪ সাল থেকে ওয়ালটন গ্রুপ প্রিমিয়ার ডিভিশন, প্রথম বিভাগ, দ্বিতীয় বিভাগ, রেটিং দাবা প্রতিযোগিতা, মহিলা দাবা ও বিজয় দিবস আন্তর্জাতিক র‌্যাপিড দাবা প্রতিযোগিতায় পৃষ্ঠপোষকতা করে আসছে। আমরা ওয়ালটন গ্রুপ, মার্সেল ব্র্যান্ড এবং ওয়ালটন পরিবারকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই।

এই প্রতিযোগিতার মিডিয়া পার্টনার এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজ। সহযোগিতায় রয়েছে ওয়ালটন গ্রুপের জনপ্রিয় ব্র্যান্ড মার্সেল। আর অনলাইন পার্টনার হিসেবে আছে রাইজিংবিডি.কম।

রুমেল

×