ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ১০ বৈশাখ ১৪৩১

সাকিব আল হাসান এখন গ্রাজুয়েট

প্রকাশিত: ১৯:১১, ১৯ মার্চ ২০২৩; আপডেট: ১৯:১৯, ১৯ মার্চ ২০২৩

সাকিব আল হাসান এখন গ্রাজুয়েট

সাকিব আল হাসান

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তার নামের পাশে বছরের পর বছর জুড়ে নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার। আবার মাঠের খেলোয়াড়ি সত্ত্বা ছাড়িয়েও মাঝেমধ্যে আলোচনায় আসেন। তিনি এখন গ্রাজুয়েট। পূরণ করলেন মায়ের স্বপ্ন। আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির (এআইইউবি) ২০০৯-১০ সেশন থেকে ব্যাচেলর অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (বিবিএ) ডিগ্রি সম্পন্ন করেছেন ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। 

রবিবার (১৯ মার্চ) অনুষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়টির ২১তম সমাবর্তনে গ্র্যাজুয়েশন সনদ পান তিনি। তার অফিসিয়াল নাম খন্দকার সাকিব আল হাসান।
 
বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে এআইইউবির ২১তম সমাবর্তন অনুষ্ঠিত হয়। সমাবর্তন অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর আবদুল হামিদের সম্মতিক্রমে সভাপতিত্ব করেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। তিনি গ্র্যাজুয়েটদের মধ্যে সনদ বিতরণ করেন।

সমাবর্তনে বিভিন্ন অনুষদের মোট ৪ হাজার ৭২২ জন শিক্ষার্থীকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি দেওয়া হয়। এছাড়া বিভিন্ন বিষয়ে কৃতিত্ব ও শিক্ষায় সর্বোত্তম ফলাফল অর্জনকারী ছাত্রছাত্রীদের স্বর্ণপদক, একাডেমিক অ্যাওয়ার্ড ও সনদপত্র দেওয়া হয়।

এ সময় সাকিব বলেন, ক্রিকেটে যখন আমার অভিষেক হয়, ক্যাপটা যখন হাতে পেয়েছিলাম, তখন যেমন মনে ছিল, এত বছর পর আজ সেই একই অনুভূতি কাজ করছে।

তিনি বলেন, ২০০৯ সালের দিকে আমার ক্রিকেট ক্যারিয়ারের তিন বছর হয়ে যাওয়ার পরও আম্মা যখন ফোন করতেন, তখন জিজ্ঞেস করতেন, আমার পড়াশোনর কী অবস্থা। আজ আমি খুবই খুশি, খুবই আনন্দিত এবং গর্বিত। অবশেষে আমার এ স্বপ্নটা পূরণ হলো। খেলার মাঠে হয়তো বেশকিছু অর্জন আছে, কিন্তু এ গ্র্যাজুয়েশন আমার সবসময় স্বপ্ন ছিল।

সমাবর্তনে বিশ্ববিদ্যালয়ের বোর্ড অব ট্রাস্টির সদস্য, ডিন, ট্রেজারার, রেজিস্ট্রার, সিন্ডিকেট, একাডেমিক কাউন্সিলের সদস্য, শিক্ষক, বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও ইউজিসি প্রতিনিধি, দেশি-বিদেশি অতিথি, ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকরা অংশ নেন। এছাড়া বিভিন্ন গণমাধ্যমের সাংবাদিকরা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।
 

এমএস

সম্পর্কিত বিষয়:

×