ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২৪ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

আগামীকাল প্রধানমন্ত্রী রাজশাহী আসছেন

প্রকাশিত: ০০:৫৩, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

আগামীকাল প্রধানমন্ত্রী রাজশাহী আসছেন

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ আগামীকাল বৃহস্পতিবার রাজশাহী সফরে আসছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাকে বরণে প্রস্তুত এখন পদ্মাপাড়ের বিভাগীয় শহর রাজশাহী। এরই মধ্যে এ অঞ্চলের সড়ক-মহাসড়কে শোভা পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীকে শুভেচ্ছা ও স্বাগত জানিয়ে হাজারো বাহারি তোরণ। আওয়ামী লীগ নেতারা ছাড়াও বিভিন্ন পেশাজীবী এবং প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকেও নির্মাণ করা হয়েছে এসব তোরণ। শহরময় ঝোলানো হয়েছে নানান সাইজের ব্যানার-ফেস্টুন। এ আয়োজন সফল করতে দফায় দফায় সভা-সমাবেশ করছে আওয়ামীলীগ ও এর অঙ্গ সংগঠনগুলো। সবমিলিয়ে গতিময় হয়ে উঠেছে তৃণমূল রাজনীতি। শহর ছাপিয়ে এর রেশ গিয়ে ঠেকেছে গ্রামের পাড়া মহল্লায়। সবখানেই চলছে সাজসাজ রব। চলছে প্রচার-প্রচারণা। কেন্দ্রীয় নেতারাও এইমধ্যে অবস্থান করছেন রাজশাহীতে। রাজশাহীবাসী প্রধানমন্ত্রীকে বরনের অপেক্ষায় রয়েছেন। এদিকে রাজশাহীর ঐতিহাসিক মাদ্রাসা ময়দানে প্রস্তুত সভামঞ্চ। বিশাল আকারের নৌকার আদলে তৈরী হচ্ছে এবারের মঞ্চ। বৃহস্পতিবার দুপুর ২টার পর শুরু হবে প্রধানমন্ত্রীর এ জনসভা। সেখানেই লাখো জনতার উদ্যেশে ভাষন দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আয়োজনের প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে জানিয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য ও নগর সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, এরই মধ্যে নগরীকে তোরণ, ব্যানার ফেস্টুন ও আলোকসজ্জায় সাজানো হয়েছে। জনসভাস্থল মাদরাসা ময়দানে নৌকাসদৃশ বিশালাকার মঞ্চ নির্মাণ সম্পন্ন হয়েছে। আওয়ামী লীগ ছাড়াও ১৪ দলের অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরাও এ জনসভায় অংশ নেবেন। জনসভাকে জনসমুদ্রে রূপান্তর করতে প্রায় ৫ লাখ মানুষ উপস্থিত থাকবেন। আর নগরীর আইল্যান্ড সাজিয়েছে সিটি করপোরেশন। রাজশাহী নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার বলেন, প্রধানমন্ত্রী রাজশাহীতে এসে ২০টি উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন করবেন। ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন আরো ৯টি উন্নয়ন প্রকল্পের। এর বাইরে রাজশাহী আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ৯টি দাবি জানানো হবে। রাজশাহীর উন্নয়নের স্বার্থে প্রধানমন্ত্রী তার জনসভা থেকে এসব দাবি পূরণের ঘোষণা দেবেন বলে আশাবাদি এই আওয়ামী লীগ নেতা। সবমিলিয়ে রাজশাহীবাসী এখন অপেক্ষায় প্রধানমন্ত্রীকে বরনের জন্য। রাজশাহী নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, প্রায় ৫ লাখ মানুষের সমাগম ঘটিয়ে প্রধানমন্ত্রীর এই জনসভাকে জনসমুদ্রে পরিনত করা হবে। মাদ্রাসা মাঠ ছাড়াও আশাপাশের এলাকাতেও জনসভায় আগতদের অবস্থান করার ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। জনসভা ঘিরে ব্যাপক প্রস্তুতি শেষ হয়েছে। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ছাড়াও প্রধানমন্ত্রীর রাজশাহী সফর ঘিরে আগ্রহের কমতি নেই জনসাধারণের মধ্যেও। প্রসঙ্গত, ২০০৮ সালে মহাজোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর রাজশাহীতে প্রধানমন্ত্রীর পঞ্চম সফর এটি। এর আগে গত বছরের ১৪ সেপ্টেম্বর রাজশাহী সফরে এসেছিলেন তিনি। এছাড়া ২০১১ সালের ২৪ নবেম্বর রাজশাহীর মাদ্রাসা ময়দানে, ২০১৩ সালের ৫ সেপ্টেম্বর বাগমারায় এবং ২০১৪ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি চারঘাটে আওয়ামী লীগের জনসভায় যোগ দিয়েছিলেন দলের সভানেত্রী শেখ হাসিনা।
monarchmart
monarchmart