মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

তিনি থাকেন ঢাকায় অফিস করেন চাঁপাইয়ে!

প্রকাশিত : ২৮ মে ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার, চাঁপাইনবাবগঞ্জ ॥ তিনি প্রতি সপ্তাহে ২১ হাজার টাকা ভাড়ায় মাইক্রোতে চড়ে ঢাকা থেকে অফিস করতে আসেন চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুর উপজেলায়। তিনদিন বসিয়ে রেখে সেই মাইক্রোতে ঢাকা ফেরেন। অর্থাৎ তিনি মাসে মাইক্রোর ভাড়া গোনেন ৮৪ হাজার টাকা। এই সরকারী কর্মকর্তা হচ্ছেন একজন সাব রেজিস্ট্রার। নাম তার শ্রী বসু প্রদীপ কুমার। তার বিরুদ্ধে রয়েছে ঘুষ বাণিজ্য, অনিয়ম, দুর্নীতি ও স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ। আর এসব অভিযোগ নিয়ে ফুঁসে উঠেছে গোমস্তাপুর দলিল লেখক সমিতি। তারা দেড় সপ্তাহজুড়ে আন্দোলন করে আসছে। মিটিং, মিছিল, স্মারকলিপি প্রদানসহ ইতোমধ্যে জেলা শহরে এসে সংবাদ সম্মেলনও করেছেন। তারা অবিলম্বে তাকে প্রত্যাহারের দাবিতে ১৮ মে থেকে কলম বিরতি চলছে। তাকে অপসারণ না করা পর্যন্ত কলম বিরতি অব্যাহত থাকবে বলে সমিতির সভাপতি মনিরুল ইসলাম লিখিতভাবে জানিয়েছেন। ফলে গোমস্তাপুরে কোন দলিল রেজিস্ট্রি হচ্ছে না সপ্তাহজুড়ে। তিনি আরও জানান সাব-রেজিস্ট্রার গত বছরের অক্টোবরে এখানে আসার পর জমির খাজনা রশিদ না থাকার অজুহাত খাড়া করে অতিরিক্ত টাকা আদায় করছেন। পাশাপাশি আম মোক্তার নামা দলিল ও হেবা দলিল রেজিস্ট্রির জন্য ২০ গুণের বেশি টাকা আদায় করা সাধারণ নিয়মে পরিণত হয়েছে। কমিশন সরকারীভাবে ৪৫০ টাকা নির্ধারণ থাকলেও স্ব-থানায় সাড়ে চার হাজার টাকা ও অন্য থাকা হলে আদায় করা হয় অর্ধ লাখ টাকা। অনিয়ম ও দুর্নীতির কারণে সরকার বৈধ রাজস্ব হারাচ্ছে। যার পরিমাণ প্রতিদিন চার লাখ টাকার অধিক বলে জানা গেছে। তিনি অর্থাৎ সাব রেজিস্ট্রার কর্মস্থলে না থাকলেও সোমবার ঢাকা থেকে মাইক্রোতে চেপে এসে ব্যাক ডেট দিয়ে দলিল রেজিস্ট্রি সম্পন্ন করে। সপ্তাহে মাত্র তিনদিন অফিস সেরে বৃহস্পতিবার দুপুরের আগেই কর্মস্থল ত্যাগ করেন। জাকারিয়া নামের জনৈক কর্মচারী সপ্তাহের যে কোন দিনের দলিল সাব রেজিস্ট্রার না থাকলেও রেজিস্ট্রি সম্পন্ন করার অঘোষিত দায়িত্ব পালন করেন। এ বিষয়ে সাব রেজিস্ট্রার বসু প্রদীপ কুমারের মোবাইলে বহুবার কথা বলার চেষ্টা করা হলেও তিনি ফোন ধরেননি। পরবর্তীতে ফোন ধরলেও তার অফিসের জাকারিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলেন।

কুমিল্লায় বার্ডের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

নিজস্ব সংবাদদাতা, কুমিল্লা, ২৭ মে ॥ বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন একাডেমি (বার্ড) কুমিল্লার ৫৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী বুধবার দিনব্যাপী বিভিন্ন অনুষ্ঠানমালার মধ্য দিয়ে উদ্যাপন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে বার্ড অডিটরিয়ামে ‘পল্লী উন্নয়নে বার্ডের ভূমিকা বিষয়ক সেমিনার’ অনুষ্ঠিত হয়। এতে বার্ডের মহাপরিচালক সালাহউদ্দিন মাহমুদ প্রধান অতিথি ও কুমিল্লার জেলা প্রশাসক মোঃ হাসানুজ্জামান কল্লোল বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন। বার্ডের পরিচালক (প্রকল্প) ড. একে শরীফউল্লাহর সভাপতিত্বে সেমিনারে বক্তব্য রাখেন বার্ডের পরিচালক (প্রশিক্ষণ) ড. কামরুল আহসান, পরিচালক (পল্লী প্রশাসন ও স্থানীয় সরকার) মোঃ সফিকুল ইসলাম, পরিচালক (প্রশাসন) মোঃ মিজানুর রহমান প্রমুখ।

প্রকাশিত : ২৮ মে ২০১৫

২৮/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: