মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

বতসোয়ানা এ দেশ

প্রকাশিত : ২২ ডিসেম্বর ২০১৪

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ থেকে জনশক্তি নেয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছে বতসোয়ানা। রবিবার ঢাকায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলীর সঙ্গে এক বৈঠকে বতসোয়ানার প্রেসিডেন্টের দফতর এবং জনপ্রশাসন বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ডিক্যাঙ্গ ফিলিপ ম্যাগালেমেলে এই আগ্রহ প্রকাশ করেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়,

বৈঠককালে বতসোয়ানার প্রতিমন্ত্রী বাংলাদেশের কৃষি ও শিল্পসহ সামগ্রিক অর্থনীতিতে বাংলাদেশের সাফল্যকে চমৎকার বলে বর্ণনা করেন। তিনি জানান, বাংলাদেশের অগ্রগতির বিস্ময়কর চিত্র নিজ চোখে দেখার জন্য পৃথিবীর আরেক প্রান্ত হতে এদেশে ছুটে এসেছেন। তিনি বতসোয়ানায় কর্মসংস্থান বৃদ্ধির জন্য বাংলাদেশের শিল্পোদোক্তাদের সে দেশে পোশাকসহ অন্যান্য শিল্পোৎপাদন কারখানা স্থাপনের আহ্বান জানান।

বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী তৈরি পোশাক, ওষুধ, সমুদ্রগামী জাহাজ, চামড়া ও চামড়াজাত শিল্পসহ অন্যান্য শিল্পের অগ্রগতি ও এসব পণ্য ইউরোপ, আমেরিকাসহ অন্যান্য দেশে রফতানির প্রবৃদ্ধি সম্পর্কে বতসোয়ানার প্রতিমন্ত্রীকে অবহিত করেন। তিনি আরও জানান, বর্তমানে ইতালি, জাপান ও চীন স্ব-স্ব দেশে শিল্পোৎপাদনের উচ্চ খরচের কারণে বাংলাদেশে তাদের কিছু কিছু উৎপাদন কারখানা স্থানান্তরের আগ্রহ ব্যক্ত করেছে। বাংলাদেশ সরকারও ইতালি, জাপান, চীন এবং ভারতের জন্য বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল গঠন করতে যাচ্ছে। মাহমুদ আলী বলেন, বর্তমানে বতসোয়ানা বাংলাদেশ হতে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত দক্ষ শ্রমিক, অদক্ষ কর্মী, উচ্চ শিক্ষিত পেশাজীবীসহ অন্যান্য কর্মী বিপুল পরিমাণে আমদানি করতে পারে। শুধুমাত্র এসব কর্মী নয় বরং বাংলাদেশের বিভিন্ন এনজিও বতসোয়ানার আর্থসামাজিক উন্নয়নে গুরুত্বপূূর্ণ অবদান রাখতে পারবে বলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আশা প্রকাশ করেন।

বৈঠকে অর্থনৈতিক বিষয় ছাড়াও পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশ ও বতসোয়ানার মধ্যে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক আরও সম্প্রসারণের লক্ষ্যে তিনটি বিষয় উত্থাপন করেন। এর মধ্যে প্রথমটি হলো দু’দেশের মধ্যে ফরেন অফিস কনসালটেশনের জন্য প্রটোকল স্বাক্ষর। দ্বিতীয়টি হলো কূটনীতিক ও সরকারী পাসপোর্টধারীদের জন্য ভিসা প্রথা রহিতকরণ। আর তৃতীয়টি হলো বাংলাদেশ হতে বতসোয়ানায় জনশক্তি রফতানি। প্রতিমন্ত্রী ম্যাগালেমেলে এসব বিষয়ে একমত পোষণ করেন।

বৈঠকে দু’দেশের মধ্যে শীঘ্রই উচ্চ পর্যায়ের সফর বিনিময়ের বিষয়েও আলোচনা হয়। এ সময় বতসোয়ানার দারিদ্র্যবিষয়ক উপদেষ্টা, বতসোয়ানায় বাংলাদেশের অনারারী কনসাল ড. মোজাফ্ফর হোসেন এবং বাংলাদেশের পক্ষে পররাষ্ট্র সচিব মোঃ শহীদুল হক, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের আফ্রিকা শাখার মহাপরিচালক বদিরুজ্জামানসহ মন্ত্রণালয়ের উর্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, বতসোয়ানার প্রেসিডেন্ট দফতর এবং জন প্রশাসন বিষয়ক প্রতিমন্ত্রীর নেতৃত্বে তিন সদস্যের একটি দল শনিবার দুই দিনের সরকারী সফরে ঢাকায় পৌঁছেন। সোমবার তারা ঢাকা ত্যাগ করবেন। এটি বতসোয়ানা থেকে বাংলাদেশে কোন মন্ত্রী পর্যায়ের প্রথম সফর।

প্রকাশিত : ২২ ডিসেম্বর ২০১৪

২২/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: