কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

পরিবেশ কর্মীর জন্য সবচেয়ে বিপজ্জনক লাতিন আমেরিকা

প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০১৫
  • গত বছর ২ শতাংশ হত্যাকাণ্ড বেড়েছে

লাতিন আমেরিকা পরিবেশ ও ভূমি অধিকার কর্মীদের জন্য সবচেয়ে বিপজ্জনক স্থান। গত বছর সারাবিশ্বে ১১৬ জন অধিকার কর্মী খুন হয়েছে। এর চার-তৃতীয়াংশ বা ৮৭ জনই খুন হয়েছে এ মহাদেশে। এ হত্যাকা-ের হার গত বছর ২০ শতাংশ বেড়েছে। ব্রিটেনভিত্তিক পর্যবেক্ষণ সংস্থা গ্লোবাল উইটনিসের সোমবার প্রকাশিত প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে। খবর এএফপি ও বিবিসির।

লাতিন আমেরিকার দেশ হন্ডুরাস সবচেয়ে বিপজ্জনক ভূমি ও পরিবেশ কর্মীদের জন্য এবং দেশটিতে বিশ্বের মধ্যে মাথাপিছু হত্যাকা-ের সংখ্যা সর্বোচ্চ। দেশটিতে ২০০২ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত একশ’ ১১টি এমন হত্যাকা-ের ঘটনা ঘটেছে। ‘আর কত’ শিরোনামের প্রতিবেদনের বরাতে এ তথ্য জানা গেছে। গ্লোবাল উইটনিসের এক ক্যাম্পেনার বিলি কাইট বলেছেন, হন্ডুরাস এবং বিশ্বজুড়ে পরিবেশ কর্মীদের প্রকাশ্য দিবালোকে গুলি করে হত্যা, অপহরণ ও হুমকি দেয়া হয়। এজন্য অধিকার কর্মীদের আরও নিরাপত্তা নিশ্চিত করা প্রয়োজন। এসব অপরাধের মূল হোতারা, কর্পোরেট ও রাষ্ট্রীয় স্বার্থের শক্তিশালী যোগসূত্রের ফলে শাস্তি পায় না। হত্যাকা-ে শিকারদের মধ্যে প্রায় ৪০ শতাংশ আদিবাসী। তবে গ্লোবাল উইটনিস বলেছে, আদিবাসী অধিকার কর্মীদের হত্যাকা-ের প্রকৃত সংখ্যা আরও বেশি। গত বছরের সেপ্টেম্বরে অবৈধভাবে কাঠ কাটা বন্ধে আলোচনার জন্য বৈঠকে অংশ নিতে যাওয়ার সময় পেরুর চার আদিবাসী নেতাকে হত্যা করা হয়। হন্ডুরাসের আদিবাসী কর্মী বের্তা ক্যাসেরেসকে গুয়ালাকারকুই নদীতে আগুয়া জারকা বাঁধের বিরুদ্ধে তার আন্দোলনের জন্য বার বার হুমকি দেয়া হচ্ছে।

তার সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের সানফ্রান্সিসকোতে ২০১৫ সালের গোল্ডম্যান এনভারনমেন্টাল প্রাইজ গ্রহণ করার কথা রয়েছে। তৃণমূল পর্যায়ের পরিবেশকর্মীদের এ পুরস্কার দেয়া হয়।

রিপোর্টে বলা হয়েছে, গত বছর ব্রাজিলে ২৯ জন, কলম্বিয়ায় ২৫ জন এবং ফিলিপিন্সে ১৫ জন পরিবেশ কর্মী হত্যাকা-ের শিকার হয়েছেন। ভূমি অধিকার কর্মীদের জন্য বিশ্বের দ্বিতীয় বিপজ্জনক স্থান হলো দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া। আধা-সামরিক গ্রুপ, পুলিশ, ব্যক্তিগত নিরাপত্তাকর্মী এবং সেনাবাহিনীও প্রায়ই এসব হত্যাকা-ের পেছনে জড়িত থাকে।

প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০১৫

২১/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

বিদেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: