আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

কাশ্মীরে সরকার গঠনে উভয় সঙ্কটে পিডিপি

প্রকাশিত : ২৫ ডিসেম্বর ২০১৪
  • সাম্প্রদায়িক মেরুকরণ বিজেপির পক্ষে কাজ করেছে

ভারতের জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনে একক বৃহত্তম দল দ্য পিপলস ডেমোক্রেটিক পার্টি (পিডিপি) এককভাবে সরকার গঠনে উভয় সঙ্কটে পড়েছে। সদ্য অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনে মেহবুবা মুফতির নেতৃত্বাধীন পিডিপি সর্বাধিক ২৮টি আসনে জয় পেলেও সরকার গঠন প্রশ্নে তা যথেষ্ট নয়। পিডিপি’র পরেই রয়েছে কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন বিজেপি। বিজেপি পেয়েছে ২৫টি আসন। অপরদিকে ন্যাশনাল কনফারেন্স (এনসি) পেয়েছে ১৫টি আসন। ভারতের জম্মু ও কাশ্মীরে মোট ৮৭টি বিধানসভা আসন রয়েছে। ম্যাজিক সংখ্যা ছুঁতে হলে কোন দলের এককভাবে ৪৪ আসন দরকার। দীর্ঘদিন থেকে আঞ্চলিক দল ন্যাশনাল করফারেন্স (এনসি) ও পিডিবি কাশ্মীরের শাসন ক্ষমতায় রয়েছে। তবে সরকার গঠন প্রশ্নে জোট গঠনে পিডিপি বিজেপিকে বেছে নেবে কি না এটিই এখন কাশ্মীরে মুখ্যমন্ত্রী পদের জন্য সম্ভাব্য প্রার্থী মুফতি মোহাম্মদ সাইদের সামনে বড় প্রশ্ন হয়ে দেখা দিয়েছে। কারণ বিজেপি এবং পিডিপির মধ্যেকার আদর্শ সম্পূর্ণ বিপরীত। খবর দ্য হিন্দু, টাইমস অব ইন্ডিয়া ও বিবিসি অনলাইনের।

এ বিষয়ে পিডিপি নেতা মুজাফ্ফর বেগ বলেন, বিজেপিকে রাজনৈতিকভাবে একেবারে স্পর্শ করা যাবে না, আমরা ঠিক এমনটা মনে করি না। তিনি বলেন, বিজেপির এজেন্ডায় সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ নিয়ে বিতর্কের মতো বিষয় থাকলেও তা গ্রহণযোগ্য। কিন্তু পিডিপি মুখপাত্র নাইম আখতার উল্লেখ করেন, এ বিষয়ে দলে মতপার্থক্য রয়েছে। তবে মুফতি মোহাম্মদ সাইদই সিদ্ধান্ত দেবেন তিনি ঠিক কাকে তার কোয়ালিশনের শরিক হিসেবে নেবেন। দলীয় প্রধান মেহবুবা মুফতি বলেন, আমরা কোন্্ দলের সঙ্গে সম্ভাব্য জোট করছি এ বিষয়ে একটু ভাবনা চিন্তার দরকার রয়েছে। শুধুমাত্র বেশি সদস্যেও সমর্থন পাওয়াই আগ্রাধিকার নয়। জম্মু ও কাশ্মীরের এই নির্বাচনে ভোটের সাম্প্রদায়িক মেরুকরণ একটা বড় ভূমিকা রেখেছে। সেখানে হিন্দু অধ্যুষিত জম্মুতে বিজেপি বেশি আসন পেয়েছে। ওয়েবসাইট

অপরদিকে মুসলিম অধ্যুষিত কাশ্মীর উপত্যকার ভোটাররা পিডিপিকে বেছে নিয়েছে। সরকার গঠনের বিষয়ে পিডিপিকে সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষেত্রে ভোটের মেরুকরণ একটা বড় ভূমিকা রাখবে। কিন্তু এ বিষয়ে সম্ভাব্য মুূখ্যমন্ত্রী মুফতি মোহাম্মদ সাইদ ভাল করেই জানেন যে, কাশ্মীরের জন্য উন্নয়ন এবটা বড় ইস্যু। আর জম্মুর উন্নয়নে এখন কেন্দ্রের তহবিল দরকার রয়েছে। সামনে কি ঘটতে যাচ্ছে তা সময়ই বলে দেবে। গত ২০০২ সালে কাশ্মীরে বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি মাত্র ১টি আসনে জয় পায়। ২০০৮ সালে পায় ১১টি আসন।

প্রকাশিত : ২৫ ডিসেম্বর ২০১৪

২৫/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: