মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
৯ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

হামলা সংঘর্ষে যুবক ও কৃষক নিহত ॥ আহত ৪০

প্রকাশিত : ১৯ এপ্রিল ২০১৫
  • বাগেরহাট, হবিগঞ্জ কেশবপুর ও বরিশাল

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ বাগেরহাটে দুর্বৃত্তের হামলায় এক যুবক ও হবিগঞ্জে জমি বিরোধে সন্ত্রাসী হামলায় কৃষক নিহত এবং ১৫ জন আহত হয়েছে। এছাড়াও যশোরের কেশবপুরে ও বরিশালে তুচ্ছ ঘটনার সংঘর্ষে ২৫ জন আহত হয়েছে। খবর স্টাফ রিপোর্টার ও নিজস্ব সংবাদদাতাদের।

বাগেরহাট ॥ বাগেরহাটে শহরের শালতলা এলাকায় বৈশাখী মেলার অদূরে দুর্বৃত্তদের হামলায় সোহেল (২০) নামের এক যুবক খুন হয়েছে। শুক্রবার রাত ১১টার দিকে শহরের শালতলায় জেলা পরিষদ অডিটরিয়াম চত্বরের মাঠে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে বাকবিত-ার একপর্যায়ে সোহেল ও তার বন্ধু সুজনকে ছুরিকাঘাত করে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। গুরুতর জখম অবস্থায় তাকে প্রথমে বাগেরহাট সদর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসার পর খুমেক হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়। খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়ারপথে রাতেই সোহেলের মৃত্যু হয়। নিহত সোহেল শালতলাস্থ টোলকু সরকারের দোকানের কর্মচারী এবং সদর উপজেলার কাড়াপাড়া ইউনিয়নের গোবরদিয়া গ্রামে আজিজ হাওলাদারের ছেলে। নিহতের পরিবারের দাবি, এটি পরিকল্পিত হত্যাকা-।

হবিগঞ্জ ॥ সীমানা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে শনিবার সকালে হবিগঞ্জের উপজেলা বানিয়াচঙ্গের নিভৃত পল্লী এড়ালিয়ায় প্রভাবশালী লাঠিয়াল চক্র গদু গংয়ের সন্ত্রাসী হামলায় শামছুদ্দিন (৫০) নামে এক কৃষক নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে নিহতের ভাই গউছ উদ্দিনসহ অন্তত ১৫জন। গউছকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়াও কয়েকজন নিয়েছেন প্রাথমিক চিকিৎসা। ওসি নির্মূলেন্দু চক্রবর্তী জানান, ওই গ্রামের বাসিন্দা শামছুদ্দিন ও তারই প্রতিবেশী গদু মিয়ার মধ্যে বাড়ির সীমানা নিয়ে বিরোধ চলছিল। এর জের ধরে শনিবার সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে গদু মিয়ার নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র হাতে শামছুদ্দিন ও তার পরিবারের সদস্যদের ওপর অতর্কিতে হামলা চালায়। এ সময় শামছুদ্দিন ও তার পরিবারের অন্যান্য সদস্য এবং আশপাশের লোকজন বাধা দেয়ার চেষ্টা চালালেও ধারালো অস্ত্রের আঘাতে বুকে ও মাথায় মারাত্মক জখম হন শামছুদ্দিন। স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হলে সাড়ে ১০টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

কেশবপুর ॥ যশোরের কেশবপুরের কলাগাছি গ্রামে শুক্রবার সন্ধ্যায় কবুতর চুরিকে কেন্দ্র করে এক সংঘর্ষে উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত ১০ জনকে কেশবপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের ১ জনের অবস্থার অবনতি ঘটায় তাকে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা। জানা গেছে, উপজেলার সুফলাকাটি ইউনিয়নের কলাগাছি গ্রামের সন্তোষ রাহার ছেলে রবিন রাহার একটি কবুতর ২ দিন আগে হারিয়ে যায়। শুক্রবার বিকেলে রবিন রাহা কবুতরের বিষয়টি মহিতোষ রায়ের পরিবারের কাছে জানতে চাইলে কথা কাটাকাটি শুরু হয়। এক পর্যায়ে বিপ্লব রায়, শুশান্ত শীল ও প্রভাত শীলের নেতৃত্বে ৫/৬ যুবক দা, লাঠিসোটা নিয়ে সন্তোষ রাহা ও জগদীশ রাহার পরিবারের ওপর হামলা চালায়। উভয়পক্ষের সংঘর্ষে প্রায় ১৫ জন আহত হয়।

বরিশাল ॥ পূর্ব শত্রুতার জের ধরে শনিবার দুপুরে জেলার আগৈলঝাড়া উপজেলার রতœপুর ইউনিয়নের চাঁপাচুপা গ্রামে দু’পক্ষের সমর্র্থকের মধ্যে হামলা ও সংঘর্ষে উভয়পক্ষের মহিলাসহ কমপক্ষে ১০জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত একজনকে শেবাচিম ও অন্যদের আগৈলঝাড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। প্রত্যক্ষদর্শী ও আহত সূত্রে জানা গেছে, ওই গ্রামের ইউপি সদস্য শিরোমনি বল্লভ ও মনমথ বল্লভ গংয়ের সাথে একই বাড়ির কার্তিক বল্লভ, হরেন বল্লভ গংয়ের দীর্ঘদিন থেকে বিরোধ চলে আসছিল। ওই বিরোধের জের ধরে শনিবার দুপুরে শিরোমনি ও মনমথ বল্লভের নেতৃত্বে কার্তিক ও হরেন বল্লভের ওপর হামলা চালানো হয়। এক পর্যায়ে উভয় গ্রুপের সমর্থকের মধ্যে সংঘর্ষে হরেন বল্লভ, গোপাল বল্লভ, সুমন, অমৃত, প্রশান্ত, বৈকণ্ঠ বল্লভ, মনমথ বল্লভ, গোলাপী রানী বল্লভসহ কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়।

প্রকাশিত : ১৯ এপ্রিল ২০১৫

১৯/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: