কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সিলেটে রক্তদান করে চলমান নৈরাজ্যের প্রতিবাদ

প্রকাশিত : ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট অফিস ॥ রক্তদান করে দেশব্যাপী চলমান নৈরাজ্য ও সহিংসতার প্রতিবাদ জানানো হলো। বৃহস্পতিবার সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নৈরাজ্য ও সহিংসতা বন্ধের দাবিতে প্রতিবাদী রক্তদান কর্মসূচী আয়োজন করে সিলেটের পরিবেশ কর্মীদের সংগঠন ভূমিসন্তান বাংলাদেশ। আয়োজকরা জানান, রাজনীতির নামে বিএনপি ও জামায়াত জোট দেশব্যাপী যে সহিংসতা চালিয়ে আসছে তাতে পুরো দেশের মানুষ আতঙ্কিত। সাধারণ মানুষকে জীবন্ত দগ্ধ করে মারা হচ্ছে, শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যত নিয়েও চলছে ছিনিমিনি খেলা। যোগাযোগ ও যাতায়াত ব্যবস্থা পুরো ভেঙে পড়েছে। সরকারও কার্যকর কোন পদক্ষেপ নিতে ব্যর্থতার পরিচয় দিচ্ছে। এ অবস্থা চলতে থাকলে রক্তের বিনিময়ে পাওয়া স্বপ্নের এই দেশ বসবাসের অযোগ্য হয়ে উঠবে। তারা বলেন, আজ সারা দেশের বিবেকবান মানুষের আহ্বান হচ্ছে এই নাশকতা ও নৈরাজ্য থামানো। আমরাও এর অংশীদার। রক্তপাত বন্ধ করতে তাই আমরা এই রক্তদান কর্মসূচীর আয়োজন করেছি। যে দেশে রক্ত দিয়ে মানুষ মানুষের প্রাণ রক্ষা করে সে দেশে রাজনীতি আর ক্ষমতার লোভে সাধারণ মানুষের এই রক্তপাত মেনে নেয়া যায় না।

শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে বেলা ২টায় আয়োজিত রক্তদান কর্মসূচীতে ২৫ জনেরও বেশি রক্তদাতা রক্তদান করেন। সিলেট মুজিব জাহান রেডক্রিসেন্ট রক্ত কেন্দ্রের সহায়তায় সংগৃহীত এই রক্ত সহিংসতায় আহত ব্যক্তি ছাড়াও মুমূর্ষু রোগীদের প্রদান করা হবে বলে জানান আয়োজকরা।

জীবনযাত্রা স্বাভাবিক হয়ে আসছে

স্টাফ রিপোর্টার নীলফামারী থেকে জানান, বিএনপির নেতৃত্বে লাগাতার অবরোধ ও বিচ্ছিন্ন হরতাল চলছে। কিন্তু এসবে জিম্মিদশা থেকে বেরিয়ে এসেছে উত্তরের রংপুর বিভাগের নীলফামারীসহ আট জেলার জনজীবন। দেয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়ায় সেই দেয়াল ভেঙ্গে এ অঞ্চলের সাধারণ মানুষ এক প্রকার জিম্মিদশা থেকে পথে নেমে পড়েছে। গণপরিবহন থেকে মাল বোঝাই ট্রাক চলছে হরহামেশায়। সব কিছুর উর্ধে রেখে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা ফিরে পেয়েছে সাধারণ মানুষ। রাজধানী ঢাকার সঙ্গে ট্রেন ও দূরপাল্লার যানবাহন এখন স্বাভাবিক নিয়মেই চলাচল করছে। পাশাপাশি প্রচুর প্রাইভেটকার, ভাড়ায় চালিত মাইক্রোবাস ছাড়াও প্রতিজেলার অভ্যন্তরীণ রুটের যাত্রীবাহী বাসও চলাচল করতে দেখা যাচ্ছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার থাকায় বিএনপি- জামায়াত-শিবিরের নাশকতাকারীরা গা-ঢাকা দিয়েছে। বর্তমানে এ অঞ্চলের কোন জেলায় অবরোধ বা হরতালের পক্ষে বিএনপি জামায়াতের কোন পিকেটিং করতে দেখাও যাচ্ছে না।

প্রকাশিত : ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১৩/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: