কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

এ্যাটলেটিকো-বার্সিলোনা সেমিতে ওঠার লড়াই

প্রকাশিত : ২৮ জানুয়ারী ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ সেমিফাইনালের টিকেট পাবে কোন দল? এ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ না বার্সিলোনা। আজ রাতেই ফয়সালা হবে স্প্যানিশ কোপা ডেল’রে ফুটবলের কোয়ার্টার ফাইনালের দ্বিতীয় লেগের ম্যাচের পর। এ্যাটলেটিকোর মাঠ ভিসেন্টে ক্যালডেরনে আকর্ষণীয় ও ধুন্ধুমার লড়াই অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে গত ২১ জানুয়ারি শেষ আটের প্রথম লেগের ম্যাচে বার্সিলোনা জয় পায় ১-০ গোলে। গুরুত্বপূর্ণ গোলটি করেছিলেন দলের প্রাণভোমরা লিওনেল মেসি। এগিয়ে থাকার সুবিধা নিয়েই তাই অতিথি হিসেবে খেলতে গেছে লুইস এনরিকের দল। তবে নিজেদের মাঠে বার্সাকে হারিয়ে সেমির স্বপ্ন বুনছে এ্যাটলেটিকোও। দলটির কোচ ও ফুটবলাররা, মেসি ও নেইমারকে ভয় পাচ্ছেন না বলে জানিয়েছেন।

বর্তমানে বার্সার প্রধান ভরসার নাম মেসি ও নেইমার। সাম্প্রতিক সময়ে এই দুই তারকার জুটি দারুণ জমে উঠেছে। আগের লেগে তো মেসিই গোল করে কাতালানদের উদ্ধার করেন। তবে ফিরতি লেগে এই ভয়ঙ্কর জুটিকে ভয় পাচ্ছে না এ্যাটলেটিকো। দলটির পর্তুগীজ মিডফিল্ডার থিয়াগো মেন্ডেস জানিয়েছেন, বার্সার আর্জেন্টাইন তারকা মেসি আর ব্রাজিলিয়ান তারকা নেইমারকে নিয়ে তারা চিন্তিত নন। তিনি আরও মনে করেন, যদিও এ দুই তারকা বিশ্বসেরা ফুটবলার তারপরও এ্যাটলেটিকো বার্সাকে ছেড়ে কথা বলবে না। স্প্যানিশ লা লিগায় মেসি, নেইমার আর সুয়ারেজের গোলে এ্যাটলেটিকোকে ৩-১ গোলে হারায় বার্সা। এরপর কোপা ডেল’রেতে। অর্থাৎ সর্বশেষ দুই ম্যাচেই এ্যাটলেটিকোকে হারিয়েছে বার্সিলোনা। এ কারণে কিছুটা ফুরফুরে মেজাজেই মাঠে নামছে কাতালানরা। তবে এ্যাটলেটিকোর থিয়াগো আশাবাদী ফিরতি লেগ জিততে। তিনি বলেন, আমরা বার্সার বিরুদ্ধে কোপা ডেল’রের ম্যাচে হারলেও লা লিগায় রায়ো ভালকানোর বিরুদ্ধে দারুণ জয় নিয়ে ঘুরে দাঁড়িয়েছি। বার্সা এ মুহূর্তে তাদের সেরা ছন্দে আছে। কিন্তু সেটি নিয়ে আমরা ভীত নই। পরের লেগের ম্যাচটি হবে ভিন্ন। আমরাও অপেক্ষা করছি কিছু বিশ্বসেরা ফুটবলারদের বিরুদ্ধে খেলার জন্য। বার্সার প্রাণভোমরা মেসি আর নেইমার প্রসঙ্গে পর্তুগালের জার্সি গায়ে ৬২ ম্যাচ খেলা থিয়াগো বলেন, তারা দু’জনই অসাধারণ ফুটবলার। আর এ মুহূর্তে তারা সেরা ফর্মে আছেন। আমরা দলগতভাবে তাদের প্রতিহত করতে চাই। আমরা মেসি আর নেইমারকে ভয় পাচ্ছি না।

অতিথি বার্সাকে হুঙ্কার ছুড়েছেন এ্যাটলেটিকোর আরেক তারকা এ্যান্টোনিও গ্রিজম্যান। ফরাসী এ ফুটবলার আছেণ দরুণ ফর্মে। এ কারণে বার্সাকে হারিয়ে সেমির টিকেট পেতে চান তারা। গ্রিজম্যান বলেন, আগের ম্যাচে আমরা বার্সার ঘরের মাঠে খেলেছি। এবার আমাদের মাঠে মেসিরা আতিথ্য নেবে। তাই বলতে চাই এ ম্যাচে কোনরকম সুযোগ পাবে না বার্সিলোনা।

প্রথম লেগের ম্যাচে ভাগ্যক্রমে জয় পায় বার্সা। ম্যাচ শেষের মাত্র পাঁচ মিনিট আগে দলের হয়ে জয়সূচক একমাত্র গোলটি করেন সাবেক রেকর্ড টানা চারবারের ফিফা সেরা ফুটবলার। অবশ্য হিরো থেকে জিরো হওয়ারও সমূহ সম্ভাবনা ছিল মেসির! কেননা জয়সূচক গোলটি তিনি পান অনেকটা সৌভাগ্যপ্রসূত। ৮৫ মিনিটে পেনাল্টি পায় বার্সা। স্পট কিক নেন মেসি। কিন্তু তার নেয়া শট প্রতিহত করে দেন এ্যাটলেটিকোর গোলরক্ষক ইয়ান ওবলাক। তবে ফিরে আসা বল পেয়ে ফিরতি শটে সেøাভেনিয়ার গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন ব্রাজিল বিশ্বকাপের সেরা ফুটবলার। তাতেই ঘরের মাঠ ন্যুক্যাম্পে স্বস্তির জয় পায় কাতালানরা। আরেকবার সমালোচনা থেকে রেহাই পান মেসিও! প্রথম লেগের ওই জয়ে সেমিফাইনালে খেলার পথে কিছুটা হলেও এগিয়ে আছে বার্সিলোনা। তবে ফিরতি লেগ নিয়ে সতর্ক দলটির কোচ লুইস এনরিকে। তিনি বলেন, নিজেদের মাঠে এ্যাটলেটিকো সবসময়ই সমীহ জাগানিয়া দল। তাদের হাল্কা করে দেখার সুযোগ নেই। আমাদের সতর্ক থেকেই খেলতে হবে। তবে দল জয়ের জন্যই খেলবে।

প্রকাশিত : ২৮ জানুয়ারী ২০১৫

২৮/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: