আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

চাই আনন্দ উজ্জ্বল পরমায়ু

প্রকাশিত : ১৫ জানুয়ারী ২০১৫

দেশবাসীর মৌলিক অধিকার পূরণের লক্ষ্যে আরও একধাপ এগিয়ে গেল বাংলাদেশ। এই অগ্রগতিকে নিরবচ্ছিন্ন রাখার ক্ষেত্রে গৃহীত পদক্ষেপগুলোর যথাযথ বাস্তবায়নটাই হচ্ছে মূল কাজ। কারণ, সিদ্ধান্ত কার্যকর করার ক্ষেত্রে অনেক সময় এমন গড়িমসি করা হয় যে, উদ্যোগ সম্পূর্ণ ভেস্তে যাওয়ার উপক্রম হয়।

অন্ন, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসা মানুষের মৌলিক অধিকার। সেই অধিকার যে মানুষ সব সময় পেয়ে আসছে তা নয়। বাঙালী জাতি তার এই মৌলিক অধিকার তথা স্বাস্থ্যসেবা প্রাপ্তির জন্য বহু যুগ ধরেই আকাক্সিক্ষত। ‘স্বাস্থ্যই সকল সুখের মূল’- এই প্রবচনটি জানার পরও স্বাস্থ্য সুবিধা বঞ্চিত ছিল বহুদিন। চিকিৎসা ব্যবস্থা দেশবাসীর নাগাল থেকে দূরে থাকবে- এটা কারোই কাম্য নয়। আর তা নয় বলেই উপলব্ধি করে আসছে সরকার। তাই ১৬ কোটি মানুষের চিকিৎসাসেবা সহজলভ্য করার জন্য নানা পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে। জনসংখ্যা অনুযায়ী এমনিতেই দেশে চিকিৎসকের সংখ্যা অপ্রতুল। হাসপাতালও হাতেগোনা। চিকিৎসাসেবার মান ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ের হয়ে ওঠেনি সর্বত্র। গ্রামবাংলায় এখনও হাতুড়ে চিকিৎসক, কবিরাজি, ঝাড়ফুঁক, মাদুলি, পানি পড়ার চিকিৎসা চলে। যা একুশ শতকে তথ্যপ্রযুক্তি যুগে বিসদৃশ। মূলত মেডিক্যাল শিক্ষার মানের ওপর নির্ভর করে চিকিৎসা ও চিকিৎসকের সেবাদানের মান। সেবার মানের ঘাটতি রয়েছে বলেই বিত্তবান এমনকি মধ্যবিত্তরা চিকিৎসার জন্য বিদেশ ছুটে যায়।

এসব অব্যবস্থাপনা বন্ধ করার জন্য বিভিন্ন সময় বিভিন্ন রকম প্রচেষ্টা নেয়া হয়েছে কিন্তু পুরোপুরি সমাধান হয়নি। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নতুন ১১টি মেডিক্যাল কলেজের উদ্বোধন করেছেন। দেশের বিভিন্ন স্থানে চালু করা এই মেডিক্যাল কলেজ নিয়ে বর্তমানে সরকারী মেডিক্যাল কলেজের সংখ্যা দাঁড়াল ২৯টি এবং সেনা সদরের অধীনে ৬টি। এছাড়া দেশে আরও ৬৩টি বেসরকারী মেডিক্যাল কলেজ রয়েছে। আরও ৬টি বেসরকারী কলেজ অনুমোদনের অপেক্ষায়। এছাড়া সাতটি বিভাগীয় শহরে সাতটি মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় হবে। ১১টি মেডিক্যাল কলেজ উদ্বোধনকালে প্রধানমন্ত্রী নিজেই বলেছেন, এই মেডিক্যাল কলেজগুলোর মান যেন ঠিক থাকে। রোগী মারা ডাক্তার যেন না হয়। কলেজগুলোতে যথাযথভাবে শিক্ষা কার্যক্রম নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করতে হবে।

চিকিৎসাসেবা মানুষের মৌলিক অধিকার। মানুষ ধুঁকে ধুঁকে মরবে এটা হতে পারে না। ১৬ কোটি জনগণের জন্য ডাক্তারের সংখ্যা ও মান আরও বৃদ্ধি পাবে- দেশবাসীর তা-ই কাম্য।

প্রকাশিত : ১৫ জানুয়ারী ২০১৫

১৫/০১/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: