আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ঢাকা লীগ দিয়েই বিশ্বকাপ ক্রিকেট মিশন শুরু

প্রকাশিত : ৩ ডিসেম্বর ২০১৪

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বছরের শুরু থেকে হেরেই চলেছিল বাংলাদেশ। অবশেষে বছরের শেষটা এমনভাবে নিজেদের করে নিয়েছে যা এখন পর্যন্ত বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে ঘটেনি। টেস্ট ও ওয়ানডেতে টানা ৮ ম্যাচে জয়। জিম্বাবুইয়েকে আবার তিন ম্যাচের টেস্ট ও পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে হোয়াইটওয়াশ করেছে। সেই অর্জনকে আত্মবিশ্বাসে পরিণত করেই এবার সামনে বাংলাদেশ ক্রিকেটারদের বিশ্বকাপ মিশনে নামতে হবে। সেই মিশন শুরু হয়েও যাচ্ছে। ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লীগ খেলা দিয়েই সেই মিশন শুরু হচ্ছে মাশরাফিদের।

জিম্বাবুইয়ে দলের কয়েক ক্রিকেটার যখন মঙ্গলবার রাতেই দেশের উদ্দেশে রওনা হয়েছেন, তখন বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা ছুটিতে যেতে পারছেন না। ঢাকা লীগ যে চলছে। আর সেই লীগে হয়ত আজ থেকেই নেমে যেতে হবে জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের। দেশে না যেয়ে এ লীগে আবার খেলার জন্য ঢাকায় থেকে যাওয়ার কথা রেগিস চাকাবভা (মোহামেডান), হ্যামিল্টন মাসাকাদজা (আবাহনী), এলটন চিগুম্বুরা (প্রাইম দোলেশ্বর), সিকান্দার রাজা (পারটেক্স), ব্রেন্ডন টেইলরদের।

ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির ম্যানেজার সাব্বির রহমান এমনটিই জানিয়েছেন, ‘নাহ কাউকেই ছুটি দেয়া হয়নি। ঢাকা লীগ চলছে। সেই লীগে খেলতে হবে ক্রিকেটারদের।’ তাই যদি হয় তাহলে তো আজ যে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ ও প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাবের মধ্যকার খেলা রয়েছে, সেই খেলাতে দেখা যাবে রূপগঞ্জের ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, রুবেল হোসেন ও প্রাইম ব্যাংকের ক্রিকেটার মাহমুদুল্লাহ রিয়াদদের। তাহলে তো মোহামেডানের যে শেখ জামালের খেলা রয়েছে মোহামেডানের অধিনায়ক মাশরাফিরও খেলার কথা। আর প্রাইম দোলেশ্বরের মুশফিকুর রহীম, মুমিনুল হক নিশ্চয়ই ওল্ড ডিওএইচএসের বিপক্ষে খেলতে নামবেন। তামিম আর মাশরাফির বেলাতে কোন নিশ্চয়তা মিলল না। তবে বাকিরা সিরিজ শেষ হওয়ার একদিন পর আজই ঢাকা লীগ খেলে ফেলতে পারেন।

ঢাকা লীগ শেষ হলে দল বিশ্বকাপের জন্য অনুশীলনে নামবে। কোচ চন্দ্রিকা হাতুরাসিংহে শ্রীলঙ্কায় নিজ দেশে পরিবারের সঙ্গে ছুটি কাটাতে গেছেন। বিশ্বকাপের জন্য জানুয়ারির মাঝামাঝি সময়ে প্রস্তুতি শুরু হবে। তার আগেই কোচ জাতীয় দলের সঙ্গে যুক্ত হবেন।

ঢাকা লীগে ক্রিকেটাররা খুব বেশি খেলবেন না। অনেকেই ফিটনেস সমস্যায় ভুগছেন। একাধারে দেড়মাস ধরে খেলা চলেছে। খেলেই চলেছেন ক্রিকেটাররাও। তাই বিশ্রামও দরকার। কয়েকজন ক্রিকেটারকে বিশ্রামও দেয়া হবে। সব ম্যাচ খেলতে না পারলেও সুপার লীগে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে ঠিকই খেলবেন জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা। যেহেতু বিশ্বকাপের আগে কোন সিরিজ নেই, তাই ঢাকা লীগই প্রস্তুতি নেয়ার আসল জায়গা হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে।

ঢাকা লীগ শেষে ৩০ সদস্যের বিশ্বকাপের প্রাথমিক দল অনুশীলনে নামবে। অনুশীলন চলবে জানুয়ারির শেষ সপ্তাহ পর্যন্ত। মাসের শেষদিকে দল অস্ট্রেলিয়ায় চলে যাবে। সেখানে গিয়ে আইসিসি’র বেঁধে দেয়া প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে। ৯ ফেব্রুয়ারি সিডনিতে পাকিস্তানের বিপক্ষে লড়াই করবে বাংলাদেশ। এরপর ১২ নবেম্বর একই মাঠে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে। এ দুটি প্রস্তুতি ম্যাচের আগে অস্ট্রেলিয়া একাদশ নামে একটি দলের বিপক্ষেও দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। এমনটিই জানিয়েছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। এ জন্যই বাংলাদেশ দল একটু আগেই বিশ্বকাপ খেলার জন্য অস্ট্রেলিয়ায় চলে যাবে। এখানে ঢাকা লীগ দিয়ে বিশ্বকাপ মিশন শুরুর পর কয়েকদিন অনুশীলন করে অস্ট্রেলিয়ায় গিয়ে চারটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। জিম্বাবুইয়েকে টেস্ট, ওয়ানডেতে হোয়াইটওয়াশ করার সুখস্মৃতি সঙ্গে জড়িয়ে নিয়ে পুরোদমে প্রস্তুতি নিয়েই বাংলাদেশ দল বিশ্বকাপে খেলতে নামবে। সেই প্রস্তুতি মিশন শুরু হচ্ছে ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লীগে খেলা দিয়েই।

প্রকাশিত : ৩ ডিসেম্বর ২০১৪

০৩/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: