মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সেই পরাজয় এখনও দুঃস্বপ্ন ॥ মিলস

প্রকাশিত : ৯ ডিসেম্বর ২০১৪

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ মাত্র ১৩ বছর বয়স ছিল তখন। অকল্যান্ডের এডেন পার্কে নিজ দেশ নিউজিল্যান্ডকে ১৯৯২ বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে হারতে দেখেছিলেন কিউই পেসার কাইল মিলস। সেটা তিনি কোনভাবেই ভুলতে পারেননি আজ পর্যন্ত। এখনও মাঝে মাঝে সে পরাজয়ের দুঃখটা দুঃস্বপ্নের মতো তাড়া করে ফেরে তাঁকে। ৩৫ বছর বয়সী মিলস সে সময় স্কুল বালক। দারুণ ফর্মে থাকা নিউজিল্যান্ড শিরোপার জন্য অন্যতম ফেবারিট ছিল। কিন্তু সেমিতে তাঁদের বিদায় করে দিয়ে প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ জয় করেছিল পাকিস্তান। তবে মিলস আশা করেন এবার ১৯৯২ সাল ফিরিয়ে আনতে সক্ষম হবে নিউজিল্যান্ড এবং এবার শিরোপা জিততে সক্ষম হবে।

২৩ বছর পর আবার ঘরের মাঠে বিশ্বকাপ। অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে যৌথভাবে আগামী বিশ্বকাপ আয়োজন করবে নিউজিল্যান্ড। তাই দারুণ সুযোগ শিরোপা জয়ের। স্বাগতিক হিসেবে নিউজিল্যান্ডকে শিরোপা জয়ের ক্ষেত্রে ফেবারিট ভাবা হচ্ছে। সর্বশেষ ১৯৯২ সালে দেশের মাটিতে দারুণ সুযোগটা হাতছাড়া হয়েছিল। শেষ চারে ২৬৩ রানের লক্ষ্যটা ছুঁয়ে ফেলেছিল পাকিস্তান, জিতেছিল ৪ উইকেটে। সেখানেই স্বপ্ন ভঙ্গ হয়েছিল কিউইদের। হৃদয়টা ভেঙ্গে গিয়েছিল স্কুল বালক মিলসেরও। কোনভাবেই ভুলতে পারেন না তিনি সেই স্মৃতিটা। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমি স্কুল থেকে স্টেডিয়ামে এসেছিলাম খেলা দেখার জন্য। অনেক খেলা দেখেছি। আমার মনে হয়েছে নিউজিল্যান্ড সত্যিই দারুণ ভাল খেলছিল সেবার। কিন্তু সেদিনের কথা ভুলতে পারি না যেদিন ইনজামাম-উল-হক একাই এডেন পার্কের চারদিকে বল মেরে রান নিলেন এবং দলকে জিতিয়ে দিলেন। খুবই কষ্টের দিন ছিল সেটা। তবে নিউজিল্যান্ড অবশ্যই সেই আসরে অবিস্মরণীয় কিছু খেলা উপহার দিয়েছিল।’ মাত্র ৩৭ বলে ৬০ রানের একটি বিধ্বংসী ইনিংস খেলে ইনজামাম একাই স্বপ্ন গুঁড়িয়ে দেন কিউইদের। তবে মিলস আশা করেন এবার বিশ্বকাপে ১৯৯২ সালের পুনরাবৃত্তি করতে সক্ষম হবে নিউজিল্যান্ড। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘নিউজিল্যান্ডের মানুষের জন্য এটা খুবই ভাল আনন্দের উপলক্ষ হবে। আমার মনে হয় তাঁদের সমর্থন নিয়ে আমরা ১৯৯২ সালের পুনরাবৃত্তি ঘটাতে সক্ষম হব।’ বর্তমানে মিলস দলের সঙ্গে আরব আমিরাতে অবস্থান করছেন। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ৫ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলছে কিউইরা। তিনি মনে করেন খুবই প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ হবে ওয়ানডে সিরিজও। তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ ও দুই ম্যাচের টি২০ সিরিজ ১-১ সমতায় শেষ হওয়াতেই তিনি এমন মনে করছেন। এ বিষয়ে মিলস বলেন, ‘দুটি সিরিজ দেখে মনে হচ্ছে বেশ ভালভাবেই উভয় দল এ পরিবেশে মানিয়ে উঠেছে।

প্রকাশিত : ৯ ডিসেম্বর ২০১৪

০৯/১২/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: