কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

জেতার আশা করছেন পানিইয়াঙ্গারা

প্রকাশিত : ২৭ অক্টোবর ২০১৪

ক্যারিয়ারসেরা বোলিং, ইনিংসে ৫ উইকেট শিকারকে বোনাস হিসেবে দেখছেন জিম্বাবুইয়ের এ পেসার

মোঃ মামুন রশীদ ॥ স্পোর্টিং উইকেট। তবু ঘরের মাঠে বাংলাদেশী স্পিনাররা কি করতে পারেন সেই অতীত দুঃসহ স্মৃতি আছেই। আবার বাংলাদেশের মাটিতে খেলাÑএ বিষয়গুলো নিয়ে বেশ দুশ্চিন্তায় ছিল সফরকারী জিম্বাবুইয়ে। তারপর আবার স্পিন বিভাগের সবচেয়ে কার্যকর আর নির্ভরযোগ্য ও অভিজ্ঞ ক্রিকেটার প্রসপার উতসেয়া অনুপস্থিত আইসিসির নিষেধাজ্ঞায়। তবে শুরু থেকেই জিম্বাবুইয়ে পক্ষ থেকে দলের পেসারদের নিয়ে আস্থা ও প্রত্যয় মেশানো মন্তব্য শোনা গেছে। জিম্বাবুইয়ের প্রথম ইনিংসে হন্তারকের ভূমিকায় ছিলেন বাংলাদেশী স্পিনাররা, তুলে নিয়েছেন ৯ উইকেট। এর মধ্যে সাকিব আল হাসান একাই দখল করেন ছয়টি। পেসার শাহাদাত হোসেন রাজিব নেন অপর উইকেটটি। কিন্তু বাংলাদেশ ইনিংসে দেখা গেল ভিন্ন চিত্র। এবার বাংলাদেশ ইনিংসের পাঁজর ভেঙ্গে দেয়ার মূল নায়ক হয়ে উঠলেন জিম্বাবুইয়ে পেসার টিনাশে পানিইয়াঙ্গারা। ক্যারিয়ারসেরা বোলিং তো করলেনই পাশাপাশি টেস্ট ক্রিকেটে প্রথমবারের মতো কৃতিত্ব দেখালেন ইনিংসে ৫ উইকেট নেয়ার। তাঁর এমন বিধ্বংসী গতির তোড়েই বাংলাদেশ দল গুটিয়ে গেছে প্রথম ইনিংসে ২৫৪ রানে। মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে চলমান জিম্বাবুইয়ে-বাংলাদেশের প্রথম টেস্টের ঘটনাক্রম এগুলো। এমন পরিবেশে ৫ উইকেট পাওয়াটাকে বোনাস বলে অভিহিত করছেন পানিইয়াঙ্গারা। সেই সঙ্গে তিনি মনে করেন এই টেস্টে উভয় দলেরই সমান সুযোগ আছে জয়ী হওয়ার। কিন্তু দ্বিতীয় ইনিংসে ভাল ব্যাটিংয়ের পর বাংলাদেশকে দ্রুতই অলআউট করে দিতে চান তিনি।

টেস্ট শুরুর আগে জিম্বাবুইয়ে অধিনায়ক ব্রেন্ডন টেইলর, কোচ স্টিফেন ম্যাঙ্গোঙ্গে উভয়েই আস্থা জানিয়েছিলেন দলের পেসারদের ওপর। এমনকি প্রথম দিনেই জিম্বাবুইয়ে মাত্র ২৪০ রানেই গুটিয়ে যাওয়ার পর ওপেনার সিকান্দার রাজা বলেছিলেন, ‘দলে আমাদের কিছু ভাল পেসার আছেন। আমার মনে হয় তাঁরা ভাল করবেন এবং যে রান আমরা করেছি সেটা ছোঁয়ার আগেই বাংলাদেশকে অলআউট করতে চাই।’ তাঁদের আস্থার প্রতিদান দিলেন পানিইয়াঙ্গারা। টেস্ট ক্যারিয়ারে প্রথমবার ৫ উইকেট শিকার করলেন। ২৩ ওভার বোলিং করে ৫৯ রান দিয়ে ৫ উইকেট শিকার। শুধু ২০০৫ সালেই এর আগে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে খেলেছিলেন ৭ টেস্টের ক্যারিয়রে। সেবার ২৮ রানে ৩ উইকেট শিকারই ছিল এতদিন নিজের সেরা বোলিং। সেটাকে ছাড়িয়ে গেলেন এমন উইকেটে যেখানে বাংলাদেশের স্পিনাররাই ডুবিয়েছেন জিম্বাবুইয়েকে। এ বিষয়ে পানিইয়াঙ্গারা বলেন,‘আসলে আমি এত উইকেট পাওয়ার প্রত্যাশা করিনি। তাই এটাকে আমার বোনাস মনে হচ্ছে। কিন্তু এর অনুভূতিটা সবসময়ই ভাল। কিছু কিছু ক্ষেত্রে আমি বলব আমাদের স্পিনাররাও যথেষ্ট ভাল করেছেন। সেটাই আমার ভাল করার জন্য বড় সমর্থন হিসেবে কাজ করেছে।’ তবে দ্বিতীয় দিনের শুরুতে উইকেটে যথেষ্ট গতি পেলেও তেমন সুইং আদায় করতে পারেননি পানিইয়াঙ্গারা। তবে দিন গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে উইকেটের চরিত্র পাল্টে গেছে এবং বোলিংটাও উপভোগ করতে শুরু করেছিলেন তিনি। সে জন্যই তিনি ফিরিয়ে দিয়েছেন দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও শামসুর রহমানের পর অধিনায়ক মুশফিকুর রহীম, তাইজুল ইসলাম ও আলআমিন হোসেনকে। আর এটি তাঁকে দারুণ সন্তুষ্টি দিয়েছে।

চলমান টেস্টসহ এখন পর্যন্ত ক্যারিয়ারে তাঁর শিকার সংখ্যা দাঁড়াল ২২। বাংলাদেশের বিরুদ্ধেই নিজের মাত্র দ্বিতীয় টেস্ট খেলতে নেমে মোট নিয়েছেন ৯টি। ২০০৫ সালের পর আবার একই প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে খেলতে নেমেই ক্যারিয়ারসেরা একটি বোলিং প্রদর্শনী দেখিয়েছেন তিনি। তবু এই টেস্টে উভয় দলেরই সমান সুযোগ দেখছেন জয়ের। তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয় দু’দলেরই ভাল সুযোগ আছে জেতার। তবে আশা করছি আমরাই জিতব। যদিও প্রথম ইনিংসে মাত্র ২৪০ রানে গুটিয়ে যাওয়ার পর জয় পাওয়াটা বেশ কঠিন। কিন্তু আমাদের ভাল বোলিং করতে হবে।’ নিজের দারুণ বোলিংয়ের পেছনে অধিনায়ক ব্রেন্ডন টেইলরের পরামর্শটা কাজে লেগেছে। তাঁকে অস্ট্রেলিয়ার পেসার মিচেল জনসনের মতো করে উদযাপন করতেও দেখা গেছে। তবে সে সবের চেয়ে দল ভাল ফিল্ডিং করেছে, ভাল বোলিং করেছে এগুলোই অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করেছে বলে জানান তিনি। একইভাবে দ্বিতীয় ইনিংসেও বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের আটকানোর চিন্তা ২৯ বছর বয়সী এ পেসারের। তিনি বলেন, ‘টেইলর আমাকে বলছিলেন বাউন্স দিতে। আমি অবশ্য সেটা সব সময় পেয়েছি বিষয়টা এমন নয়। তবে সঠিক জায়গায় বল ফেলার চেষ্টা করেছি। কিন্তু এখন আমরা জানি না ঠিক কত রান করতে পারলে জেতা সম্ভব হবে। সেটা ৩০০ হতে পারে, ৪০০ বা ৫০০ হতে পারে। তবে একটা কথা জানি আমাদের ভাল বোলিং করে যত দ্রুত সম্ভব তাঁদের ১০ উইকেট নিতে হবে এবং তার আগে ভাল ব্যাটিং করে দারুণ একটা সংগ্রহও গড়তে হবে।’

প্রকাশিত : ২৭ অক্টোবর ২০১৪

২৭/১০/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: