কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

ঋণ ও শুল্ক নীতিমালা চায় বারভিডা

প্রকাশিত : ২৬ অক্টোবর ২০১৪

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ গাড়ি আমদানিতে দীর্ঘমেয়াদী নীতিমালা চায় বাংলাদেশ রিকন্ডিশন্ড ভেহিক্যালস ইম্পোর্টার্স এ্যান্ড ডিলার্স এ্যাসোসিয়েশন (বারভিডা)। গাড়ি ব্যবসায় গতি ধরে রাখার জন্য ঋণ ও শুল্ক নীতিমালা থাকা প্রয়োজন উল্লেখ করে এজন্য কমপক্ষে তিন বছরের নীতিমালা করার দাবি জানান প্রতিষ্ঠানটির সভাপতি মোঃ হাবিব উল্লাহ ডন। বারভিডার ২০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে শনিবার রাজধানীর হোটেল লাভিঞ্চিতে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য দেন বারভিডার মহাসচিব মাহবুবুল হক চৌধুরী বাবু। এ সময় সংগঠনের অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে বারভিডার সভাপতি বলেন, দেশে সড়ক দুর্ঘটনা এড়াতে চালকদের প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। বাজারে কেবল গাড়ি বিক্রিতে সীমাবদ্ধ থাকবেন না। দুর্ঘটনা এড়াতে গাড়ি চালকদের প্রশিক্ষণ দিতে ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠায় কাজ করছে বারভিডা। এ ছাড়াও বারভিডা ফাউন্ডেশন করা হবে। তিনি জানান, বারভিডা মধ্যবিত্ত পরিবারের জন্য গাড়ি আমদানি করছে। আমদানি করা গাড়ির ৯৮ শতাংশ জাপানী। এগুলো খুবই মজবুত ও অনায়াসে ২০ বছর চালাতে পারে। তবে দেশে বেসরকারী খাতে ভাল গণপরিবহনের ব্যবস্থা নেই। এজন্য তিনি আগামীতে কমার্শিয়াল গাড়ি আমদানিতে সুযোগ দেয়ার আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, ২০১৩-১৪ অর্থবছরে আমরা রিকন্ডিশন মোটর গাড়ি আমদানি, বিপণন ও সরবরাহের মাধ্যমে সরকারের রাজস্ব খাতে ১ হাজার ৮৮৫ কোটি টাকা দিয়েছি। এক্ষেত্রে মোটর গাড়ি আমদানির পরিমাণ ছিল ১৪ হাজার ৮১৩ ইউনিট। এদিকে ২০০৯-১০ অর্থবছরে গাড়ি আমদানির ক্ষেত্রে রাজস্ব দিয়েছিলাম প্রায় ৩ হাজার ২০০ কোটি টাকা। কিন্তু ২০১১-১২ ও ২০১২-১৩ অর্থবছরে রাজনৈতিক স্থিতিশীল পরিবেশ না থাকায় এবং ব্যাংকের সুদের হার অধিকমাত্রায় চলে যাওয়া ও গাড়ির আমদানি কমে যাওয়ায় রাজস্বের হার অনেকটাই কমে গেছে। এ অবস্থায় বর্তমান অর্থবছরে সরকার রিকন্ডিশন গাড়ি আমদানি ও সাম্প্রতিক কার লোনের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংক ৫০ শতাংশ ও ৫০ শতাংশ হারে লোনের যে সার্কুলার দিয়েছে তাতে ব্যবসায়ীরা যেমন কিছু সুবিধা পেয়েছে, ঠিক তেমনিভাবে কিছুটা হারিয়েছে। হাবিবউল্লাহ ডন বলেন, সাম্প্রতিক রিকন্ডশন গাড়ি ব্যবসার ক্ষেত্রে যেভাবে লোকসানের পাল্লা মাথায় নিয়ে ঘুরে বেড়াতে হয়েছিল তা গত ৪ থেকে ৫ মাসে কিছুটা হলেও কাটিয়ে উঠতে সক্ষম হয়েছি। এ অবস্থায় দেশের অর্থনীতি ও বেকার সমস্যা দূরীকরণের লক্ষ্যে সকল ধরনের ব্যবসায় সরকার ও সংশ্লিষ্টদের সুদের হার সিঙ্গেল ডিজিটে নামিয়ে আনা।

এদিকে সাংবাদিক সম্মেলনে সংগঠনটির মহাসচিব মাহবুবুল হক চৌধুরী বাবর লিখিত বক্তব্যে বলেন, বারভিডা গঠন ২০ বছর পূর্ণ হলেও এ সেক্টরের যাত্রা শুরু হয়েছিল ৩৭ বছর পূর্বে। তবে বর্তমান উন্নয়ন অভিযাত্রায় নিবেদিত রিকন্ডিশন মোটর গাড়ি ক্রমাগতভাবে অগ্রসর বাংলাদেশের সমর্থক হয়ে উঠেছে। নতুন নতুন সড়ক-মহাসড়ক, ফ্লাইওভার নির্মাণের মধ্য দিয়ে অবকাঠামো খাতে নতুন মাত্রা যুক্ত হচ্ছে। এর মধ্যে পদ্মা সেতুর বাস্তবায়ন, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে এক্সপ্রেস ওয়ে নির্মাণের পরিকল্পনা, সারাদেশের মহাসড়কগুলো ৬ ও ৪ লেনে করার প্রক্রিয়া সরকারের সদিচ্ছা সমৃদ্ধ বাংলাদেশ নির্মাণকে অনুপ্রাণিত করবে বলে আমাদের আশা। তিনি বলেন, ৩ হাজার ৫৩৮ কিলোমিটার মহাসড়ক আর ৮ হাজার ২৭৮ কিলোমিটার আঞ্চলিক মহাসড়কে বর্তমানে ২১ লাখ ৫ হাজার ১৪০টি মোটর গাড়ি চলাচল করছে। এতে রিকন্ডিশন মোটর গাড়ির সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ৭২ হাজার।

ঢাকা মহানগরীতে বারভিডার গাড়ি চলছে সাকুল্যে আড়াই লাখ। সেখানে সব শ্রেণীর গাড়ি চলাচল করছে। তিনি আরও বলেন, আগামী ১ নবেম্বর বারভিডার ২০ বছর পূর্তি উৎযাপন করা হবে। ওইদিন সকাল ১০টায় হাতিরঝিলে এ যাবত আমদানি করা বিভিন্ন মডেলের রিকন্ডিশন্ড মোটর গাড়ির র‌্যালি অনুষ্ঠিত হবে। র‌্যালি উদ্বোধন করবেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। এ ছাড়া ওইদিন সন্ধ্যায় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আলোচনা সভা, সঙ্গীতানুষ্ঠান ও নৈশভোজের আয়োজন করা হয়েছে। সভায় প্রধান অতিথি থাকবেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত এবং সঙ্গীতানুষ্ঠানে আসছেন ভারতের খ্যাতনামা শিল্পী মিতালী মুখার্জি।

প্রকাশিত : ২৬ অক্টোবর ২০১৪

২৬/১০/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: