আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

‘ভয়ঙ্কর’ বার্সিলোনাকে নিয়ে সতর্ক এ্যালেগ্রি

প্রকাশিত : ২৫ মে ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বিশ বছর ছুঁতে চললো প্রায়। ১৯৯৬ সালে নিজেদের ইতিহাসে দ্বিতীয় এবং সর্বশেষবারের মতো চ্যাম্পিয়ন্স লীগের শিরোপা জিতেছিল ইতালিয়ান ক্লাব জুভেন্টাস। আরেকবার সুযোগ এসেছে ইউরোপ সেরা হিসেবে শিরোপা জয়ের। যদিও এরপর ১৯৯৭, ১৯৯৮ ও ২০০৩ সালে রানার্সআপ হয়েছিল তারা। কিন্তু এছাড়া বেশিদূর যেতে পারেনি। তবে ২০১৩ সালে শেষ ষোলোতে বার্সিলোনার কাছে হেরে বিদায় নিতে হয়েছিল। বার্লিনে অনুষ্ঠিতব্য ফাইনালের আরও বাকি ১৩ দিন। কিন্তু প্রতিপক্ষ হিসেবে বার্সাকে ‘ভয়াবহ’ বলে অভিহিত করছেন জুভেন্টাস কোচ ম্যাসিমিলিয়ানো এ্যালেগ্রি। বিশেষ করে কাতালানদের বল পাসিং যে কোন প্রতিপক্ষের জন্যই বেশ আতঙ্কের। সে জন্য ওল্ড লেডি শিবিরকে সতর্ক করে দিয়েছেন তিনি। ইতোমধ্যেই চলতি মৌসুমে ঘরের মাঠে শেষ ম্যাচ খেলে ফেলেছে আগেভাগেই সিরি এ শিরোপা নিশ্চিত করা জুভেন্টাস। টানা চারবার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব দেখানো ওল্ড লেডিরা শনিবার ঘরের মাঠে নেপোলির বিরুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছিল। ৩-১ গোলে সফরকারীদের বিধ্বস্ত করেছে জুভরা। চলতি মৌসুমের শেষ ম্যাচে আজ ভেরোনার বিরুদ্ধে মুখোমুখি হবে তারা। কিন্তু সেদিকে খুব বেশি ভ্রুক্ষেপ করার সময় নেই এখন এ্যালেগ্রির সব মনোযোগ ৬ জুন বার্লিনের দিকে। জুভেন্টাসের জন্য সেখানে গত কয়েক বছরে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ অপেক্ষা করছে। স্প্যানিশ জায়ান্ট বার্সিলোনার বিরুদ্ধে লড়তে হবে। কাতালান শিবির নিশ্চিতভাবেই শিরোপা জয়ের অন্যতম ফেবারিট। তবে ৪৮ বছর বয়সী এ্যালেগ্রি কঠিন এ চ্যালেঞ্জের জন্য জুভেন্টান পুরোপুরি প্রস্তুত বলেই দাবি করেছেন। তিনি বলেন, ‘আমরা লীগ জিতেছি এবং কাপ। সুতরাং আমরা চ্যাম্পিয়ন্স লীগ ফাইনালে বেশ উজ্জীবিত মনোভাব নিয়েই অবতীর্ণ হব। যদিও মাঠে নামার আগেই কোনভাবে কোন ম্যাচ জেতা যায় না।’

এ্যালেগ্রি কোচ হিসেবে ইতালিতে টানা সাফল্যের মধ্যেই আছেন। এসি মিলান সর্বশেষবার সিরি এ শিরোপা জিতেছিল ২০১১ সালে। আর সেবার তিনিই ছিলেন মিলানের কোচ। মিলানের দায়িত্ব নিয়েছিলেন সে বছরই। যদিও ২০১৩ সালের শেষ ষোলোয় বার্সিলোনার কাছে মিলান সার্বিকভাবে ৪-২ গোলে হেরে গিয়েছিল। মাত্র দুই সপ্তাহের ব্যবধানে লুইস এনরিকে শিবিরের বিরুদ্ধে ফাইনালে নামাটা খুব একটা সহজ বিষয় নয়। এ বিষয়ে এ্যালেগ্রি বলেন, ‘যখন মেসি বল পায়ে রাখেন তিনি সবসময়ই আনপ্রেডিক্টেবল। বার্সিলোনার বিরুদ্ধে খেলা সবসময়ই কঠিন। আমাদের অবশ্যই অনেক ভাল খেলতে হবে। কারণ তাদের বল পাসিংটা সত্যিই ভয়ঙ্কর। ভয়হীন থেকে আমাদের খেলতে হবে।’ এক সপ্তাহ আগেই জুভেন্টাস লীগ শিরোপা নিশ্চিত করেছে। তাই বেশ ফুরফুরে মেজাজে চাপমুক্ত থেকেই খেলতে পেরেছে চ্যাম্পিয়ন্স লীগে। সে কারণেই দারুণ সাফল্য পেয়েছে এবার। দীর্ঘ ১২ বছর পর উঠে এসেছে ফাইনালে। এ্যালেগ্রি জানিয়েছেন তার খেলোয়াড়দের দুর্দান্ত নৈপুণ্য বার্সিলোনার বিরুদ্ধে সাক্ষাতের জন্য অনেক বড় অনুপ্রেরণা যোগাবে। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘খেলোয়াড়রা বেশ ভাল কন্ডিশনে আছেন এবং ভাল খেলছেন। বিশেষ করে বিরতির পর তারা আরেকটু ভাল অবস্থানে যাবেন।’ আজ ভেরোনার সঙ্গে সিরি এ লীগের শেষ ম্যাচ খেলার পর পুরোপুরি সবাই মনোনিবেশ করতে পারবেন চ্যাম্পিয়ন্স লীগ ফাইনাল নিয়ে। প্রস্তুত হওয়ার জন্য তখনও হাতে থাকবে ১২ দিন।

প্রকাশিত : ২৫ মে ২০১৫

২৫/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: