মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

৮৮ টাকায় প্লট, সন্তান জন্ম দিলে বোনাস!

প্রকাশিত : ১৫ মে ২০১৫, ০৩:৫১ পি. এম.

অনলাইন ডেস্ক॥ ফিনল্যান্ডের বড় শহরগুলোতে বাড়ছে মানুষ। এর বিপরীতে ছোট শহরগুলোতে কমছে জনসংখ্যা। তাই জনসংখ্যা বাড়াতে নানা অভিনব কৌশলের আশ্রয় নিচ্ছে শহরগুলোর প্রসাশন।

ফিনল্যান্ডের জাতীয় বেতার স্টেশনের খবরে বলা হয়, কোনো কোনো শহরে নতুন বাসিন্দাদের জন্য কম দামে বড় প্লট কেনার সুবিধা দিচ্ছে প্রশাসন। বড় প্লটের মালিক হতে নতুন বাসিন্দাদের ব্যয় করতে হচ্ছে মাত্র ১ ইউরো (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৮৮ টাকা)। আবার কোনো কোনো শহরে নতুন সন্তান জন্ম দানের জন্যই বোনাস পাচ্ছেন দম্পতিরা।

সম্প্রতি ফিনল্যান্ডে ছোট শহরের বাসিন্দারা তাদের বাসস্থান পরিবর্তন করে বড় শহরের দিকে ছুটছে। এই প্রবণতা দিন দিন বাড়ছে। বড় শহরগুলোতে জনসংখ্যার ঘনত্ব বাড়লেও খালি হয়ে যাচ্ছে ছোট শহরগুলো। এতে বিভিন্ন শহরের মধ্যে জনসংখ্যার ভারসাম্য নষ্ট হচ্ছে।

এসোসিয়েশন অব ফিনিশ লোকাল অ্যান্ড রিজওনাল অথোরিটিজ জানায়, দুই তৃতীয়াংশের বেশি ছোট পৌর সভা বা শহর নামমাত্র মূল্যে প্লট দিয়ে মানুষকে সেখানে বসবাস করার জন্য আকৃষ্ট করছে।

নতুন মানুষের আগমনকে উৎসাহিত করার পাশাপাশি কোথাও কোথাও সন্তান জন্ম দিয়ে জনসংখ্যা বাড়ানোর জন্যও দম্পতিদের উৎসাহিত করা হচ্ছে। এক্ষেত্রে দম্পতিদের জন্য দেওয়া হচ্ছে বিশেষ বোনাস। তবে সব শহরে একই পরিমাণ বোনাস দেওয়া হচ্ছে না। যেমন: পশ্চিম ফিনল্যান্ডের শহর লেসটিজার্ভিতে ‘বেবি বোনাসের’ পরিমাণ প্রায় ১০ হাজার ইউরো। বড় অংকের বোনাসের ঘোষণার পরও ওই শহরের লোকসংখ্যা মাত্র ৮১৫ জন।

এসোসিয়েশন অব ফিনিশ লোকাল অ্যান্ড রিজওনাল অথোরিটিজ বলছে, জনসংখ্যা বাড়াতে বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করছে শহরগুলো। তবে এসব কৌশলে কোনো ফল হচ্ছে কিনা বলা মুশকিল।

দেশটির শহর উটাজারভি প্রশাসন জানিয়েছে, অনেক চেষ্টার পরও শহরের জনসংখ্যা বাড়ছে না। গত ১০ বছর ধরে তারা ১ ইউরোর বিনিময়ে প্লট অফার করছে। কিন্তু খুব কম মানুষই এই অফার গ্রহণ করছেন। শহরের জনসংখ্যা এখনও ৩ হাজারের কম।

প্রসঙ্গত, ৩ লাখ ৩৮ হাজার ৪২৪ বর্গকিলোমিটার এই দেশে প্রায় ৫৫ লাখ মানুষের বসবাস।

সূত্র: বিবিসি

প্রকাশিত : ১৫ মে ২০১৫, ০৩:৫১ পি. এম.

১৫/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: