আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

কোটি টাকা ছাড়াল

প্রকাশিত : ১৮ মে ২০১৫

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ দেশের পুঁজিবাজারে আবারও স্বস্তি ফিরতে শুরু করেছে। বিনিয়োগকারীদের কিছুটা মুনাফা তোলার প্রবণতার কারণে বেশিরভাগ কোম্পানির দর কমলেও প্রধান বাজার ঢাকা স্টক একচেঞ্জের সার্বিক সূচকটি সামান্য বেড়েছে। তবে চলতি বছরের রেকর্ড লেনদেন হয়েছে। সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রবিবারে ডিএসইর লেনদেন ছাড়িয়েছে ৭শ’ কোটি টাকা।

বাজার পর্র্যালোচানায় দেখা গেছে, বেশিরভাগ কোম্পানির দর কমলেও ডিএসইতে বিনিয়োগকারীদের অংশগ্রহণ বেড়েছে। যার কারণে ডিএসইর সার্বিক লেনদেন ৪১ কোটি ২১ লাখ টাকার বা ৬ দশমিক ১৬ শতাংশ বেড়েছে। আগের কার্যদিবসে বাজারে লেনদেন হয়েছিল ৬৬৯ কোটি ৩৯ লাখ টাকা।

দিনটিতে ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয় ৩০৭টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১০৬টির, কমেছে ১৮৮টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১৩টির শেয়ার দর।

সকালে সূচকের ইতিবাচক প্রবণতা দিয়ে শুরুর পরে ডিএসইএক্স বা প্রধান মূল্য সূচক ১ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়ায় ৪ হাজার ৩১৫ পয়েন্টে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ৪ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে এক হাজার ৫১ পয়েন্টে। ডিএস৩০ সূচক ৬ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে এক হাজার ৬৩০ পয়েন্টে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা গেছে, রবিবারে ডিএসইতে সার্বিক লেনদেন বাড়লেও বেশিরভাগ কোম্পানির দর কমেছে। তবে বড় মূলধনী কিছু কোম্পানির দর বাড়ার কারণে সার্বিক সূচকটি সামান্য বেড়েছে। সামান্য বাড়ার কারণে সার্বিক বাজার মূলধনও কিছুটা বেড়েছে। দিনটিতে ডিএসইতে মোট বাজার মূলধনের পরিমাণ দাঁড়ায় ৩ লাখ ১০ হাজার কোটি টাকা। আগের দিন বা বৃহস্পতিবারে এই টাকার পরিমাণ ছিল ৩ লাখ ৯ হাজার কোটি টাকা।

ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষের কোম্পানিগুলোÑ ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন এ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি, বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবল কোম্পানি, আরএকে সিরামিকস, খুলনা পাওয়ার কোম্পানি, সাইফ পাওয়ারটেক, এসিআই ফরমুলেশনস, মবিল যমুনা বাংলাদেশ,ওয়েস্টার্ন মেরিন শিপইয়ার্ড, বিডি থাই এবং বারাকাত পাওয়ার।

ডিএসইর দরবৃদ্ধির সেরা কোম্পানিগুলো হলোÑ বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবল কোম্পানি লিমিটেড, আরএকে সিরামিক, পাওয়ার গ্রিড, সাইফ পাওয়ার টেক, খান ব্রাদার্স পিপি ওভেন ব্যাগ, খুলনা পাওয়ার কোম্পানি লিমিটেড, সেন্ট্রাল ফার্মা, এমআই সিমেন্ট, ওরিয়ন ইনফিউশন ও রিলায়েন্স ইন্স্যুরেন্স।

দরপতনের সেরা কোম্পানিগুলো হলো : ইনটেক, ওয়াটা কেমিক্যাল, প্রিমিয়ার ব্যাংক, স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্স, এনআইবিএল ১ম মিউচুয়াল ফান্ড, ইন্টারন্যাশনাল লিজিং এ্যান্ড ফাইন্যান্স, গোল্ডেন সন, আর্গন ডেনিমস, অগ্রণী মিউচুয়াল ফান্ড ও বে-লিজিং।

রবিবার ঢাকার বাজারের মতো অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই) সূচকের সঙ্গে লেনদেন বেড়েছে। সেখানেও সার্বিক লেনদেন ১শ’ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। সকালে ইতিবাচক প্রবণতা দিয়ে শুরুর পর দিনশেষে সিএসইর সার্বিক সূচক ১৯ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৩ হাজার ৩৪৯ পয়েন্টে। সিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ২৩১টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৭৭টির, কমেছে ১৪০টি এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১৪টির। দিনটিতে সিএসইতে মোট ১০২ কোটি টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের লেনদেন হয়েছে।

সিএসইর লেনদেনের সেরা কোম্পানিগুলো হলোÑ লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট, বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবল কোম্পানি লিমিটেড, ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন এ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড, বিএসআরএম লিমিটেড, ওয়েস্টার্ন মেরিন শিপইয়ার্ড, আরএকে সিরামিক, মবিল যমুনা বাংলাদেশ, এসিআই ফরমুলেশন, সাইফ পাওয়ার টেক ও বেক্সিমকো।

প্রকাশিত : ১৮ মে ২০১৫

১৮/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: