আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

খুলনায় এসআই ক্লোজ, দুই কনস্টেবল সাসপেন্ড

প্রকাশিত : ৬ নভেম্বর ২০১৪

ছিনতাইয়ের অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার, খুলনা অফিস ॥ খুলনায় কলেজ ছাত্রের টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগে তিন পুলিশের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) কমিশনার। নগরীর গল্লামারী পুলিশ বক্সের ইনচার্জ এস আই হারুন অর রশিদকে ক্লোজ এবং রফিক ও রবিউল নামের দুই কনস্টেবলকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে তাদের বিরুদ্ধে এই শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়।

জানা গেছে, খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার খর্ণিয়া গ্রামের বাসিন্দা কলেজ ছাত্র মুশফিকুর রহমান ও তার বন্ধু অমিত কুমার গত ২৭ অক্টোবর ডুমুরিয়া থেকে খুলনা শহরে আসছিলেন। পথিমধ্যে বিকেল আড়াইটার দিকে গল্লামারী পুলিশ বক্সের কাছে পুলিশের ড্রেস পরা এবং বুকে নাম লেখা ব্যাজ ধারণকৃত কনেস্টবল রফিক ও রবিউল তল্লাশির নাম করে তাদের থামিয়ে দেয়। এর পর তাদের কাছে থাকা ৪৫ হাজার টাকা ও ২টি মোবাইল ফোন সেট কেড়ে নিয়ে বিকেল ৫টা পর্যন্ত পুলিশ বক্সে আটকে রাখে। পরে ছেড়ে দেবার সময় হুমকি দেয়া হয় টাকা রেখে দেয়ার কথা প্রকাশ করলে এমন মামলায় জড়িয়ে দেয়া হবে যাতে সারা জীবন জেলে থাকতে হবে।

মুসফিক জানান, তার স্বপ্ন ছিল বিসিএস পরীক্ষায় অংশ নিয়ে প্রশাসনে চাকরি করবেন। এই কারণে তার দরিদ্র বাবা গরু বিক্রি করে ৪৫ হাজার টাকা দিয়েছিলেন খুলনাতে ভাল কোচিং সেন্টারে ভর্তি হয়ে কোচিং করতে। কিন্তু কনস্টেবল দুই জন তার সেই স্বপ্ন ভেঙ্গে চুরমার করে দিয়েছে। তিনি এ ঘটনার প্রতিকার চেয়ে আইজিপি বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন।

এ ব্যাপারে খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) কমিশনার নিবাস চন্দ্র মাঝি সাংবাদিকদের বলেন, টাকা ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগে কনস্টেবল রফিক ও রবিউলকে সাসপেন্ড এবং পুলিশবক্স ইনচার্জ হারুন অর রশিদকে ক্লোজ করা হয়েছে। ঘটনাটি তদন্তের জন্য ডিসি ডিবি জাহাঙ্গীর হোসেন মোল্লাকে প্রধান করে এক সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

প্রকাশিত : ৬ নভেম্বর ২০১৪

০৬/১১/২০১৪ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: