ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৬ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

মাঘে উষ্ণতার ছোঁয়া

একে রাসেল

প্রকাশিত: ০১:০৭, ২৩ জানুয়ারি ২০২৩

মাঘে উষ্ণতার ছোঁয়া

.

এখন শীতকাল মানেই স্টাইল। বিদেশী ট্রেন্ডের সঙ্গে দেশীয় কাটছাঁট। যেখানে হিমেল হাওয়ায় উষ্ণতা ধরা দেয় আধুনিক স্টাইলে। শীতের পোশাক মানেই জবুথবু নয়, বরং হালকা শীতে স্মার্টলুকের শীত পোশাকই পছন্দের তালিকায় থাকে টিনএজদের। টিনএজ মানেই এ বয়সটায় নিজেকে পরিপাটি করে প্রকাশ করার প্রবণতা বেশ জেঁকে বসে। অনেকের মাঝে বাড়তি নিজস্বতা প্রকাশের জন্যই তাদের মনোজগৎ রং ও স্টাইলিংয়ে বৈচিত্র্য সন্ধানী হয়ে ওঠে। একদিকে ট্রেন্ডের সঙ্গে থাকতে চাওয়া, অন্যদিকে ফ্যাশনে নিজের স্টেটমেন্ট তুলে ধরার চেষ্টা। কেননা, এখনকার সেলফি স্মার্ট টিনএজরা। এক্সপেরিমেন্টাল ফ্যাশনে বড্ড বেশি আগ্রহী। এ সময় নিজেকে রঙিন পোশাকে আরও আকর্ষণীয় করার জন্য উপযুক্ত। এখন শীত পোশাক মানেই যা দেখতেও ভালো লাগবে, পরেও আরাম পাওয়া যাবে।
নগরে শীত জেঁকে বসেছে তাই নড়েচড়ে বসেছে ১৭-২৫ বছর বয়সী টিনএজরা। সমকালীন পাশ্চাত্য ট্রেন্ড অনুসরণ করেই ইতিবাচকভাবে শীত পোশাকে আসছে নানা পরিবর্তন। কাটছাঁট এবং প্রিন্টেই থাকছে নিরীক্ষাধর্মী বৈচিত্র্য। তবে ফ্যাশন বিশেষজ্ঞদের ভাষায়, আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে পোশাকগুলো ব্যবহারে শীত ও ফ্যাশন দুটোই হবে আরও রঙিন। এ সময় নানাভাবে নিজেকে রঙিন করা যায়। তবে নিজেকে আকর্ষণীয় করে মেলে ধরতে নানান রঙের প্রিন্টের শর্ট ব্লেজার এখন জনপ্রিয়তায় এগিয়ে। ছেলেদের কোট, ফুলহাতা টি-শার্ট,  জ্যাকেট, ব্লেজার, সোয়েটার, কটি ইত্যাদি বাজারে আসা শুরু হয়েছে এর মধ্যেই। পশ্চিমা ট্রেন্ড অনুযায়ী নকশা করা হচ্ছে এসবের, তবে কাপড়টা এ দেশের আবহাওয়া উপযোগী।
ফুল হাতা টি-শার্ট : শীতের কথা ভেবেই নতুন মাত্রা নিয়ে বাজারে এসেছে ফুল হাতা টি-শার্ট,  ফরমাল ও ক্যাজুয়াল উভয় ধরনের ডিজাইনে তৈরি টি-শার্টে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে আরামদায়ক কটন কাপড়ের। তাছাড়া রং ও ডিজাইনে রয়েছে দারুণ সব ভিন্ন মাত্রা ও লুক।
হুডি : শীতের স্মার্ট পোশাক হিসেবে হুডি টি-শার্টকেই বেশি পছন্দ করছেন তরুণ-তরুণীরা। কেননা শীত নিবারণের পাশাপাশি নিজেকে আরেকটু স্মার্ট করতেই হুডি টি-শার্ট পরছেন অনেকেই। ছেলেদের পাশাপাশি মেয়েরাও সমানতালে পরছেন হুডি। বাড়তি কানটুপি সঙ্গে নিয়ে ঘুরে বেড়ানোর ঝামেলা নেই আবার দেখতেও সুন্দর এবং স্টাইলিশ। এসব কারণেই হুডির প্রতি তরুণ-তরুণীদের আগ্রহটা একটু বেশিই। যদিও সব বয়সের মানুষই এখন হুডি পরছেন। তবে এগিয়ে রয়েছেন তরুণ-তরুণীরাই।
জ্যাকেট : ডেনিম, ফ্লানেল, কর্ড, উল, মোটা ক্যানভাসের কাপড়, প্যারাসুটের কাপড় এবং চামড়ার তৈরি জ্যাকেট পাওয়া যাচ্ছে বাজারে। এর মধ্যে এখন জনপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছে ডেনিম ও চামড়ার জ্যাকেট। চামড়ার স্থায়িত্ব, আরাম, রং ও টেক্সচারের জন্য গ্রহণযোগ্যতাও বেশি। চামড়ার জ্যাকেটের জনপ্রিয় কিছু স্টাইল হচ্ছে বেসিক ওয়েস্টলেস জিপ ফ্রন্ট জ্যাকেট, ক্লাসিক লেন্থ জিপ ফ্রন্ট কিংবা টু বাটন, ফোর বাটন জ্যাকেট, ভেলেন্ট লেদার রাইডিং জ্যাকেট, ইলাস্টিকসহ বোম্বার স্টাইল জ্যাকেট, মোটরবাইক, মিলিটারি, এভিয়েটর, রকস্টার, পাঙ্ক, পুলিশ জ্যাকেট ইত্যাদি।
পুরোদস্তুর আনুষ্ঠানিক ব্লেজার নয়, ক্যাজুয়াল ব্লেজারই বেশি চলছে বাজারে। চামড়ার জ্যাকেটে আছে নানা রঙের খেলা। ইস্পাতের বোতামের ব্যবহার জ্যাকেটগুলোকে আরও আকর্ষণীয় করে তুলেছে। চামড়ার এক রঙের জ্যাকেট ছাড়াও আছে চেকের নকশার জ্যাকেট। কোনোটিতে আবার কাপড়ের সঙ্গে চামড়ার ব্যবহার করা হয়েছে। এছাড়া ডেনিম কাপড়ের তৈরি নানা ধরনের ব্লেজার চলছে এবারও। নতুন ট্রেন্ড হিসেবে মখমলের নকশা করা ব্লেজার এসেছে এবার। জ্যাকেট ও সেমি-স্যুট ধাঁচের এসব মখমলের পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে পড়তে পারেন উজ্জ্বল রঙের প্যান্ট।
ফরমাল থেকে ক্যাজুয়াল সব জায়গায় সহজে মানিয়ে যায় এই ব্লেজার। বডি শেপ এবং ফিটিংস প্রাধান্য দিয়ে একে তুলে ধরেছেন ফ্যাশন ডিজাইনাররা। এ বয়সে যেহেতু শারীরিক সৌন্দর্য টিনএজদের কাছে প্রাধান্য পায় তাই ব্লেজারের রং ও নকশার সঙ্গে ফিটিং ঠিকঠাক থাকাটাও জরুরি। কাঁধের কাছে ঝুলে থাকলে এবং মাপে বেশি ঢিলেঢালা হলে চলবে না।
কালো, খাকি, ধূসর রং তো আছেই, পাশাপাশি উজ্জ্বল রঙের ব্যবহারও বেশ। এছাড়াও লাল, মেরুন, গোলাপি, টিয়া, নেভি ব্লু ইত্যাদি রঙে। এক বোতাম, দুই বোতাম ও তিন বোতাম, সব ধরনের ব্লেজারই মিলবে ব্র্যান্ড শপগুলোতে। তবে ক্রেতাদের কাছে এক বোতাম এবং বোতাম ছাড়া ব্লেজারের চাহিদাই এবার বেশি থাকবে। শীত যেহেতু এখনো জেঁকে বসেনি তাই উল, ডেনিম ও চামড়ার তুলনায় গ্যাবার্ডিন, কর্ড এবং সুতির কাপড়ের প্রিন্টেড ব্লেজারের চাহিদা থাকবে বেশি। এখনকার ব্লেজার বা কোটগুলোর বৈশিষ্ট্য হলো এর কাট, বড় কলার আর বোতামের ফ্যাশন। কোনো কোনো ব্লেজার ও কোট কলার ধাঁচের। এর সঙ্গে ভি ও গোল আকৃতি এবং বন্ধ গলা তো রয়েছেই। জ্যাকেট আর ব্লেজারের সংমিশ্রণে তৈরি নতুন ধরনের ব্লেজার জ্যাকেট এবার কমবয়সী তরুণদের কাছে বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছে। এ ধরনের ব্লেজার জ্যাকেট বন্ধুদের আড্ডা, স্ট্রিট ফ্যাশন থেকে শুরু করে সান্ধ্য পার্টিতেও পরা যাবে অনায়াসে। ক্যাজুয়াল ব্লেজার কয়েক বছর ধরে তরুণ-তরুণীদের বেশ পছন্দের। এছাড়া টিনএজারদের ব্লেজার বা জ্যাকেটে পাইপিং প্যাঁচওয়ার্ক, অ্যাম্ব্রয়ডারি, অ্যাপ্লিক, মেটাল, ফ্লোরাল নকশা, কাটওয়ার্ক, বাকলসহ নানা কিছু ব্যবহারে হচ্ছে আরও বৈচিত্র্যময়। তাই ব্লেজার কোটের বর্ণিলতা টিনএজ এর কাছে জনপ্রিয়।
বিশেষ করে কিশোর-কিশোরীরা অন্যসবার মতো নয়, তাই শীতে তাদের ফ্যাশনের কোনো কমতি নেই। কারণ ফ্যাশন হাউসগুলোও আজকাল কিশোরদের কথা চিন্তা করেই তৈরি করছে নানা রকম ফ্যাশনেবল শীতের পোশাক।

 

 

monarchmart
monarchmart