কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

গোখরা ধরে প্রতিশোধ!

প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ আদরের মেয়েকে কেটেছে বিষাক্ত গোখরা। তাই সেই গোখরাকে ধরে অভিনব শাস্তি দিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছেন রাজশাহীর গোদাগাড়ীর তেরোপাড়া গ্রামের কৃষক সিরাজুল ইসলাম। মেয়েকে দংশনের পর চিকিৎসা শেষেই ঘরের কোণ থেকে গোখরাকে ধরে কলসে পুরেছেন তিনি। শনিবার এ খবর ছড়িয়ে পড়লে গ্রামবাসী ভিড় জমাচ্ছেন কৃষক সিরাজুল ইসলামের বাড়িতে।

সিরাজুলের বাড়িতে গিয়ে দেখা যায়, বাড়ির সামনে একটি খড়ের পালা, সেই পালার ওপরেই কলসবন্দী করে রাখা হয়েছে গোখরা সাপকে। কেউ দেখতে চাইলে কৃষক সিরাজুল কলস নামাচ্ছেন আর দেখাচ্ছেন। দেখে মনে হবে সাপের সঙ্গে তার বহুদিনের সম্পর্ক! অথচ নিতান্তই এই কৃষক এর আগে এমন কাজ করেননি কখনোই।

সিরাজুল ইসলাম বলেন, শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ঘরের ভেতর মেয়ে সালমা খাতুনের (১৩) ডান হাতের আঙ্গুলে ছোবল দেয় এই গোখরা। মেয়ের যন্ত্রণায় তিনি অস্থির হয়ে উঠেন। হাসপাতালে নিয়ে বহুকষ্টে মেয়ের প্রাণ রক্ষা করেন তিনি। এই মেয়ে তার কাছে অনেক আদরের। তাই নিজের রাগ সামলে নিতে পারেননি তিনি। হাসপাতাল থেকে বিকেলে বাড়ি ফিরেই ঘরের ভেতর খুঁজতে থাকেন গোখরাটিকে। পেয়েও যান কিছুক্ষণের মধ্যে। তখন সবাই গোখরাটাকে মেরে ফেলার জন্য বলেন। কিন্তু সিরাজুল ভাবলেন, সাপটাকে তিনি ‘উপযুক্ত শিক্ষা’ দিয়েই মারবেন।

আর তাই কৌশলে তাকে নিজ হাতে ধরে মাটির কলসে বন্দী করেছেন। সিরাজুল জানান, সাপ ধরার জন্য মন্ত্রের প্রয়োজন নাকি সাহসের, এসব তিনি জানেন না। তবে রাগেরবশেই তিনি সাপ ধরেছেন। ওই সময় সীমাহীন রাগ তাকে এনে দিয়েছিল সাপ ধরার সাহস। সাপটিকে এভাবে বন্দী অবস্থায় কয়েকদিন রাখার পর সেটি মেরে ফেলবেন অথবা সাপুড়েকে দিয়ে দেবেন বলে জানিয়েছেন কৃষক সিরাজুল ইসলাম।

প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৫

১৭/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

শেষের পাতা



ব্রেকিং নিউজ: