কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

গ্যাটলিনে ভীত নয় বোল্ট

প্রকাশিত : ৮ এপ্রিল ২০১৫
গ্যাটলিনে ভীত নয় বোল্ট

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আগামী আগস্টেই বসবে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের পঞ্চদশ আসর। তার আগে সেরাটা উপহার দেয়ার জন্য নিজেকে দারুণভাবে প্রস্তুত করছেন জ্যামাইকান স্প্রিন্টার উসাইন বোল্ট। ২০১৩ সালে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের আসর বসেছিল রাশিয়ার মস্কোতে। সেবার ১০০ এবং ২০০ মিটারে স্বর্ণ পদক জিতেছিলেন বোল্ট। তাই এবারও ফেবারিট হিসেবে ট্র্যাকে নামবেন ২৮ বছর বয়সী এই গতিরমানব। কিন্তু গত বছর উসাইন বোল্টের অনুপস্থিতে ট্র্যাক মাতান আমেরিকান স্প্রিন্টার জাস্টিন গ্যাটলিন। ডায়মন্ড লীগে এককভাবেই দাপট দেখান তিনি। ১০০ এবং ২০০ মিটারে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ সেরা টাইমিং উপহার দিয়ে সেরা এ্যাথলেট হিসেবেই মৌসুম শেষ করেন গ্যাটলিন। তাই অনেকেরই ধারণা উসাইন বোল্টকে রুখতে পারে কেবল এই গ্যাটলিনই। কিন্তু ৩৩ বছর বয়সী এই আমেরিকান স্প্রিন্টারকে নিয়ে মোটেও ভীত নয় উসাইন বোল্টের কোচ গ্লেন মিলস।

এ বিষয়ে জ্যামাইকান কিংবদন্তির অভিজ্ঞ কোচ মিলস বলেন, ‘প্রকৃতপক্ষে আমরা সব প্রতিপক্ষকেই গুরুত্বসহকারে মূল্যায়ন করি। সেক্ষেত্রে গ্যাটলিনকে নিয়েও রসিকতা করার কিছু নেই। তবে এটা সত্য যে এই মুহূর্তে বোল্ট তার সেরা সময়ে আছে। যে কারণে প্রতিপক্ষকে নিয়ে অতিরিক্ত চিন্তার কোন কারণ নেই।’ তবে গ্যাটলিনের ফর্মে ফেরাটাকে সুদৃষ্টিতেই দেখছেন গ্লেন মিলস। এ বিষয়ে তার অভিমত হলো, ‘খেলাধুলার জন্য এটা ভাল দিক। এর ফলে ক্রীড়ামোদিদের আকর্ষণটাও বাড়বে। কিন্তু এ রকম কোন প্রভাব আমাদের ক্ষেত্রে কাটে না। তাছাড়া আমার সম্পর্কে বোল্টের ধারণা খুবই সুস্পষ্ট যে ফিট থাকলে তাকে কোথায় নিয়ে যেতে পারি এবং সেটা করার জন্যই এই মুহূর্তে কাজ করছি আমরা।’

২০০৫ সাল থেকে উসাইন বোল্টের কোচ গ্লেন মিলস। মাঝের এক দশকে অসাধারণ পারফর্মেন্স উপহার দিয়েছেন জ্যামাইকান তারকা। সেইসঙ্গে নিজেকে নিয়ে গেছেন অনন্য উচ্চতায়। ১০০ এবং ২০০ মিটারে বিশ্ব রেকর্ডের মালিক বোল্ট। ২০০৮ সালে বেজিং অলিম্পিকের পর ২০১২ সালে লন্ডন অলিম্পিকেও পদক নিজের করে রাখেন তিনি। যা বিশ্ব ইতিহাসের একমাত্র এ্যাথলেট হিসেবে টানা দুই অলিম্পিকে স্বর্ণপদক নিজের করে রাখার অবিস্মরণীয় কীর্তি গড়েন তিনি। বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ১০০ মিটারে দুটি এবং ২০০ মিটারে তিন স্বর্ণপদক জিতেছেন তিনি। এবারও যে শিরোপা নিজের করে রাখার লক্ষ্য নিয়েই প্রতিযোগিতায় নামবেন বোল্ট। তা আগেই ঘোষণা করেছিলেন। এ বিষয়ে এক সাক্ষাতকারে উসাইন বোল্ট জানান, ‘যতক্ষণ পর্যন্ত না আমার সেরা দৌড়টা দৌড়াতে পারি ততক্ষণ পর্যন্তই আমি অপেক্ষা করি। মূলত আমার লক্ষ্যই থাকে চ্যাম্পিয়ন হওয়া আর শিরোপা নিজের দখলে রাখা। তাছাড়া এই মৌসুমে আসলেই আমি দ্রুত দৌড়াতে চাই। কারণ এ নিয়ে অনেক কাজ করেছি আমি।’ বেজিং অলিম্পিকে শুরু। লন্ডন অলিম্পিকেও দাপট দেখান তিনি। দুই অলিম্পিকে ৬ স্বর্ণ জিতেন তিনি। ২০১৬ সালে রিও ডি জেনিরো অলিম্পিকেও দৌড়াবেন তিনি। সেখানেও শ্রেষ্ঠত্ব ধরে রাখতে মরিয়া এই জ্যামাইকান। এর আগে জানিয়েছিলেন ব্রাজিল অলিম্পিকের পরই অবসর নেবেন তিনি। কিন্তু এরপর ২০১৭ সালের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপেও খেলার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন গতির দানব বোল্ট। তবে বিশ্ব এ্যাথলেটের জীবন্ত কিংবদন্তি বোল্ট মানেই অতিরিক্ত বিনোদন। দানবীয় এই তারকার দৌড় দেখতে গোটা বিশ্বের ভক্ত-অনুরাগীরাই উন্মুখ হয়ে থাকেন। ২২-৩০ আগস্ট শুরু বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপেও তার চমক দেখার অপেক্ষায় এখন বিশ্ব।

প্রকাশিত : ৮ এপ্রিল ২০১৫

০৮/০৪/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: