কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

অস্ট্রেলিয়াকে হারানো সম্ভব ॥ মুশফিক

প্রকাশিত : ২০ ফেব্রুয়ারী ২০১৫
অস্ট্রেলিয়াকে হারানো সম্ভব ॥ মুশফিক
  • বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ শনিবার মাশরাফিদের প্রেরণা যোগাচ্ছে আইরিশরা

মিথুন আশরাফ ॥ দশ বছর আগে কার্ডিফে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়েছিল বাংলাদেশ। সেই ম্যাচের সুখস্মৃতি যতটানা বাংলাদেশ দলকে প্রেরণা দিচ্ছে, আয়ারল্যান্ড যেন তারচেয়েও অনেক বেশি বাংলাদেশ ক্রিকেটারদের অস্ট্রেলিয়াকে হারানোর জন্য অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছে। এবার বিশ্বকাপে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হারিয়ে প্রথম অঘটনটি যে আইরিশরাই ঘটিয়েছে। শনিবার ব্রিসবেনের গাব্বায় বিশ্বকাপের সবচেয়ে কঠিন অস্ট্রেলিয়া প্রতিপক্ষ বাংলাদেশের। এ ম্যাচটিতে আইরিশদের মতোই কিছু করে দেখাতে চায় বাংলাদেশও।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে ১০৫ রানে বড় ব্যবধানে জিতে এখন অনেক আত্মবিশ্বাসী হয়ে উঠেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। দলের ক্রিকেটাররা প্রস্তুত যে কোন দলের বিপক্ষে জিততে। মনোবল এতটাই চাঙ্গা হয়ে গেছে, এবার বিশ্বকাপে যে দলকে ধরা হচ্ছে শিরোপা জিতবে, সেই স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়াকেও হারানোর সুরই ক্রিকেটারদের কণ্ঠে! অবশ্য এর জন্য ম্যাচটিতো হতে হবে। ব্রিসবেনে সাইক্লোন সব ল-ভ- করে দিচ্ছে। অনবরত বৃষ্টির হানা চলছেই। গতির ঝড় ওঠে যে উইকেটে সেই উইকেট থেকে কাভারই ওঠানো যাচ্ছে না। শনিবার বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ হবে, সেই সম্ভাবনাও শঙ্কায় পরিণত হচ্ছে। শেষপর্যন্ত যদি হয়ই খেলা, তাহলে বাংলাদেশ আপসেট ঘটানোর ভাবনাই করছে।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে ৭১ রান করে দলকে বড় পুঁজি এনে দিয়ে ম্যাচ জেতার পর ম্যাচসেরা হওয়া মুশফিকুর রহীমই যেমন বলেছেন, ‘অস্ট্রেলিয়া এ মুহূর্তে যেভাবে খেলছে, নিঃসন্দেহে নাম্বার ওয়ান দল। তাদের বিপক্ষে খেলা সহজ হবে না। তবে জয় তুলে নেয়া অসম্ভব কিছু নয়।’

মুশফিক এমনটি বলার পেছনে প্রেরণা হিসেবে আয়ারল্যান্ডকেই খুঁজে পেয়েছেন। আয়ারল্যান্ড যদি ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হারাতে পারে, তাহলে বাংলাদেশ কেন অস্ট্রেলিয়াকে পারবে না। ওয়েস্ট ইন্ডিজ আবার ৩০৪ রান করেও জিততে পারেনি। ২৫ বল বাকি থাকতেই আয়ারল্যান্ড জিতে যায়। দিনটি যদি বাংলাদেশের হয়, শনিবারই অস্ট্রেলিয়া অঘটনের শিকারও হয়ে যেতে পারে। মুশফিক যেন তাই বোঝাতে চাইলেন, ‘এটা ওয়ানডে ম্যাচ। যে কোন দল জিততে পারে। দিনটিতে যে দল ভাল করবে, জিতবে তারাই। ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হারিয়েছে আয়ারল্যান্ড। তাও আবার বড় টার্গেট অতিক্রম করেই। তাই যে কোন দলই জিততে পারে।’ সবাই যে বাংলাদেশের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ার ম্যাচে স্বাগতিকদের জয়ের ভাবনাই করছে, তাও জানেন মুশফিক। তবে কোন ছাড় নয়, এমন মনোবলই এখন তৈরি বাংলাদেশ ক্রিকেটারদের মনে। মুশফিক বলেছেন, ‘সবারই ভাবনা ম্যাচটিতে (বাংলাদেশের বিপক্ষে) জিতবে অস্ট্রেলিয়াই। সহজেই জিতবে। আশা করছি ম্যাচটিতে আমরাও কিছু বলার মতো করব। ছেলেরা ম্যাচটির জন্য প্রস্তুতও। যদি সঠিকভাবে সব করতে পারি, সামর্থ্য অনুযায়ী খেলতে পারি; বড় কিছুই ঘটাতে পারব।’

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে চ্যালেঞ্জ নিতে যে প্রস্তুত বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা, তাও দৃঢ় কণ্ঠে বলে দিলেন মুশফিক, ‘আমরা অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে চ্যালেঞ্জ নিতে মুখিয়ে আছি। শুধু অস্ট্রেলিয়াই নয়, শ্রীলঙ্কা, ইংল্যান্ড ও গ্রুপের অন্য দলগুলোর বিপক্ষেও চ্যালেঞ্জে নামতে প্রস্তুত।’

আফগানিস্তানকে হারানোর পরই ক্রিকেটাররা অনেক বেশি আত্মবিশ্বাসী হয়ে উঠেছে। প্রথম ম্যাচটি জেতা অনেক দরকার ছিল। তাও আবার আফগানদের বিপক্ষে এসেছে জয়টি। যে আফগানরা ম্যাচের আগে এশিয়া কাপে বাংলাদেশের হারের দুঃখস্মৃতি সামনে তুলে ধরে বার বার হারানোর হুমকি দিচ্ছিলেন, তারাই আসল জায়গায় এসে নেতিয়ে গেছেন। বাংলাদেশও এমন জয় পেয়ে চাঙ্গা হয়ে উঠেছে। যে চাঙ্গা ভাব সামনের ম্যাচগুলোতে দলকে বড় কিছু এনে দিতেও সহায়তা করবে বলেই মুশফিকের বিশ্বাস, ‘প্রথম ম্যাচে জয় পাওয়াতেই আত্মবিশ্বাস বেড়েছে। আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয়টিই আত্মবিশ্বাসী করে তুলতে সহায়তা করেছে। তবে কিছু জায়গাতে কাজ করার দরকার আছে এখনও।’

মুশফিক হোক কিংবা মাশরাফি, দলের কেউই এখন আর কার্ডিফে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে জয়টি নিয়ে ভাবেন না। তা থেকে প্রেরণাও খুঁজে পান না। সেই ২০০৫ সালে ঘটেছে ঘটনা। তা নিয়ে এখন আর বসে থাকলে চলবে। তাইত ৪ বল বাকি থাকতে ৫ উইকেটের সে জয় এখন অতীত হয়ে গেছে। বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজাই যেমন বলেছেন, ‘সেই স্মৃতি এখন অতীত। তা নিয়ে বসে থাকলে চলবে না। আমরা ম্যাচ বাই ম্যাচ নিয়ে ভাবছি। পেছনের কিছু নিয়েই ভাবছি না।’ তবে সোমবার ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আয়ারল্যান্ডের ম্যাচের স্মৃতি বাংলাদেশকে ভাবতে যেন বাধ্য করছে। প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া। দলটির বিপক্ষে এখন পর্যন্ত ১৯ ম্যাচ খেলে জয় সেই একটিই। সেই কার্ডিফে জয়ের স্মৃতি কী প্রেরণা যোগাবে, তা না; উল্টো বাংলাদেশের সামনে প্রেরণা হয়ে ধরা দিচ্ছে আইরিশরাই। অঘটন যে শনিবার বাংলাদেশও ঘটিয়ে দিতে পারে।

প্রকাশিত : ২০ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

২০/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: