আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

প্রযুক্তির ছোঁয়ায় সহজ জীবন

প্রকাশিত : ৮ জুন ২০১৫

নাগরিক জীবনকে সহজ করতে প্রতিনিয়ত আসছে নতুন প্রযুক্তি, নতুন কৌশল। আর এতে পরিবর্তন আসছে মানুষের চলাফেরা, কেনাকাটায়ও। কিছুদিন আগেও যা ভাবনায় আসেনি, তা এখন ঘটছে আমাদের বাস্তব জীবনে।

যানজট আর কোলাহল নগর জীবনকে যেন আরও বেশি বিষাদ করে তুলেছে। অন্যদিকে যোগ হয়েছে রোদ আর হঠাৎ ঝড়-বৃষ্টি। তবে বর্তমান সময়ে এ সমস্যাগুালোকে তুড়ি মেরে উড়িয়ে দিয়ে জনপ্রিয়তা অর্জন করছে অনলাইনে কেনাকাটার কয়েকটি মাধ্যম। ডিজাটাল এ যুগে কষ্ট কমিয়ে দিচ্ছে অনলাইন শপিং সাইটগুলো। পিছিয়ে নেই সোস্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট ফেসবুকও। কম্পিউটারে ব্রাউজ করলেই ঘরে বসে পাওয়া যাচ্ছে নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী। বেশিরভাগ অনলাইন শপই ‘ক্যাশ অন ডেলিভারি’ সার্ভিস দিয়ে থাকে। তাই মূল্য পরিশোধ নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়তে হয় না ক্রেতাদের। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, অনলাইনে কেনাকাটা জীবনযাত্রাকে যেমন সহজ করেছে, তেমনি তরুণ উদ্যোক্তা শ্রেণীও গড়ে উঠছে এর মাধ্যমে। ওয়েবসাইট কিংবা ফেসবুক ফ্যানপেজে পছন্দ করে ওর্ডার দিলেই হলো। বাড়িতে পণ্য পৌঁছে দিতে কাজ করছে উদ্যোক্তারা। অনলাইনের মাধ্যমে ইলেক্ট্রনিক, যানবাহন, ব্যক্তিগত ব্যবহারের জিনিসপত্র, ঘরের জিনিসপত্র, পোষা প্রাণী, শিক্ষা সামগ্রী, খেলাধুলার উপকরণ, পোশাক, শাকসবজি, মাছ, মাংস, মসলাসহ বিভিন্ন জিনিসপত্র কেনা বেচা হচ্ছে। বিক্রি হচ্ছে বইও।

পিবাজার ডট কম বর্তমান সময়ে সম্পূর্ণ প্রপার্টি বিষয়ক ওয়েবসাইট এটাই। এটা একটি ভিন্ন ধরনের সাইড, কারণ বর্তমান সময়ে বছরের শুরুতেই একটি বাড়তি ঝামেলা এসে যোগ হয়, তা হলো বাড়ি ভাড়া। অজুহাত হিসেবে রয়েছে গ্যাস-বিদ্যুত-পানিসহ নানান জিনিসের দাম বৃদ্ধি। এ ছাড়াও থাকে নানা কারণ। তাই শত কষ্টের মাঝেও খুঁজতে বের হন, শান্তির নিবাস খুঁজতে। পছন্দ মতো বাসা খুুঁজতেও আপনাকে বেশ কাঠ-খড় পোড়াতে হবে। যেখানে নিজের জন্য একটু সময় বের করাই হয়ে পড়ে বেশ কষ্টসাধ্য ব্যাপার। তার উপরে আবার ভাল বাসার খোঁজ। কোন উপায় না পেয়ে অনেকে ছুটির দিনগুলো কাজে লাগিয়ে থাকেন। তবুও যদি ভাল বাসা খুঁজে পাওয়া যেত তাহলেও যেন কাজে লাগত। এক এলাকাতে আপনি হয়ত অনেক টু-লেট লেখা বাসা পেয়েছেন। হতে পারে কোনটিই আপনার মনমতো হচ্ছে না। যেমন, হয়তবা আপনার চাহিদা ২ রুমের বাসা, কিন্তু গিয়ে দেখলেন তিন বেড রুম। আবার যেটি ২ রুমের বাসা, তার ভাড়া আপনার বাজেটের প্রায় দ্বিগুণ। এ ধরনের সমস্যায় অনেকেই পড়েন। কারণ টু-লেট লেখা বোর্ডটিতে বিস্তারিত তথ্য থাকে না। যেমন, বাসার সাইজ, কয়টি রুম বা ভাড়াই বা কত হবে। শহরের সকল এলাকার বাড়ি/অফিস ভাড়ার সব খোঁজ-খবর বিস্তারিত যদি ছবিসহ এক জায়গায় পাওয়া গেলে কেমন হতো! ঠিক এই কাজটিই করছে প্রপার্টি বাজার লিমিটেড [িি.িঢ়নধুধধৎ.পড়স]। প্রপাটি বাজার কঠিন এবং সময় সাপেক্ষ কাজটিকে আপনার জন্য অনেক সহজ করে দিয়েছে। এখন আপনি বাড়ি/অফিস ভাড়া খোঁজার দায়-দায়িত্ব নিবে অনলাইন এই প্রতিষ্ঠানটি। তাদের সাইটটি [িি.িঢ়নধুধধৎ.পড়স] ঘরে বসেই কম্পিউটার বা মোবাইল ব্যবহার করে জেনে নিতে পারেন বাড়ি বা অফিসের ভাড়ার ছবিসহ বিবরণ। আর তা সম্পূর্ণ ফ্রি। এছাড়া ফ্ল্যাট বা কমার্শিয়াল স্পেসের মালিকরাও খুব সহজেই এখানে বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন। এটিও পাচ্ছেন পুরোপুরি ফ্রি। যে কোন প্রান্ত থেকেই আপনি আপনার ফ্ল্যাটটির ছবিসহ বিস্তারিত বিবরণ দিয়ে পোস্ট দিতে পারেন িি.িঢ়নধুধধৎ.পড়স। মুহূর্তে আপনার ফ্ল্যাটের বিজ্ঞাপনটি দেশের সকল পান্তে পৌঁছে যাবে। ওয়েব সাইট : িি.িঢ়নধুধধৎ.পড়স। ঠিকানা : ১৩৮ গুলশান এভিনিউ, ইস্টার্ন নিবাস, গুলশান-২, ঢাকা। ফোন: ৮৮৮১৬৬৭; ৯৮৯৪৬৯৪; ৮৮৩১৭৮৭; ৯৮৫৩৭৫৮।

যাপিত ডেস্ক

প্রকাশিত : ৮ জুন ২০১৫

০৮/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: