রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৩.৯ °C
 
৮ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বিনিয়োগকারী প্রটেকশন ফান্ড পুনর্গঠনের উদ্যোগ

প্রকাশিত : ১১ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ বিনিয়োগকারীদের সুরক্ষায় নতুন করে উদ্যোগ নিয়েছে দেশের প্রধান শেয়ার বাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। এজন্য বিদ্যমান ইনভেস্টর প্রটেকশন ফান্ড (আইপিএফ) বা বিনিয়োগকারী সুরক্ষা তহবিলের ট্রাস্টি কমিটি পুনর্গঠন করা হচ্ছে। এ কমিটির চেয়ারম্যান হতে পারেন সাবেক নির্বাচন কমিশনার মুহাম্মদ ছহুল হোসাইন। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ট্রাস্টি কমিটির চেয়ারম্যান হিসেবে ডিএসই অবশ্য বিকল্প আরও দু’জনের নাম প্রস্তাব এসেছে। তারা হলেনÑ বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস এ্যান্ড টেকনোলজির ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক আবু সালেহ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক আবু আহমেদ। নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) অনুমোদনের ওপর নির্ভর করবে শেষ পর্যন্ত কে ওই কমিটির চেয়ারম্যান হবেন।

জানা গেছে, কোন ব্রোকারেজ হাউস দেউলিয়া হয়ে গেলে বা বিনিয়োগকারীদের শেয়ার কিংবা তাদের জমা রাখা অর্থ ফেরত দিতে ব্যর্থ হলে এ তহবিল থেকে বিনিয়োগকারীদের সর্বোচ্চ ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত দেয়া হবে। এজন্য তহবিল গঠন ও পরিচালনায় ডিএসই একটি বিধিমালা তৈরি করেছে।

সূত্র জানিয়েছে, এ তহবিল ব্যবস্থাপনার জন্য বিধি অনুযায়ী একটি ট্রাস্টি বোর্ড গঠন করতে হবে। নতুন বিধিমালায় তহবিলটি স্বতন্ত্রভাবে পরিচালনার জন্য ওই বোর্ড করার কথা বলা হয়েছে। বোর্ডের চেয়ারম্যান কোনভাবে স্টক এক্সচেঞ্জের সঙ্গে সম্পৃক্ত হবেন না। এছাড়া ডিএসইর পরিচালনা পর্ষদ সদস্যদের মধ্য থেকে দু’জন, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের থেকে একজন এবং ডিএসইর এমডি পদাধিকার বলে এ বোর্ডের সদস্য হবেন। স্টক এক্সচেঞ্জের পরিচালনা পর্ষদ বিএসইসির অনুমোদনক্রমে বোর্ডের সদস্যদের মনোনীত করবে।

জানা গেছে, ট্রাস্টি বোর্ডের প্রাথমিক নামের খসড়া করেছে কমিশন। যা আগামী কমিশন বৈঠকে চূড়ান্ত হবে। ওই খসড়ায় ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসেবে তিন জনের নাম রয়েছে। তারা হলেনÑ সাবেক নির্বাচন কমিশনার মুহাম্মদ ছহুল হোসাইন, বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস এ্যান্ড টেকনোলজির ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক আবু সালেহ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক আবু আহমেদ। তালিকায় তিন জনের নাম থাকলেও চেয়ারম্যান হিসেবে ছহুল হোসাইনকেই চূড়ান্ত করতে পারে কমিশন।

আর বোর্ডের সদস্য হিসেবে নাম রয়েছে ডিএসইর স্বতন্ত্র পরিচালক রুহুল আমীন, শেয়ারহোল্ডার পরিচালক খাজা গোলাম রসুল, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের পক্ষ থেকে নাম রয়েছে শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট ও শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক সিকিউরিটিজের পরিচালক সৈয়দ আবুল হাসেম এবং ডিএসইর এমডি পদাধিকারবলে এ বোর্ডের সদস্য হবেন।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ইনভেস্টর প্রটেকশন ফান্ড) রেগুলেশনস, ২০১৪ নামে ডিএসইর প্রস্তাব করা বিধিমালা গত ১৮ আগস্ট পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) অনুমোদন দিয়েছে। শীঘ্রই এটি গেজেট আকারে প্রকাশ করা হবে। অপর পুঁজিবাজার সিএসইও অনুরূপ বিধি করবে বলে জানা গেছে।

নতুন এ বিধিমালা করার আগে ‘ইনভেস্টর প্রটেকশন ফান্ড রেগুলেশন ১৯৯৯’ নামে একটি বিধান ছিল। তবে স্টক এক্সচেঞ্জের ডিমিউচুয়ালাইজেশন সম্পন্ন হওয়ার প্রেক্ষাপটে এটি যুগোপযোগী করা হয়েছে। পুরনো বিধিমালায় একজন বিনিয়োগকারীকে সর্বোচ্চ ২৫ হাজার টাকা ক্ষতিপূরণের নিশ্চয়তা দেয়া হয়েছিল।

প্রকাশিত : ১১ ফেব্রুয়ারী ২০১৫

১১/০২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: