কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

প্রেমিকাকে বিয়ে করে কলেজছাত্র নীলফামারীতে হলো লাশ!

প্রকাশিত : ৪ মে ২০১৫

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ প্রেমিকা অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রীকে বিয়ে করার পরপরই প্রেমিক হুমায়ুন কবির (১৮) লাশ হয়েছে। রবিবার ভোরে নীলফামারীর জলঢাকা উপজেলার বালাগ্রাম ইউনিয়নের শালনগ্রাম মাঝাপাড়ায় তার মৃতদেহ আম গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায়। হুমায়ুন ওই গ্রামের কৃষক আনছারুল ইসলাম লেবুর পুত্র ও জলঢাকা আইডিয়াল কলেজের এইচএসসি প্রথম বর্ষের ছাত্র। এ ঘটনা নিয়ে ওই এলাকায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে। রবিবার দুপুর আড়াইটায় পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে হুমায়ুনের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে। ছেলের পিতা এটিকে হত্যাকা- বলে অভিযোগ করেছে।

বিভিন্ন সূত্র জানায়, একই এলাকার বিদ্যুত মিস্ত্রী আব্দুল আজিজের মেয়ে চেওড়াডাঙ্গী স্কুল এ্যান্ড কলেজের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রীর সঙ্গে হুমায়ুনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এতে মেয়েটি তিন মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শনিবার রাত ১০টার দিকে মেয়ে পক্ষের লোকজন হুমায়ুনকে তার বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে প্রথমে মারধর ও পড়ে জোর করে মেয়ের বাড়িতেই সেই রাতেই স্থানীয় বেলাল নিকাহ রেজিস্ট্রার (কাজী) মাধ্যমে বিয়ে পড়িয়ে দেয়। বিয়েতে ছেলে পক্ষের কোন অভিভাবক বা আত্মীয় স্বজন উপস্থিত ছিল না। মেয়ের বাড়ির লোকজন জানায়, ছেলে ও মেয়ে তাদের প্রেমের ও দৈহিক সম্পর্ক নিজ মুখে স্বীকারের পর তাদের ইচ্ছায় বিয়ে দেয়া হয়। বিয়ের পর ভোরে ফজরের সময় হুমায়ুন প্রকৃতির ডাকে সাড়া দেয়ার নাম করে মেয়ের বাড়ি হতে বেরিয়ে আসে। সকালে খবর পাওয়া যায় গ্রামের অদূরে ফাঁকা স্থানে আম গাছে হুমায়ুন গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। এদিকে ছেলের পিতা থানায় অভিযোগ করেছে তার ছেলে কে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে মেয়ে পক্ষ।

প্রকাশিত : ৪ মে ২০১৫

০৪/০৫/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: