ঢাকা, বাংলাদেশ   শুক্রবার ২৪ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

দলের সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে আপন ভাইকে প্রার্থী করলেন এমপি!

নিজস্ব সংবাদদাতা, বাকেরগঞ্জ, বরিশাল

প্রকাশিত: ১২:২৮, ২০ এপ্রিল ২০২৪

দলের সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে আপন ভাইকে প্রার্থী করলেন এমপি!

এমপি আব্দুল হাফিজ মল্লিক ও তারঁ ভাই আব্দুল সালাম মল্লিক

কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে বাকেরগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদে আপন ভাইকে প্রার্থী করে প্রচারণায় নেমেছেন বরিশাল-৬ আসনের এমপি আব্দুল হাফিজ মল্লিক।

আসন্ন চার ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচন থেকে আওয়ামী লীগের মন্ত্রী-এমপিদের আত্মীয়দের সরে দাঁড়ানোর নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে নির্দেশনা না মানলে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও সতর্ক করা হয়েছে। 
আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বারবার সতর্ক করার পর এবার চিঠি দিয়ে এবং সাংগঠনিকভাবে এই নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। 

বাকেরগঞ্জ উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে এমপির ভাই আব্দুল সালাম মল্লিকের পক্ষে কাজ করার জন্য আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীকে নির্দেশনা দিয়েছেন তিনি। তাঁর এই ঘোষণায় উপজেলায় সাধারণ নেতাকর্মীর মাঝে ক্ষোভ ও বিভক্তি দেখা দিয়েছে।

আগামী ৮ মে প্রথম ধাপে বাকেরগঞ্জ উপজেলা পরিষদের নির্বাচন হবে। এর মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন প্রাথী হলেন-  উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান মিজান, বাংলাদেশ আওয়ামী যুব লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বিশ্বাস মতিউর রহমান বাদশা, বাংলাদেশ আওয়ামী যুব লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সম্পাদক রাজিব তালুকদার, বাকেরগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নিয়ামত আব্দুল্লাহ পলাশ ও এ, এম মেজবা উদ্দিন জুয়েল, ফিরোজ আলম খান।

পুরুষ ভাইস-চেয়ারম্যান পদে ৪ জন হলেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো: সাইফুর রহমান ডাকুয়া, মো: শাহবাজ মিয়া, কামরুল হোসেন, আব্দুস সালাম মল্লিক। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২ জন হলেন উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি তাহমিনা বেগম ও জাহানারা বেগম। প্রার্থী যাচাই-বাছাই শেষে বাকেরগঞ্জের নির্বাচনী মাঠে প্রচার প্রচারণায় রয়েছে প্রার্থীরা। তাদের মধ্যে এমপির পছন্দ অনুযায়ী চেয়ারম্যান প্রার্থী ১ জন, ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী তার ছোট ভাই ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সহ তিনজনকে আগাম সবুজ সংকেত দিয়ে আসছেন এমপি হাফিজ মল্লিক। 

স্থানীয় নেতাকর্মীরা অভিযোগ করে বলেন, উপজেলা নির্বাচন দলীয়ভাবে হচ্ছে না। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, মনোনয়নপত্র জমার শেষ সময় ছিল ১৫ এপ্রিল আর বাছাই হয়েছে ১৭ এপ্রিল। প্রার্থী বাছাইয়ের পর থেকেই এমপির দৃষ্টিভঙ্গি পাল্টে যায়। 

১৭ এপ্রির থেকে উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীকে তিনি তাঁর বাসভবনে ডাকেন। দফায় দফায় তার বাসায় সভা ডেকে নেতাকর্মীসহ ইউপি চেয়ারম্যানদের তার পছন্দের প্রার্থীর পক্ষে নির্বাচন করার নির্দেশ দেন এমপি।

কিন্তু দলীয় এই সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে বরিশাল-৬ আসনের এমপি তার ছোট ভাই সালাম মল্লিককে ভাইস-চেয়ারম্যান পদ প্রার্থী করেছেন। 

জেনারেল (অব.) আবদুল হাফিজ মল্লিক আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য এবং শ্রম ও জনশক্তি বিষয়ক উপকমিটির চেয়ারম্যান। 

এ বিষয়ে জানতে চেয়ে এমপি আব্দুল হাফিজ মল্লিকের মুঠোফোনে ফোন করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

 এসআর

×