ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯

সড়ক পরিবহন বিধিমালা প্রণয়নের দাবি

প্রকাশিত: ১৮:০১, ১৭ আগস্ট ২০২২; আপডেট: ১৮:১৪, ১৭ আগস্ট ২০২২

সড়ক পরিবহন বিধিমালা প্রণয়নের দাবি

আলোচনা সভায় বক্তারা

দেশের অগ্রযাত্রার সঙ্গে তাল মিলিয়ে উন্নত হচ্ছে সড়ক-মহাসড়ক। কিন্তু লাগাম টানা যাচ্ছে না সড়কে মৃত্যুর মিছিলের। সড়কে মৃত্যু হ্রাস করতে ২০১৮ সালে প্রণয়ন করা হয় সড়ক পরিবহন আইন। অথচ ৪ বছরেও প্রণয়ন হয়নি বিধিমালা। ফলে শৃঙ্খলা ফেরানো যাচ্ছেনা সড়কে। মৃত্যু হ্রাস ও সড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে দ্রুত সময়ের মধ্যে সড়ক পরিবহন আইনের বিধিমালা প্রণয়ের দাবি জানানো হয়েছে।

বুধবার দুপুরে রাজধানীর শ্যামলীতে ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের স্বাস্থ্য সেক্টরের সভাকক্ষে সাংবাদিকদের সঙ্গে এক আলোচনা সভায় বক্তারা এসব কথা বলেন। ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের স্বাস্থ্য ও ওয়াশ সেক্টরের পরিচালক ইকবাল মাসুদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সেন্টার ফর ইনজুরি প্রিভেনশন এন্ড রিসোর্চের বাংলাদেশ পরিচালক ড. সেলিম মাহমুদ চৌধুরী, ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের রোড সেইফটি প্রকল্পের প্রকল্প সমন্বয়কারী শারমিন রহমান ও এ্যাডভোকেসি অফিসার (কমিউনিকেশন) তরিকুল ইসলাম প্রমুখ।

ড. সেলিম মাহমুদ চৌধুরী বলেন, সড়ক দুর্ঘটনা হ্রাসে বর্তমানে যে আইনটি আছে তার অনেক দুর্বল দিক রয়েছে। ফলে এর সঠিক বাস্তবায়ন বাঁধাপ্রাপ্ত হচ্ছে। আবার যাও বাস্তবায়ন করা সম্ভব তাও সম্ভব হচ্ছে না বিধিমালা প্রণয়ন না হওয়ায়। বর্তমান সড়ক দুর্ঘটনার পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে আইনে দুর্বল দিকগুলো নিরসন করা দরকার। সেটি করতে হলে আইনের বিধিমালা দ্রুত প্রণয়ন একান্ত জরুরী।

বক্তারা বলেন, আইনে দ্রুত গতির কথা বলা হয়েছে। অথচ সেই দ্রুত গতির পরিমান নির্ধারণ করা হয়নি। আবার বর্তমানে যে আইন রয়েছে, সেটিরও যথাযথ প্রয়োগ হচ্ছে না। ফলে সড়কে মৃত্যু হ্রাস করা সম্ভব হচ্ছে না। এসবের সঙ্গে যারা জড়িত, তাদের স্বদিচ্ছা থাকতে হবে। তবেই সড়কে মৃত্যুর হার কমে আসবে। 
 

ফজলু