কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ১৩.৯ °C
 
১৮ জানুয়ারী ২০১৭, ৫ মাঘ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

কুমিল্লায় হত্যা মামলায় তিন বন্ধুর ফাঁসি

প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৬

নিজস্ব সংবাদদাতা, কুমিল্লা, ১২ মে ॥ চান্দিনায় সুজন আহমেদ নামের এক ব্যবসায়ীকে হত্যা করে টাকা লুটের মামলায় ৩ বন্ধুকে ফাঁসির আদেশ দিয়েছে আদালত। বৃহস্পতিবার দুপুরে অতিরিক্ত দায়রা জজ আদালতের বিজ্ঞ বিচারক নুরুন্নাহার বেগম শিউলী এ রায় দেন। দ-প্রাপ্ত আসামিরা হচ্ছেÑ চান্দিনা উপজেলার ছায়কোট গ্রামের মৃত মোস্তফার ছেলে আবুল কালাম, একই গ্রামের শাহজাহানের ছেলে সবুজ ও আজামপাড়া গ্রামের আবদুল মান্নানের ছেলে মোহাম্মদ তৌফিক।

আদালত সূত্রে জানা যায়, মুরাদনগর উপজেলার কালাডুমুর গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে সুজন আহমেদ (২০) চান্দিনা উপজেলার মহারং গ্রামে তার নানার বাড়িতে থাকতেন এবং চান্দিনা বাজারে কনফেকশনারি ব্যবসা করতেন। ২০১২ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় সুজন আহমেদ ১ লাখ ৬০ হাজার টাকা নিয়ে মোটরসাইকেল ক্রয় করার উদ্দেশে বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর তাকে খুঁজে পাওয়া যায়নি। নিখোঁজের ৫ দিন পর ২১ সেপ্টেম্বর চান্দিনা মহিলা কলেজের পাশে বিশ্বাস গ্রামের একটি ইটের স্তূপের উপর সুজন আহমেদের ক্ষত-বিক্ষত লাশ পাওয়া যায়। খবর পেয়ে নিহতের মা জাহানারা বেগম লাশের পরনের প্যান্ট, শার্ট ও বেল্ট দেখে লাশটি সুজনের বলে শনাক্ত করেন। এ ঘটনায় জাহানারা বেগম বাদী হয়ে ২২ সেপ্টেম্বর সুজনের বন্ধু আবুল কালাম (২৪), সবুজ (২৫) ও মোহাম্মদ তৌফিকসহ (২০) অজ্ঞাতনামা আসামিদের বিরুদ্ধে চান্দিনা থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ মামলায় পুলিশ ওই ৩ জনকে গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে হত্যার রহস্য উদ্ঘাটিত হয়। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানান, তারা নিহত সুজন আহমেদের বন্ধু ছিল।

কলাপাড়ায় বাসচাপায় তিন বন্ধু নিহত

ভ্যান উল্টে ছাত্রের মৃত্যু

নিজস্ব সংবাদদাতা, কলাপাড়া, ১২ মে ॥ কলাপাড়া-কুয়াকাটা সড়কের মাস্টারবাড়িতে যাত্রীবাহী নিউ সুগন্ধা পরিবহন বাসের চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী তিনজন মারা গেছেন। এরা হচ্ছেনÑ হুমায়ুন কবির, শাকিল ও চালক সানি। বৃহস্পতিবার দুপুরে দুর্ঘটনাটি ঘটে। বাসটি বরিশাল থেকে কলাপাড়া হয়ে কুয়াকাটা যাচ্ছিল। এ সময় সংযোগ সড়ক থেকে আসা আরোহীসহ মোটরসাইকেলটি চাপা পড়ে। একজন ঘটনাস্থলেই মারা যান। বাকি দুইজন কলাপাড়া হাসপাতালে মারা গেছেন। জানা গেছে, সানি এ বছর এসএসসি পাস করেছে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করেছে। বাসটি ঘটনাস্থলে পড়ে আছে। চালক-হেলপার পলাতক রয়েছেন। নিহত তিনজনের বাড়ি নীলগঞ্জ ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে।

এদিকে ভ্যানগাড়ির নিচে চাপা পড়ে মাথায় আঘাত পেয়ে মারা গেছে ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্র রাব্বি হাসান। বৃহস্পতিবার সকালে কলাপাড়ার টিয়াখালী ইউনিয়নের ইটবাড়িয়া গ্রামে দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহতের বাড়ি আমতলীর টেপুরা গ্রামে। রাব্বি বোনজামাই রাকিবুল ইসলামের বাড়িতে বেড়াতে আসছিল। জানা গেছে, ভ্যানচালক ভ্যানটি রেখে টয়লেটে যায়। হঠাৎ ভ্যানটি রাস্তা থেকে নিচে পড়ছিল। রাব্বি ভ্যানটি রক্ষা করতে গিয়ে নিচে চাপা পড়ে গুরুতর আঘাত পায়। কলাপাড়া হাসপাতালে নেয়ার পথে সে মারা যায়। থানায় একটি ইউডি মামলা হয়েছে। লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে।

প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৬

১৩/০৫/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: