পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২০ °C
 
২৪ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, ১২ ফাল্গুন ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

দক্ষিণ চীন সাগরে মার্কিন ডেস্ট্রয়ারের টহল

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৬
  • জঙ্গীবিমান পাঠাল বেজিং

মার্কিন নৌবাহিনীর একটি জাহাজ মঙ্গলবার দক্ষিণ চীন সাগরে এক বিরোধপূর্ণ শৈলশ্রেণীর কাছ দিয়ে চলাচল করে। তখন চীনও সেখানে জঙ্গী বিমান পাঠায় এবং মার্কিন পদক্ষেপকে শান্তির প্রতি অবৈধ হুমকি বলে নিন্দা জানায়। যুক্তরাষ্ট্র বলেছে, সাগরের ওপর চীনের মাত্রাতিরিক্ত দাবি আন্তর্জাতিক আইনের সঙ্গে অসঙ্গতিপূর্ণ। খবর ইয়াহু নিউজের।

গাইডেভ মিসাইল ডেস্ট্রয়ার ইউএসএস উইলিয়াম পি লরেন্স চীন অধিকৃত ফায়ারি ক্রস রিফের ১২ নটিক্যাল মাইলের (২২ কিলোমিটার) ভিতর চলাচল করে। মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতরের মুখপাত্র বিল আরবান একথা জানান। আরবান বলেন, সাগরের ওপর চীন, তাইওয়ান ও ভিয়েতনামের মাত্রাতিরিক্ত দাবির প্রতি চ্যালেঞ্জ জানাতে তথাকথিত নৌ চলাচলের স্বাধীনতা অভিযান চালানো হয়। এসব দেশ দক্ষিণ চীন সাগরে নৌ চলাচলের অধিকার সংকুচিত করতে চায়। চীন ও যুক্তরাষ্ট্র দক্ষিণ চীন সাগরে সামরিক শক্তি মোতায়েনের দায়ে একে অপরকে অভিযুক্ত করে। চীন বিরাট এলাকা জুড়ে ভূমি উত্তোলন করে এবং বিরোধপূর্ণ স্থানে নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করে। আর যুক্তরাষ্ট্র সেখানে টহলদারি ও নৌমহড়া বাড়ায়। চীনা প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, দুটি জঙ্গী বিমানকে সেখানে পাঠানো হয় এবং তিনটি যুদ্ধজাহাজ মার্কিন জাহাজকে অনুসরণ করে সেটিকে চলে যেতে বলে। মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র লু কাং বলেন, মার্কিন জাহাজ অবৈধভাবে চীনা জলসীমায় প্রবেশ করেছিল। চীন দক্ষিণ চীন সাগরের অধিকাংশ দাবি করে থাকে।

পৃথিবীর সমান শতাধিক গ্রহ আবিষ্কার

নাসার কেপলার টেলিস্কোপ একশ’রও বেশি পৃথিবীর আকারের গ্রহ আবিষ্কার করেছে, যেগুলো দূরবর্তী নক্ষত্রসমূহকে কেন্দ্র করে ঘুরছে। টেলিস্কোপটি বাসযোগ্য এলাকায় নয়টি ছোট গ্রহও চিহ্নিত করেছে। বাসযোগ্য এলাকা বলতে কোন তারকার চারপাশে ঘূর্ণায়মান গ্রহদের অবস্থানের এমন একটি এলাকা বোঝানো হয়, যে অবস্থানে থাকলে ওই গ্রহ বা গ্রহগুলোর পৃষ্ঠে তরল পানি থাকার সম্ভাবনা থাকে। আর তরল পানি থাকলে প্রাণ থাকারও জোরালো সম্ভাবনা থাকে। সৌরজগতে আমাদের পৃথিবী ঠিক এমনই একটি অবস্থানে রয়েছে। খবর বিবিসির। সদ্য আবিষ্কৃত এই গ্রহদের কেপলার টেলিস্কোপের শনাক্ত করা নতুন গ্রহদের একটি তালিকায় রাখা হয়েছে। ওই তালিকায় কেপলার আবিষ্কৃত ১,২৮৪টি নতুন গ্রহ আছে। নতুন গ্রহ আবিষ্কারের এটি সবচেয়ে বড় একক ঘোষণা বলে জানিয়েছে নাসা।

প্রকাশিত : ১২ মে ২০১৬

১২/০৫/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: