বুধবার ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৮ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

জাপানে ব্যাংকে টাকা রাখলে র্সাভসি র্চাজ দতিে হবে

র্অথনতৈকি রপর্িোটার ॥ ব্যাংকে টাকা জমা রাখলে সখোন থকেে সুদ পাওয়া যাবে এটাই স্বাভাবকি। কন্তিু জাপান সরকার ঠকি তার উল্টো সদ্ধিান্ত নয়িছে।ে এখন থকেে জাপানে ব্যাংকে র্অথ রাখলে সখোন থকেে র্অথ কাটা যাব।ে র্অথাৎ র্অথ রাখার জন্য উল্টো ব্যাংকগুলোকে র্অথ দতিে হব।ে

যদি র্অথ জমা থাক,ে তাহলে জাপানরে বাণজ্যিকি ব্যাংকগুলোর কাছ থকেে সে দশেরে কন্দ্রেীয় ব্যাংক ০.১ শতাংশ হারে র্অথ নবে।ে ব্যাংকগুলো যাতে বশেি করে ঋণ দতিে বাধ্য হয় সজেন্যই এ পদক্ষপে নয়ো হয়ছে।ে

পৃথবিীর তৃতীয় বৃহত্তম র্অথনীতরি দশে জাপানে র্অথনতৈকি মন্দা মোকাবলো করার জন্যই এ পদক্ষপে নয়িছেে সে দশেরে সরকার। এ ধরনরে পদক্ষপে এর আগে ইউরোপয়িান সন্ট্রোল ব্যাংকও গ্রহণ করছে।ে কন্তিু জাপানে এ ধরনরে পদক্ষপে এই প্রথম।

জাপানে র্বতমানে মূল্যস্ফীতরি হার খুবই কম। সজেন্য মানুষজন সইে র্অথ খরচ কংিবা বনিয়িোগ না করে ব্যাংকে রাখছ।ে সে কারণে ব্যাংকে জমা থাকা র্অথরে ওপর যদি সুদ না দয়িে উল্টো র্অথ কটেে রাখা হয় তাহলে বাণজ্যিকি ব্যাংকগুলো বশেি করে ঋণ দতিে উৎসাহতি হব।ে এর ফলে জনগণ ব্যাংকে র্অথ জমা না রখেে আরও বশেি খরচ করবে এবং বনিয়িোগও বাড়ব।ে

জাপানরে কন্দ্রেীয় ব্যাংকরে লক্ষ্য হচ্ছে মূল্যস্ফীতি ২ শতাংশ রাখা। কন্তিু সে দশেে র্অথ খরচ করার প্রবণতা কমে গছে।ে যার ফলে জনিসিপত্ররে দামও অনকে কম। এ প্রবণতা র্অথনীতরি জন্য ভাল খবর নয়।

তবে এই ঋণাত্মক সুদরে হার নর্ধিারণ কতটা কাজে দবেে সটেি নয়িে সন্দহে আছ।ে টোকওির ফুজতিসু ইনস্টটিউিটরে র্মাটনি স্কালজ বলনে, র্অথনীতকিে চাঙ্গা করার জন্য ঋণাত্মক সুদরে হার হচ্ছে র্সবশষে পন্থা। তনিি বলনে, জাপানে যে ঋণরে প্রবাহ বাড়ছে না সজেন্য শুধু বাণজ্যিকি ব্যাংকগুলো দায়ী নয়। ঋণ নয়িে বনিয়িোগ করার মতো কোন সুযোগ খুঁজে পাচ্ছনে না ব্যবসায়ীরা। এমন পরস্থিতিতিে জাপানরে কন্দ্রেীয় ব্যাংকরে এ উদ্যোগ কতটা কাজে দবেে সটেি নয়িে তনিি সন্দহিান।

সুদনি ফরিছে বশ্বিরে কোটপিতদিরে প্রমোদতরীর ব্যবসায়

র্অথনতৈকি রপর্িোটার ॥ মন্দা কাটয়িে সুদনি ফরিতে শুরু করছেে বশ্বিরে বভিন্নি দশেরে কোটপিতদিরে প্রমোদতরীর ব্যবসায়। এ সুবাদে চলতি বছররে জন্য ১শ’টি প্রমোদতরীকে শ্রষ্ঠে হসিবেে ঘোষণা করছেে নর্মিাতা প্রতষ্ঠিানগুলো। তবে বশ্বি র্অথনীতরি ধীরগতরি কারণে বক্রিি কমার শঙ্কা কাটছে না তাদরে।

সমুদ্রে নজিস্ব একটি প্রমোদতরীতে ভসেে বড়োনো, ঘুমানো আর খাওয়ার র্পব এখন পুরনো হতে চলছে।ে কারণ নতুন বছরে বলিওিনয়িারদরে জন্য প্রমোদতরীতে সংযোজন করা হয়ছেে নতুন কয়কেটি সুবধিা। এবার কয়কে লাখ পাউন্ডরে সুপারইয়োটে চড়ে আপনি সমুদ্ররে যে প্রান্তইে যান না কনে সুযোগ পাবনে ডাইভংি এবং র্সাফংিয়রে। কংিবা নজিস্ব সাবমরেনি নয়িে চলে যতেে পারনে সমুদ্ররে অতলরে জগতটি ঘুরে দখেত।ে

সুপারইয়টরে ডজিাইনার এসপনি ওইনো বলনে, প্রমোদতরীর ডজিাইনটি এমনভাবে করা হয়ছেে যে এখানে স-ির্সাফংি, স্কাই ডাইভংি সবকছিুর সরঞ্জাম আপনি বহন করে নয়িে যতেে পারবনে। এছাড়া এ প্রমোদতরীতে পুল রয়ছে।ে রয়ছেে বরফরে রুমও। যনে এ সুপারইয়টে আপনি সব ধরনরে মজাই উপভোগ করতে পারবনে।

শীর্ষ সংবাদ:
নির্বাচনে অংশগ্রহণ করুন, কেউ ভোটের অধিকার কেড়ে নেবে না : প্রধানমন্ত্রী         সিলেটে বন্যায় পানিবন্দি ১৫ লাখ মানুষ         বন্যায় সিলেটবাসীকে সহযোগিতা দেয়া হবে         আগামী ৩১ মে হজ ফ্লাইট শুরু নিয়ে ফের অনিশ্চয়তা         নন-ব্যাংক আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে শৃঙ্খলার মধ্যে আনতে হবে : শিল্পমন্ত্রী         হজযাত্রী নিবন্ধনের সময় বাড়লো         আগামী ৫ জুন বাজেট অধিবেশন শুরু         বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মকর্তাদের বিদেশ ভ্রমণ বাতিল         বন্যার্তদের পাশে রয়েছে সরকার ॥ ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী         নতুন সচিব ৮ মন্ত্রণালয়ে         বিদ্যুতের দাম ৫৮ শতাংশ বাড়ানোর সুপারিশ         ‘নিত্যপণ্যের দাম বাড়ার জন্য দায়ী আন্তর্জাতিক বাজার’         বঙ্গবন্ধু টানেলের টোল আদায় করবে চায়না কমিউনিকেশনস         খোলা বাজারে ডলারের দাম আজ ৯৯ টাকা         ঢাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী রোজেন বাহিনীর সেকেন্ড-ইন কমান্ড গ্রেফতার         দেশে আরও ২২ জনের করোনা শনাক্ত         করোনা নিয়ন্ত্রণে যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশ : স্বাস্থ্যমন্ত্রী         দেশে খাদ্যের কোনো ঘাটতি নেই ॥ খাদ্যমন্ত্রী         ১৯৮২ সালের পর যুক্তরাজ্যে সর্বোচ্চ মুদ্রাস্ফীতি