কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বয়ফ্রেন্ডের মুখে প্রেমিকার অ্যাসিড

প্রকাশিত : ১৩ জানুয়ারী ২০১৬, ১২:৫৫ পি. এম.
বয়ফ্রেন্ডের মুখে প্রেমিকার অ্যাসিড

অনলাইন ডেস্ক‍॥ চাকা ঘুরছে। তবে, ভালো দিকে নয়, খারাপের দিকে। এতদিন যে অপরাধে অভ্যস্ত ছিল পুরুষরা, এবার সেই খাতায় নাম লেখাল মেয়েরাও। বিয়ের প্রস্তাব ফিরিয়ে দেওয়ায় এবার অ্যাসিড ছুড়ে বয়ফ্রেন্ডের মুখ পুড়িয়ে দিল প্রেমিকা। এই ঘটনায় স্তম্ভিত পুলিশ-প্রতিবেশী সবাই।

১৯ বছরের আফরিন ও ২১ বছরের সুরজ কুমার একসঙ্গে পড়ত বিজনরের একটি কলেজে। গত দেড় বছরে তাঁদের মধ্যে ভালোবাসার সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তাঁরা বিয়ে করবে বলে ঠিক করলেও গোল বাধে পরিবারের আপত্তিতে। দুজনে ভিন্ন ধর্মের হওয়ায়, বাবা-মাকে বোঝাতে ব্যর্থ হয় সুরজ। বাধ্য হয়ে তিনি সম্পর্ক ছেদ করেন আফরিনের সঙ্গে।

গত রবিবার প্রাক্তন বয়ফ্রেন্ড সুরজকে নিজের বার্থ ডে পার্টিতে বাড়িতে আমন্ত্রণ জানায় আফরিন। কুমার যেতে রাজি হয়ে যান। তিনি ঘুণাক্ষরেও টের পাননি আফরিনের মতলব। তিনি জানিয়েছেন, 'আমি পার্টিতে যাই, ডিনার খাই। এরপর যখন বাড়ি ফিরে আসছি, তখন আমায় মোবাইলে ফোন করে ফিরতে বলে আফরিন। আমার তখনও কোনও সন্দেহ হয়নি। আমি যখন তাঁর বাড়ি ফিরে যাই, তখনই আমার মুখ লক্ষ করে অ্যাসিড ছোড়ে আফরিন। আমার বন্ধু অর্জুন আমাকে নিয়ে হাসপাতালে ছোটে।'

মুখের ২০% পুড়ে গেছে সুরজের। তবে, ডাক্তাররা বলছেন, বিপদ কেটে গেছে। হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে সুরজ জানালেন, 'আমি হিন্দু, আফরিন মুসলিম। আমাদের দুইজনের ধর্মবিশ্বাস আলাদা হওয়ায় আমরা বিয়ে করতে পারিনি। আমি ওকে বলেছিলাম, আমার বিয়ে অন্য জায়গায় ঠিক হয়ে গেছে।'

ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩২৬(এ) ধারায় আফরিনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সার্কেল অফিসার রামানন্দ কুশওয়াহা। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

প্রকাশিত : ১৩ জানুয়ারী ২০১৬, ১২:৫৫ পি. এম.

১৩/০১/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

বিদেশের খবর



ব্রেকিং নিউজ: