মূলত মেঘলা, তাপমাত্রা ২৭.৮ °C
 
২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৬, ১২ আশ্বিন ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

সন্ত্রাস ও ট্র্যাজেডির বছর

প্রকাশিত : ১ জানুয়ারী ২০১৬
  • এনামুল হক

প্যারিসে নিহত ১৩০

গত বছরের সবচেয়ে চাঞ্চল্যকর ঘটনা ১৩ নবেম্বর সন্ধ্যায় ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসের একাধিক স্থানে নারকীয় সন্ত্রাসী হামলা। এতে ১৩০ জন নিহত ও সাড়ে তিন শ’র বেশি আহত হয়। হামলাকারীদের ৭ জন প্রাণ হারায়। কাফে রেস্তরাঁ, তিয়েটার ও স্টেডিয়াম ছিল হামলার স্থান। ভলতেয়ার জুলেভার্ডের কাছে বাটাকান থিয়েটারে সন্ত্রাসীরা উপস্থিত লোকজনের ওপর এসল্ট রাইফেল দিয়ে প্রায় ২০ মিনিট ধরে গুলি চালায়। সেখানেই ৮০ জনের বেশি মারা যায়। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর ফ্রান্সের মাটিতে এটাই সবচেয়ে বড় হামলা। এ ঘটনার পর দেশে জরুরী অবস্থা জারি হয়। আইএস এই হামলার দায় স্বীকার করে।

শার্লি এবদোর হামলায় নিহত ১২

গত জানুয়ারি ইসলামী সন্ত্রাসীরা প্যারিসের কাস্তিলের কাছে ব্যঙ্গধর্মী পত্রিকা চার্লি হেবডোর কার্যালয়ে ঝটিকা আক্রমণ চালিয়ে ১২ ব্যক্তিকে গুলি করে হত্যা করে। আরও ১১ জন জখম হয়। এ ঘটনায় ক’দিন আগে পত্রিকায় আইএস নেতা বাগদাদীকে নিয়ে ব্যঙ্গাত্মকে কার্টুন ছাপা হয়েছিল। পত্রিকাটি বিভিন্ন সময় মহানবী মুহম্মদকে (সা.) কটাক্ষ করেও নানারকম কার্টুন ছাপিয়েছিল।

নাইজেরিয়ায় নিহত ২ হাজার

জঙ্গী ইসলামী সংগঠন বোকো হারাম জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহে নাইজেরিয়ার উত্তর পূর্বাঞ্চলীয় শহর বাগায় নারকীয় হামলা চালায়। শাদের সীমান্তবর্তী শহর বাগায় সামরিক ঘাঁটির খেল নিয়ে ৩ জানুয়ারি লড়াই শুরু হয় এবং ৫ দিন ধরে লড়াই চলে। এতে প্রায় ২ হাজার লোক নিহত হয় যাদের অধিকাংশই ছিল শিশু নারী ও বৃদ্ধ। এ্যামনেস্টির হিসাবে বোকো হারামের ইতিহাসে এটা ভয়াবহতম হত্যাযজ্ঞ।

ডেনমার্ক হামলা

১৪ ফেব্রুয়ারি ডেনমার্কের রাজধানী কোপেনহেগেনের দুই জায়গায় সন্ত্রাসী হামলা হয়। দুই ঘাতক এক রেস্তরাঁয় ঢুকে গুলি চালালে ১ জন নিহত ও ৩ পুলিশ অফিসার আহত হয়। রেস্তরাঁয় মুক্ত আলোচনা চলছিল। এর আয়োজক মহানবীকে (সা.) নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন ছাপায় তার ওপর হত্যার হুমকি ছিল। পরে রাতে আরেক স্থানে হামলায় আরও এক ব্যক্তি নিহত ও দুই পুলিশ অফিসার আহত হয়। গত ত্রিশ বছরের মধ্যে ডেনমার্কে এটাই সবচেয়ে বড় হামলা।

তিউনিসিয়া

২৬ জুন তিউনিসিয়ার সুসে শহরে এক ব্যক্তি সৈকতের এক হোটেলে গুলি চালিয়ে ৩৮ ব্যক্তিকে হত্যা করে। আরও ২০ জন আহত হয়। ঘাতক ২৩ বছরের এক ছাত্র পরে পুলিশের হাতে নিহত হয়। ইসলামী স্টেট এই হামলায় দাযিত্ব স্বীকার করে। নিহতদের অনেকেই ছিল বিদেশী ট্যুরিস্ট। এ ঘটনার পর সহিংসতায় উস্কানি দেয়ার অভিযোগে ৮০ মসজিদ বন্ধ করে দেয়া হয়।

মালি

২০ নবেম্বর মালির রাজধানী বামাকোর কেন্দ্রস্থলে র‌্যাডিসন ব্লু হোটেলে অস্ত্রধারীরা গুলি চালিয়ে ২৭ ব্যক্তিকে হত্যা ও ১৭০ জনকে জিম্মি করে। পরে জিম্মিদের ছেড়ে দেয়। আল-কায়েদা ও এর অংশ আল-মুরাবিতুন দাবি করে এই হামলা তাদের কাজ।

মক্কা ট্র্যাজেডি

২০১৫-এর একটি বড় ট্র্যাজেডি মক্কায় হজের সময় ভিড়ের চাপে পদদলিত হয়ে দুই হাজারের বেশি লোকের মৃত্যু। এছাড়া আরও কয়েক হাজার লোক আহত হয়। হজের ইতিহাসে এত ভয়াবহ ট্র্যাজেডি এর আগে আর ঘটেনি। এর ১২ দিন আগে মসজিদুল হারামের কাছে একটি ক্রেন পড়ে শতাধিক লোক আহত হয়েছিল।

উদ্বাস্তুর ঢল

২০১৫ সাল উদ্বাস্তুর ঢলের বছর হিসেবে চিহ্নিত হয়ে থাকবে। সিরিয়া ও ইরাকের যুদ্ধ এই দুটি দেশের লাখ লাখ মানুষকে বাস্তুচ্যুত করে ভিনদেশে ঠেলে দিয়েছে। প্রাণ বাঁচানোর তাগিদে এরা আশপাশের দেশ যেমন লেবানন, জর্দান ও তুরস্কের উদ্বাস্তু শিবিরগুলোতে ভিড় জমিয়েছে। অনেকে নৌযানে করে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে গ্রীস, ইতালি ও ফ্রান্সে আশ্রয় নিয়েছে। পথে ক্ষুধা পিপাসায় ও অবর্ণনীয় কষ্টে অনেকে মারা গেছে। অনেকে নৌযান ডুবিতে প্রাণ হারিয়েছে। উদ্বাস্তু সঙ্কট গত বছর এক ভয়াবহ মানবিক সঙ্কটের রূপ নেয়।

জাহাজডুবি

মধ্যপ্রাচ্য ও আফ্রিকা থেকে ইউরোপগামী দেশান্তরী মানুষদের নিয়ে একটি জাহাজ ১৯ এপ্রিল লিবিয়া উপকূলের অদূরে ভূমধ্যসাগরে ডুবে প্রায় ৭শ’ আরোহীর সলিল সমাধি ঘটেছে।

১ জুন চীনের হুবেই প্রদেশে একটি যাত্রীবাহী প্রমোদ জাহাজ ইয়াংসি নদীতে ঝড়ের কবলে পড়ে ডুবে গেলে ৪৩৪ আরোহী মৃত্যুবরণ করে। আরোহীদের অধিকাংশই ছিল বয়স্ক এবং তারা বিনোদন সফরে যাচ্ছিল

ভূমিকম্প

নেপালে গত ২৫ এপ্রিল ৭.৮ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে। প্রায় নয় হাজার নিহত ও বেশ কয়েক হাজার লোক আহত হয়। ধ্বংসযজ্ঞ ছিল ব্যাপক। অনেক ঐতিহাসিক কাঠামোসহ প্রায় ২০ হাজার বাড়িঘর ধূলিস্যাত হয়ে যায়। মূল ভূমিকম্পের পরবর্তী কম্পনে হিমালয়ে হিমবাহের ঢল নামে এবং তাতে ১৯ পর্বতারোহীর মৃত্যু হয়।

এরপর আফগানিস্তান, পাকিস্তান ও ভারতে গত ২৬ অক্টোবর ভূমিকম্পে কয়েক শ’ লোক মারা যায়। ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল রিখটার স্কেলে সাড়ে ৭ উৎপত্তিস্থল ছিল হিন্দুকুশ অর্স্কল। মূল আঘাতটা আফগানিস্তানে হলেও পাকিস্তান ও ভারতের উত্তরাঞ্চল প্রবলভাবে কেঁপে উঠে।

এছাড়া মালয়েশিয়ায় ৪ জুনের ভূমিকম্পে ১৮ জন ও চিলিতে ৮.৩ মাত্রার ভূমিকম্পে ১৬ সেপ্টেম্বর ১৪ জন নিহত হয়।

বিমান দুর্ঘটনা

রাশিয়ার একটি এয়ারবাস গত ৩১ অক্টোবর কায়রো থেকে রওনা হওয়ার অল্প পরেই সিনাই মরুভূমিতে বিস্ফোরণে বিধ্বস্ত হয়ে ২২৪ আরোহীর সবাই নিহত হয়। রাশিয়া মনে করে বিমানে পেতে রাখা বোমা বিস্ফোরিত হয়েছিল। আইএস দাবি করে তারাই বিমানে একটি সোডার পাত্রে বিস্ফোরক রেখে দিয়েছিল কিন্তু মিসরীয় তদন্ত রিপোর্টে এই দুর্ঘটনায় সন্ত্রাসবাদের কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি।

জার্মানির লুফন্সানসার একটি যাত্রী বিমান দেড় শ’ আরোহী নিয়ে স্পেনের বার্সিলোনা থেকে জার্মানি রওনা হওয়ার পর ফ্রান্সের আল্পস পবর্তমালায় বিধ্বস্ত হয়। যাত্রীদের কেউ বাঁচেনি। ঘটনাটি ঘটে ১৫ ডিসেম্বর।

তাইওয়ানের একটি বিমান ৪ ফ্রেব্রুয়ারি ৫৮ আরোহী নিয়ে তাইপের একটি নদীতে বিধ্বস্ত হয়ে ৩১ জন প্রাণ হারায়।

সিরিয়ায় রুশ হস্তক্ষেপ

২০১৫ সালের একটা বড় ঘটনা সিরিয়ায় গৃহযুদ্ধে রাশিয়ার সামরিক হস্তক্ষেপের সূচনা। বাশার সরকারের পক্ষ নিয়ে রুশ বিমান আইএস, আল-নুসরা ফ্রন্টসহ বিভিন্ন বিদ্রোহী শক্তির অবস্থানের উপর বোমা হামলা চালান শুরু করে। এর মধ্যদিয়ে সিরিয়ার গৃহযুদ্ধ এক নতুন মাত্রা লাভ করেছে এবং সেখানে রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে প্রক্সিযুদ্ধের সূত্রপাত ঘটেছে। সিরিয়ায় বিমান হামলার মধ্যে একটি রুশ জঙ্গী বিমান তুরস্কের আকাশসীমা লঙ্ঘন করায় তুরস্ক ক্ষেপণাস্ত্র মেরে সেটি ঘায়েল করে। দুই বৈমানিক নিহত হয়। এনিয়ে দু’দেশের মধ্যে নতুন তিক্ততা শুরু হয়েছে।

ইরান পরমাণু চুক্তি

গত বছরের আরেক বড় ঘটনা ইরান সমঝোতা চুক্তি দীর্ঘ ২০ মাস ধরে আলাপ আলোচনার পর ১৫ জুলাই ইরানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন ছয় জাতির এক সমঝোতার চুক্তি হয়েছে। এতে ইরানের পারমাণবিক শক্তি সার্মথ্য এক দশকেরও বেশি সময়ের জন্য উল্লেখযোগ্যভাবে সীমিত রাখার এবং বিনিময়ে তেল ও আর্থিক বিষয়ের উপর দীর্ঘদিনের আন্তর্জাতিক অবরোধ তুলে নেয়ার ব্যবস্থা হয়েছে।

ইয়েমেন সঙ্কট ঘনীভূত

ইয়েমেনে ক্ষমতার লড়াই ভয়াবহ রূপ ধারণ করার মধ্যে সৌদি আরব তার দেশে আশ্রয় নেয়া সুন্নী প্রেসিডেন্ট হাদীর পক্ষ নিয়ে সরাসরি সামরিক হস্তক্ষেপ করে বসেছে। সৌদি বিমান হাদীর বিরুদ্ধ শক্তির উপর বোমাবর্ষণ করছে। ইয়েমেন সঙ্কটের প্রধান দুই পক্ষ হলো একদিকে হাদীর অনুগত বাহিনী এবং অন্যদিকে হুথি নামে পরিচিত জায়েদী শিয়া বিদ্রোহী বাহিনী। আইএস ও আল-কায়েদাও এই লড়াইয়ে জড়িয়ে পড়েছে। আর এই রক্তপাত ও অস্থিরতার মধ্যে লাখ লাখ ইয়েমেনী উদ্বাস্তু হয়ে দেশ ছেড়েছে।

মার্কিন কিউবা সম্পর্কের উন্নতি

যুক্তরাষ্ট্র গত ১৪ এপ্রিল কিউবাকে সন্ত্রাসী রাষ্ট্রের তালিকা থেকে বাদ দিয়ে ৫৪ বছর পর দ্বিপক্ষীয় কূটনৈতিক সম্পর্ক স্বাভাবিক করার পথ সুগম করেছে। কিউবার কমিউনিস্ট বিপ্লব জয়যুক্ত হওয়ার পর যুক্তরাষ্ট্র এই সম্পর্ক কেটে দিয়েছিল।

নেপাল এখন সেকুলার রাষ্ট্র

গত ২০ সেপ্টেম্বর এক নতুন ইতিহাস রচিত হয়েছে নেপালে। ঐদিন পার্লামেন্টে সর্বসম্মতিক্রমে নয়া সংবিধানের গ্রহণের মধ্যদিয়ে নেপাল বহুদলীয় গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা সংবলিত এক সেকুলার, ফেডারেল প্রজাতন্ত্র হিসেবে ঘোষিত হয়েছে। ফলে নেপাল এখন আর হিন্দু রাষ্ট্র নয়। এটি বহুধর্মের ও বহু জাতিসত্তার দেশ।

মঙ্গলে পানি, প্লুটোয় নভোযান

মঙ্গলের পৃষ্ঠদেশে জীবনদায়িনী জলরাশি মাঝে মাঝে প্রবাহিত হয় বলে নাসার বিজ্ঞানীরা নতুন বিশ্লেষণের ভিত্তিতে ২৯ সেপ্টেম্বর দাবি করেছেন তা থেকে এই আশা জোরদার হয়েছে যে, মঙ্গলের কোথাও না কোথাও মাইক্রোবের আকারে প্রাণের অস্তিত্ব থাকতে পারে। ওদিকে ২০০৬ সালে উৎক্ষিপ্ত নভোযান নিউ হরাইজনস ৩শ’ কোটি মাইল পথ পাড়ি দিয়ে গত বছরের ১৪ জুলাই ক্ষুদেগ্রহ প্লুটোর পাশ দিয়ে চলে গেছে। মানব ইতিহাসে এই প্রথম কোন নভোযান এই গ্রহের কাছে গেল।

ভারতে তীব্র গরমে দুই হাজার মৃত

গত বছরের জুনে প্রবল তাপপ্রবাহে ভারতে ২৩৩৮ জনের প্রাণহানি ঘটে। তাপমাত্রা ১১৮ ডিগ্রী ফারেনহাইট পর্যন্ত উঠেছিল। সবচেয়ে বেশি মারা যায় অন্ধ্রে ১৭১৯ জন। এরপর তেলেঙ্গানায় ৫৮৫ জন।

প্রকাশিত : ১ জানুয়ারী ২০১৬

০১/০১/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

নববর্ষ সংখা ২০১৬



ব্রেকিং নিউজ: