বৃষ্টি, তাপমাত্রা ২৭.২ °C
 
৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৬, ১৫ আশ্বিন ১৪২৩, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ঠাকুরগাঁওয়ে ৫ মেয়র ও ৭ কাউন্সিলর প্রার্থীর মনোনয় প্রত্যাহার

প্রকাশিত : ১৪ ডিসেম্বর ২০১৫, ০৩:৫৬ পি. এম.

নিজস্ব সংবাদদাতা, ঠাকুরগাঁও ॥ ঠাকুরগাঁও জেলার ৩টি পৌরসভায় মেয়র পদে ৫ জন, সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৬ জন এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ১ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন।

ঠাকুরগাঁও পৌরসভায় বিএনপির স্বতন্ত্র মেয়র প্রাথী চৌধুরী গোলাম সারোয়ার রন্জু এবং জামায়াতের স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল হাকিম জিহাদী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন। এছাড়া ১ নং ওয়ার্ডের মুক্তারুল ইসলাম, ৫ নং ওয়ার্ডের জাহিদুল ইসলাম, আকবর হোসেন, চৌধুরী মোহাম্মদ সারোয়ার রশিদ উজ্জল, ১০ নং ওয়ার্ডের মকবুল হোসেন ও মহিলা সংরক্ষিত ২ নং ওয়ার্ডের মিসেস শামীমা বেগম রবিবার রিটানিং কর্মকর্তা ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আ.ফ.ম ফজলে রাব্বীর কাছে মনোনয়নপত্র প্রত্যোহারের আবেদন জমা দেন। বর্তমানে ঠাকুরগাঁও পৌরসভায় প্রতিদ্বন্দি মেয়র প্রার্থী থাকলেন ৫ জন। তারা হলেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের ছোট ভাই বিএনপির প্রার্থী মির্জা ফয়সল আমীন, আওয়ামীলগি মনোনীত প্রার্থী জেলা যুব মহিলা লীগের আহ্বায়ক তাহমিনা আখতার মোল্লা, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সোলেমান আলী সরকার ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহফুজুল ইসলাম। এ পৌরসভায় কাউন্সিলর পদে ৫২ ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ১৬ জন প্রতিদ্বন্দিতা করবেন।

অপরদিকে পীরগন্জ পৌরসভায় মেয়র পদে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন উপজেলা জামায়াতের আমির নজরুল ইসলাম। বর্তমানে ৪ জন প্রার্থী থাকলেন। তারা হলেন- আওয়ামীলীগ মনোনীত সাবেক মেয়র কসিরুল আলম, বিদ্রোহী প্রার্থী আলমগীর কবির, বিএনপি মনোনীত এবং বর্তমান পৌর মেয়র রাজিউর রহমান, জাপার সাবেক পৌর চেয়ারম্যান গোলাম হোসেন। এখানে কাউন্সিলর পদে ৪০ ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ১০ জন প্রতিদ্বন্দিতা করবেন।

এদিকে রাণীশংকৈল পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী শাহজাহান আলী ও আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী ইফতেখার আলম এবং কাউন্সিলর দিলীপ বসাক প্রার্থিতা প্রত্যাহার করেছেন। যদিও সীমানা সংক্রান্ত জটিলতার মামলায় এ পৌরসভায় নির্বাচন ৬ মাসের জন্য স্থগিত করেছে হাইকোর্ট।

৩টি পৌরসভায় বিএনপি বিদ্রোহীমুক্ত হলেও আওয়ামীলীগ বিদ্রোহী মুক্ত হতে পারেননি।

প্রকাশিত : ১৪ ডিসেম্বর ২০১৫, ০৩:৫৬ পি. এম.

১৪/১২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: