আংশিক রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২০ °C
 
২৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, ১৬ ফাল্গুন ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

দারুণ এক উৎসবের নাম

প্রকাশিত : ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫

রফিকুল ইসলাম

ফুটবল আকারের এ পৃথিবীতে আজ ফুটবলই সর্বাধিক জনপ্রিয় খেলা। জাতি-ধর্ম, ধনী-দরিদ্র নির্বিশেষে সবার কাছেই ফুটবল এক চিত্তাকর্ষক খেলা। সবেমাত্র ১৮৯৩ সাল থেকে বাঙালীদের মধ্যে এ বিদেশী খেলটি প্রচলিত হলেও দেশী ও বিদেশী সমস্ত খেলাকে পেছনে ফেলে ফুটবল এদেশেও সর্বাপেক্ষা জনপ্রিয় খেলা। বাঙালীর বৈশিষ্ট্যে বিদ্যমান সাহসিকতা, উত্তেজনা, নাটকীয়তা ও যুদ্ধংদেহিতা ফুটবল খেলায় ষোলআনা বিদ্যমান বলেই হয়ত এ খেলাটি আমাদের এত পছন্দের। এ এমনই এক দেশ যেখানে সন্তান হাঁটতে শুরু করলেই স্বজনরা খেলনা হিসেবে ফুটবল কিনে দেন, সন্তানের নাম রাখা হয় বিখ্যাত ফুটবলারদের নামে, সর্বাধিক টেলিভিশন বিক্রিও ঘটে ফুটবল বিশ্বকাপকে কেন্দ্র করেই।

মাসব্যাপী রাতজাগা হৈ-হুল্লোড় ও মুখরোচক খাবারের আয়োজন এবং শত শত পতাকার উত্তোলন আর কোন মহোৎসবেও হতে দেখি। আর বাংলাদেশ যদি কোনদিন বিশ্বকাপের আসরে খেলতে পারত, তাহলে কেমন হতো সে উন্মাদনা! অথচ এ স্বপ্ন পূরণের যোগ্যতা আমাদেরও আছে। যে দেশের শিশুরা খড়ের গুটলি ও জাম্বুরা দিয়ে হলেও ফুটবল খেলা চালিয়ে যায়, যে দেশের যুবারা বিশ্বকাপে অংশ নেয়া দক্ষিণ কোরিয়া ও ইরানকে হারিয়ে দেয়, যাদের আছে সাফ ফুটবলে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার অভিজ্ঞতা, তাদের পক্ষে সবই সম্ভব।

হ্যাঁ, মনে পড়ে সেই ফুটবলময় ৭০ ও ৮০ দশকের শৈশবের দিনগুলোর কথা। আমাদের বিরিশিরি স্কুলমাঠে কী জমজমাট ফুটবলই না উপভোগ করেছি! মুক্তিযোদ্ধা দুদু আকঞ্জি ও শিক্ষক সত্য সাংমার মতো ক্রীড়া আয়োজকদের উদ্যোগে এ মাঠে প্রতি বছরই ফুটবল প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হতো। এ মাঠে খেলতে আসা আজকের ক্রীড়া উপমন্ত্রী আরিফ খান জয়, টাপ্পু’দা ও দুলদুল’দার নান্দনিক খেলা এখনও চোখে লেগে আছে। সে এক সোনালি অতীত, যখন আবাহনী ও মোহামেডানের মধ্যকার খেলা দেখা ফুটবল প্রেমিকদের এক আরাধ্য বিনোদন ছিল। ঘরে ঘরে টেলিভিশন না থাকলেও রেডিওতে ধারাভাষ্য শোনা কম আনন্দের ছিল কি? ৯০ দশকের শুরু থেকে ক্রিকেটের জয়যাত্রা, ফুটবল খেলার মান ও সাফল্যের ক্রমাবনতি, প্রয়োজনীয় অর্থ ও পৃষ্টপোষকতার অভাবে ফুটবলের উন্মাদনায় ভাটা পড়লেও ইদানীং সম্ভাবনার সূর্য আবার বুঝি উঁকি দিচ্ছে। সাফ ফুটবলে শিরোপা অর্জন, বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক ফুটবল টুর্নামেন্ট চালুকরণ, সাফ অনুর্ধ ১৬ ও ১৯ এবং মেয়েদের চমকপ্রদ সাফল্যে আমরা নতুন স্বপ্ন রচনা করতেই পারি।

ফুটবল বিশ্বকাপে এ জাতির ফুটবল প্রেমের উন্মাদনা দেখে আমার একটি কথাই মনে হয়, তা হলো- বর্তমানে আমরা ক্রিকেটের সঙ্গে সংসার করছি, কিন্তু প্রেমে মজে আছি ফুটবলেরই। আর ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া যদি যুগপৎভাবে ক্রিকেট ও ফুটবলের সাফল্য দেখাতে পারে, তবে বিস্ময়ের বাংলাদেশও তা নিশ্চিত পারবে।

দুর্গাপুর, নেত্রকোনা থেকে

প্রকাশিত : ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫

০৩/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ:
ছাতকে কওমি ও আলিয়া মাদ্রাসা ছাত্রদের সংঘর্ষ ॥ হত ১ আহত শতাধিক || সমতাভিত্তিক সমাজ প্রতিষ্ঠায় আসছে এবারের বাজেট || রাষ্ট্রভাষা বাংলার দাবিতে প্রথম প্রবন্ধ লেখেন আবদুল হক || মিতু হত্যা-তদন্ত কোন্্দিকে মোড় নেবে- যা লিখেছে বাবুল ফেসবুকে || ২৮ কোম্পানির ওষুধ উৎপাদন বন্ধের নির্দেশ হাইকোর্টের || সামুদ্রিক মৎস্য আইনের খসড়ায় মন্ত্রিসভার নীতিগত অনুমোদন || কিলারদের সঙ্গে মোবাইলে সারাক্ষণ যোগাযোগ রাখত কাদের খান || জুলাই থেকে নতুন ভ্যাট আইন কার্যকর হবে || পিলখানা হত্যাযজ্ঞে দ-িত ২২ পলাতক বিডিআর সদস্যকে ধরার নির্দেশ || মোবাইল ব্যাংকিং ॥ লেনদেন সীমা কমিয়ে দেয়ায় বিপাকে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা ||