আংশিক রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ২৫ °C
 
২০ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, ৮ ফাল্গুন ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বন্দুকযুদ্ধে ‘তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী’ জিরা সুমন নিহত

প্রকাশিত : ২ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ১১:৫৮ এ. এম.

অনলাইন রির্পোটার ॥ কুমিল্লায় গোয়েন্দা পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে বেলাল হোসেন ওরফে জিরা সুমন নামে ৩০ বছর বয়সী এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে।। কুমিল্লা গোয়েন্দা পুলিশর ওসি একেএম মঞ্জুর আলম জানান,তার বিরুদ্ধে ছিনতাই, ডাকাতি, পুলিশের ওপর হামলাসহ বিভিন্ন অভিযোগে মামলা রয়েছে । সে একজন ‘তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী’। নিহত সুমন কুমিল্লা শহরের অশোকতলা এলাকার শাহজাহান সাজুর ছেলে।

ওসি মঞ্জুর আলম জানান, গত বছরের ৬ নভেম্বর দুপুরে কুমিল্লার ঝাউতলায় ‘জিরা সুমনকে’ ধরতে গিয়ে গোয়েন্দা পুলিশের এসআই ফিরোজ হোসেন গলিবিদ্ধ হন। সুমনের দলের ছেলেরা ফিরোজের পিস্তলও কেড়ে নিয়ে যায়।

গোয়েন্দা পুলিশ বলছে, মঙ্গলবার রাত পৌনে ২টার দিকে কুমিল্লা সদরের পালপাড়া ব্রিজ এলাকায় এই গোলাগুলির ঘটনায় সুমনের সহযোগী জামাল গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ধরা পড়েছে।

এছাড়া চারটি অস্ত্রসহ আটক করা হয়েছে সহিদ, স্বপন ও জাকির নামে আরও তিনজনকে।

এ ঘটনায় গোয়েন্দা পুলিশের চার সদস্যও ‘আহত’ হয়েছেন বলে জানিয়েছেন ওসি।

কুমিল্লার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(দক্ষিণ) আলী আশরাফ ভুইঁয়া জানান, তিনি, ওসি মঞ্জুর আলমসহ গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল মাইক্রোবাসে করে ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলায় অভিযান শেষে শহরের দিকে ফেরার পথে গোমতি নদীর ওপর পালপাড়া ব্রিজ এলাকায় ৮/১০ জন ‘ডাকাত’ হামলা চালায়।

“এতে মাইক্রোবাসের সামনের কাচ ভেঙে যায়। ডাকাতরা গুলি শুরু করলে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। কিছু সময় গোলাগুলি চলার পর ডাকাত দলের দুইজন গুলিবিদ্ধ হয়। পরে পুলিশ ওই দুইজনসহ মোট পাঁচজনকে আটক করে।”

গোয়েন্দা পুলিশের এস আই শাহ কামাল আকন্দ জানান, গুলিবিদ্ধ দুজনকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসক সুমনকে মৃত ঘোষণা করে । আটকদের কাছে তিনটি এলজি, একটি রিভলবার, একটি ছোরা, একটি রড ও পাঁচটি মুখোশ পাওয়া গেছে বলে জানান তিনি।

প্রকাশিত : ২ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ১১:৫৮ এ. এম.

০২/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: