হালকা কুয়াশা, তাপমাত্রা ১৭.২ °C
 
২২ জানুয়ারী ২০১৭, ৯ মাঘ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

গাজীপুরের কালীগঞ্জে স্ত্রী খুন, স্বামী আটক

প্রকাশিত : ১ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০৪:৩৪ পি. এম.

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাজীপুর ॥ গাজীপুরের কালীগঞ্জে শ^শুর বাড়ি বেড়াতে এসে দাম্পত্য কলহের জেরে এক ব্যাক্তি তার স্ত্রীকে খুন করেছে। এ ঘটনায় মঙ্গলবার দুপুরে স্থানীয়রা নিহতের স্বামীকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে। নিহতের নাম প্রিয়াংকা চন্দ্র রায় (২২)। সে গাজীপুরের কালীগঞ্জ উপজেলার জামালপুর ইউনিয়নের চুপাইর গ্রামের অনিল চন্দ্র রায়ের মেয়ে।

কালীগঞ্জ থানার এসআই মো. সোহরাওয়ার্দী হোসেন নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসির বরাত দিয়ে জানান, নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জের কাঞ্চন গ্রামের মৃত সুনীল চন্দ্র করের ছেলে শংকর চন্দ্র করের (৩৫) সঙ্গে প্রায় আট মাস আগে প্রিয়াংকা চন্দ্র রায়ের বিয়ে হয়। অভাব অনটনের সংসারে বিয়ের পর থেকে নানা টানাপোড়েন নিয়ে স্বামী ও স্ত্রীর মাঝে দাম্পত্য কলহ চলে আসছিল। এনিয়ে শংকর প্রায়শঃ তার স্ত্রীকে মারধর করতো। সোমবার সকালে স্ত্রীকে নিয়ে শংকর গাজীপুরে কালীগঞ্জের চুপাইর গ্রামে শ্বশুরবাড়ি বেড়াতে আসে। পরে মঙ্গলবার ভোর রাতে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া বিবাদ হয়। এক পর্যায়ে তা থেমেও যায়। এঘটনার পর সকাল পর্যন্ত ঘর থেকে বেরোতে না দেখে সকালে প্রিয়াংকাকে তার মা ডাকতে ঘরে গিয়ে মেয়েকে গুরুতর অবস্থায় বিছানায় পড়ে থাকতে দেখেন। এসময় শংকর বিছানায় শুয়ে ছিল এবং ঘরের মেঝেতে ভাত ছড়ানো ছিটানো ছিল। প্রিয়াংকার মায়ের ডাক চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে প্রিয়াংকাকে উদ্ধার করে কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত ডাক্তার প্রিয়াংকাকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে দুপুরে কালীগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজ উদ্দীন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। স্থানীয়রা শংকরকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করে উত্তম মধ্যম দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। নিহতের গলায় আঘাতের কালো চিহ্ন রয়েছে। এঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। শংকর পেশায় একজন কৃষক।

প্রকাশিত : ১ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০৪:৩৪ পি. এম.

০১/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: