আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

আবারও জয়ের মিশন শুরু বাংলাদেশের

প্রকাশিত : ৫ জুলাই ২০১৫
আবারও জয়ের মিশন শুরু বাংলাদেশের

মোঃ মামুন রশীদ ॥ জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে গত বছরের অক্টোবরে যে জয় পাওয়া শুরু হয়েছে বাংলাদেশের, সিরিজ এলেই প্রতিপক্ষ যত শক্তিশালী দলই হোক, এখন নিশ্চিত জয়ের মিশনেই নামতে হয় মাশরাফিবাহিনীকে। জয় পাওয়ার অভ্যাস যে এখন তৈরি হয়ে গেছে। সবার ভেতর বিশ্বাস তৈরি হয়ে গেছে, ‘বাংলাদেশ তো জিতবেই।’ এ চ্যালেঞ্জই এখন নিতে হচ্ছে বাংলাদেশকে। আজ দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে প্রথম টি২০ দিয়ে দুই ম্যাচের টি২০ সিরিজ এবং তিন ওয়ানডে ও দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলা শুরু করছে বাংলাদেশ। এ সিরিজেও সেই জয়ের মিশনই শুরু হচ্ছে বাংলাদেশের। আরেকটি জয়ের চ্যালেঞ্জেও নামতে হচ্ছে।

বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা জয়ের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে চান। শনিবার সিরিজপূর্ব সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, ‘আমি আমার সতীর্থদের বলতে চাই, সাহস নিয়ে খেলা চালিয়ে যেতে হবে। আমরা যে জয়ের ধারায় রয়েছি, সেটি ধরে রেখে খেলতে হবে।’ সঙ্গে মাশরাফি যোগ করেন, ‘আমরা ভারত সিরিজে ভাল করেছি। এ অভিজ্ঞতা আমাদের সহযোগিতা করবে। তবে সফরকারী দলটি বেশ এগিয়ে। তাই আমাদের মাঠেই ভাল খেলতে হবে। ব্যাটিং-বোলিংয়ের মতো ফিল্ডিংয়েও এগিয়ে রয়েছে প্রোটিয়ারা। যে কোন দলের বিপক্ষে তারা ১৫-২০ রান সেভ করতে সক্ষম।’

দক্ষিণ আফ্রিকা অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিস তো আগেই বলেছিলেন বাংলাদেশকে নিয়ে তার গভীর ভাবনার কথা। সেই একই সুর শনিবারও তার কণ্ঠে। জানিয়েছেন, ‘বিশ্বকাপ থেকেই তারা (বাংলাদেশ) ভাল খেলে আসছে। আমার বিশ্বাস, অচিরেই বাংলাদেশ ক্রিকেট বিশ্বে একটি বড় দল হিসেবে বিবেচিত হবে। বাংলাদেশকে এখন আর ছোট দল বলার সুযোগ নেই। তারা ধীরে ধীরে উন্নতি করছে। উন্নতির এ ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে পারলে ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম সেরা দল হতে তাদের খুব বেশি সময় লাগবে না।’ সঙ্গে প্লেসিস আরও যোগ করেন, ‘পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করেছে বাংলাদেশ। ভারতকে হারিয়েছে। সুতরাং বিমানে ওঠার আগে তাদের নিয়ে আমাদের অনেক হোমওয়ার্ক করতে হয়েছে। বর্তমান দলটিতে (বাংলাদেশের) বেশ কয়েকজন তরুণ প্রতিভা রয়েছে। আসলে আমরা নির্দিষ্ট কাউকে নয়, পুরো দলটা নিয়েই কাজ করছি। কারণ, এই দলের যে কোন একজনই ম্যাচ ঘুরিয়ে দেয়ার ক্ষমতা রাখে।’

বাংলাদেশ ১০ দিন আগেই একটি সিরিজ জিতেছে। ভারতের বিপক্ষে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জিতেছে। জেতার আত্মবিশ্বাস এখনও টগবগে। আরেকদিকে দক্ষিণ আফ্রিকা সেই বিশ্বকাপের পর কোন সিরিজই খেলেনি।

মাঝখানে তিন মাস সিরিজ খেলা থেকে বিরত থেকেছে। দলটি আবার কোন টি২০ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলে না প্রায় ছয় মাস হয়ে গেল।

এ দলটির বিপক্ষে এর আগে দু’বার টি২০-তে হেরেছে বাংলাদেশ।

তবে দুই দলের মধ্যকার সর্বশেষ টি২০ ম্যাচটি হয়েছে সেই ২০০৮ সালের নবেম্বরে। সাড়ে ছয় বছর হয়ে গেছে দুই দলের মধ্যকার কোন টি২০ ম্যাচ খেলা হয়নি। তাই এখন জেতার সুযোগ আছে বাংলাদেশেরও। আজ জিতলেই সিরিজ জয়ের হাতছানিও দেবে মাশরাফি, সাকিব, তামিম, মুশফিকরা। সেই জয়ের মিশনেই আবার নামতে হচ্ছে বাংলাদেশকে।

প্রকাশিত : ৫ জুলাই ২০১৫

০৫/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: