কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ঈদে মুক্তির মিছিলে চার চলচ্চিত্র

প্রকাশিত : ৪ জুলাই ২০১৫

গৌতম পাণ্ডে ॥ মুসলমান সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় উৎসব ঈদ। এ সময়ে পরিবার-পরিজন নিয়ে প্রেক্ষাগৃহে চলচ্চিত্র দেখার ঐতিহ্য বহুদিনের। এ ঐতিহ্য শুধু বাংলাদেশের মধ্যে সীমাবদ্ধ নয়। প্রবাসী বাঙালীরাও এই আনন্দ থেকে বঞ্চিত হতে চায় না। কোন এক সময়ে যখন দেশের চলচ্চিত্রে চলছিল অশ্লীলতার অবাধ বাণিজ্য তখনও নিরুপায় দর্শক অন্তত ঈদের সময় প্রেক্ষাগৃহে গিয়ে দেখেছেন। গত কয়েক বছরে দেখা গেছে ঈদে প্রেক্ষাগৃহগুলো কিছুটা হলেও পূর্ণ থেকেছে। গতানুগতিক চলচ্চিত্রের প্রতি দর্শকের অনীহা বেশি। সে কারণে চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্টদের স্বদিচ্ছা ও অক্লান্ত পরিশ্রমে এবার ঈদে ব্যতিক্রমী কিছু চলচ্চিত্র দর্শকদের উপহার দিতে আগ্রহী।

সেন্সর বোর্ড সূত্রে জানা গেছে এবার ঈদ-উল ফিতরে মুক্তি দেয়ার লক্ষ্যে এ পর্যন্ত চারটি চলচ্চিত্র সেন্সরে জমা পড়েছে। এগুলো হলো ‘আরো ভালবাসবো তোমায়’, ‘লাভ ম্যারেজ’, ‘পদ্ম পাতার জল’ এবং ‘অগ্নি-টু’। এর মধ্যে তন্ময় তানসেন পরিচালিত ‘পদ্ম পাতার জল’ চলচ্চিত্রটি ইতোমধ্যে বিনাকর্তনে সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে। জনপ্রিয় ব্যান্ড ভাইকিংস দলের ভোকাল তন্ময় তানসেন। নিজস্ব স্টাইলে চিত্র নির্মাণ এবং গতানুগতিকতার বাইরে ভিন্ন গল্প বলার ধরন তার অন্যতম নিজস্বতা। নবীন এই পরিচালক সম্পর্কে ‘পদ্ম পাতার জল’ চলচ্চিত্রের কলাকুশলীরাও বেশ আশাবাদী। নতুন প্রজন্মের কারিগরি জ্ঞান আর মানসম্পন্ন বাংলা চলচ্চিত্র নির্মাণের প্রত্যয় নিয়েই ‘পদ্ম পাতার জল’ তন্ময় তানসেনের প্রথম চলচ্চিত্র। প্রযোজনা সংস্থা ট্রাইপড স্টুডিওর ব্যানারে নির্মিত প্রেমের কাহিনীনির্ভর এ চলচ্চিত্রটি এবার ঈদ-উল ফিতরে দেশের ৩৫ থেকে ৪০টি হলে মুক্তি দেয়ার পরিকল্পনা চলছে বলে জানিয়েছেন চলচ্চিত্রের পরিচালক তন্ময় তানসেন ও প্রযোজক শেখ আসিফুর রহমান। তন্ময় জনকণ্ঠকে জানান, চলচ্চিত্রটি এই মুহূর্তে বম্বে রয়েছে। সাউন্ড ডিজাইন ও কালার গ্রেডিংয়ের কাজ চলছে। খুব শীঘ্রই নিয়ে আসব। তিনি আরও বলেন, আমি সব সময় ইন্টারটেইনমেন্টে বিশ্বাসী। চেষ্টা করছি দর্শকদের আকর্ষণ করতে। ভাল বোধ নিয়ে দর্শক আড়াই ঘণ্টা হলে থাকবে এটাই আমার বিশ্বাস। ইতোমধ্যে চলচ্চিত্রের প্রচারের কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন প্রযোজক-পরিচালকরা। চলচ্চিত্রের নায়ক-নায়িকা ইমন ও মীম প্রচারের কাজে প্রচুর সময় দিচ্ছেন। একটি ভাল চলচ্চিত্রের জন্য তারা দর্শকদের কাছে যাচ্ছেন বলে জানালেন তিনি। শেখ আসিফুর রহমান, রাজীব রায়হান ও রাজু আহমেদ প্রযোজিত ‘পদ্ম পাতার জল’ চলচ্চিত্রের বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন ইমন, বিদ্যা সিনহা সাহা মিম, তারিক আনাম খান, নিমা রহমান, অমিত হাসানসহ অনেকেই। চলচ্চিত্রের কাহিনী লিখেছেন বরেণ্য গীতিকার লতিফুল ইসলাম শিবলী, চিত্রগ্রহণে মাহফুজুর রহমান খান, কোরিওগ্রাফার মাসুম বাবুল ও কার্যনির্বাহী প্রযোজক গাজী মাহবুব।

এস এ হক অলিক পরিচালিত ‘আরো ভালবাসবো তোমায়’ চলচ্চিত্রটি আগামী ঈদে আসছে তানজীব ফিল্মের ব্যানারে। চলচ্চিত্রটির প্রডিউসার খোরশেদ আলম খসরু। চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন- শাকিব খান, পরীমনি, ববি, সোহেল রানা, চম্পাসহ অনেকে। চলচ্চিত্রের কাহিনী, সংলাপ, চিত্রনাট্য ও গান লিখেছেন পরিচালক নিজেই। আবহ সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন ইমন সাহা। গানে কণ্ঠ দিয়েছেন হাবিব ওয়াহিদ, পড়শি, এস আই টুটুল, কোনাল ও হৃদয় খান। চলচ্চিত্র প্রসঙ্গে পরিচালক বলেন, সরলভাবে বললে, এটি নিরেট একটি ভালবাসার চলচ্চিত্র। এর সবকিছুতে রয়েছে প্রেম। তবে প্রেমের প্রকাশটা আলাদা। কবির বকুল ভাইয়েরও একটা গান আছে আমার এ চলচ্চিত্রে। আমি চরচ্চিত্রটি নিয়ে খুবই আশাবাদী। কারণ এর উপস্থাপনার কিছু সিকোয়েন্সের আগে বাংলা অন্য কোন চলচ্চিত্রে দর্শক দেখেনি।

শাহিন সরকার ও ওয়াজেদ আলী সুমন পরিচালিত ‘লাভ ম্যারেজ’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন শাকিব খান, অপু বিশ্বাস, মিশা সওদাগর, সাদেক বাচ্চুসহ অনেকে। চলচ্চিত্রটি প্রযোজনা করছেন তাপশী ঠাকুর। এ চলচ্চিত্রটি নিয়ে তেমন আলোচনা না হলেও জনপ্রিয় জুটি শাকিব অপুর কারণেই অন্য চলচ্চিত্রের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করবে বলে মনে করছেন কর্তৃপক্ষ।

আসন্ন ঈদে মুক্তি পেতে যাচ্ছে দেশের আলোচিত অভিনেত্রী মাহিয়া মাহির নারী প্রধান চলচ্চিত্র ‘অগ্নি’ চলচ্চিত্রের সিক্যুয়েল ‘অগ্নি-টু’। ভারত-বাংলাদেশের যৌথ প্রযোজনায় চলচ্চিত্রটি পরিচালনা করেছেন ইফতেখার চৌধুরী ও হিমাংশু। এতে জুটি বেঁধে অভিনয় করেছেন মাহিয়া মাহির সঙ্গে কলকাতার ওম। চলতি বছরের আলোচিত চলচ্চিত্রটি বাংলাদেশের পাশাপাশি ১৪ আগস্ট মুক্তি পাবে ৯টি দেশের পর্দায়। চলচ্চিত্রটি বাংলা, মান্দারিন (চায়নিজ) ও মালয় এই তিনটি ভাষায় মুক্তি পাচ্ছে। বাংলাদেশসহ চলচ্চিত্রটি ভারত, চীন, হংকং, মালয়েশিয়া, যুক্তরাজ্য, অস্ট্রেলিয়া, ইতালি ও যুক্তরাষ্ট্রের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে বলে জানিয়েছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জাজ মাল্টিমিডিয়া। প্রতিষ্ঠানটি জানায়, বাংলা থেকে মান্দারিন ও মালয় ভাষায় ডাবিং করা হয়েছে চলচ্চিত্রটি। এছাড়া ইংরেজী সাবটাইটেল থাকবে। এতে আরও অভিনয় করেছেন অমিত হাসান, আশীষ বিদ্যার্থী ও টাইগার রবি। চলচ্চিত্রের দৃশ্যধারণ হয়েছে বাংলাদেশ, ভারত ও থাইল্যান্ডে।

ঈদে মুক্তিপ্রাপ্ত চলচ্চিত্র প্রসঙ্গে প্রযোজক সমিতির উপদেষ্টা এবং চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডের সদস্য নাসির উদ্দিন দিলু জানিয়েছেন এ পর্যন্ত চারটি চলচ্চিত্র সেন্সরে জমা পরেছে। ওই চারটিই যাচাই বাছাই চলছে বলে জানান তিনি।

প্রকাশিত : ৪ জুলাই ২০১৫

০৪/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: