আংশিক রৌদ্রজ্জ্বল, তাপমাত্রা ৩০ °C
 
২১ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, ৯ ফাল্গুন ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

বিশ্ব খাদ্য পুরস্কার পাচ্ছেন ফজলে হাসান আবেদ

প্রকাশিত : ২ জুলাই ২০১৫, ০১:১২ পি. এম.

অনলাইন ডেস্ক ॥ বিশ্বের বৃহত্তম বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা বাংলাদেশ রুরাল অ্যাডভান্সমেন্ট কমিটি- ব্র্যাকের প্রতিষ্ঠাতা স্যার ফজলে হাসান আবেদ এ বছরের বিশ্ব খাদ্য পুরস্কার পাচ্ছেন।

বুধবার ওয়াশিংটনে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এক অনুষ্ঠানে দেশটির কৃষিমন্ত্রী টমাস ভিলস্যাক এ পুরস্কারের জন্য আবেদের নাম ঘোষণা করেন।

ওয়ার্ল্ড ফুড প্রাইজ ফাউন্ডেশনের এক বিবৃতিতে বলা হয়, “অনেকেই যাকে দারিদ্র্য বিমোচনে ‘বিশ্বের সবচেয়ে সবচেয়ে সফল সংস্থা বলেন, সেই ব্র্যাক গড়ে তোলার পেছেনে অনন্য অবদানের” স্বীকৃতি হিসাবে স্যার ফজলে হাসান আবেদকে এ পুরস্কারের জন্য মনোনীত করা হয়েছে।

১৯৭২ সালে মুক্তিযুদ্ধের পর যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশে বিপর্যস্ত মানুষকে ত্রাণ সহায়তা প্রদানের লক্ষ্যে ফজলে হাসান আবেদের নেতৃত্বে ব্র্যাক প্রতিষ্ঠিত হয়। ২০০৯ সালে যুক্তরাজ্য সরকার তাকে ‘নাইট’ উপাধি দেয়।

ব্র্যাক ১৯৭২ সালে প্রতিষ্ঠিত একটি উন্নয়ন সংস্থা যা দরিদ্রদের ক্ষমতায়নের মাধ্যমে দারিদ্র্য বিমোচন এবং তাদের জীবনমানে ইতিবাচক পরিবর্তন আনার লক্ষ্যে কাজ করছে। বর্তমানে বিশ্বের সাড়ে তের কোটি মানুষ ব্র্যাকের সেবার আওতাভুক্ত।

যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দপ্তরের এক বিবৃতিতে বলা হয়, আবেদের নেতৃত্বে ব্র্যাক বিশ্বের সবচেয়ে বড় বেসরকারি সংস্থায় পরিণত হয়েছে। এ সংস্থাটি বিভিন্ন দেশের অন্তত ১৫ কোটি মানুষের দারিদ্র্য দূর করতে সহায়তা করেছে।

বর্তমানে এশিয়া, আফ্রিকা ও ক্যারিবীয় অঞ্চলের ১১টি দেশে কার্যক্রম পরিচালনা করছে ব্র্যাক।

মানুষের জন্য খাদ্য সহজলভ্য করতে এবং এর মান উন্নয়নে যারা কাজ করছেন, তাদের সাফল্যের স্বীকৃতি হিসাবে ওয়ার্ল্ড ফুড প্রাইজ ফাউন্ডেশন প্রতিবছর এ পুরস্কার দেয়। ১৯৮৬ সালে নোবেলজয়ী নরম্যান বর্লুগ ‘বিশ্ব খাদ্য পুরস্কার’ প্রবর্তন করেন।

এ পুরস্কারের অর্থমূল্য আড়াই লাখ ডলার। আগামী অক্টোবরে আইওয়া অঙ্গরাজ্যের ডে মইন শহরে ফজলে হাসান আবেদের হাতে এ পুরস্কার তুলে দেওয়া হবে।

প্রকাশিত : ২ জুলাই ২০১৫, ০১:১২ পি. এম.

০২/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: