কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৫ ডিসেম্বর ২০১৬, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

এ্যালায়েন্স ফর ফাইন্যান্সিয়াল ইনক্লুশনের স্টিয়ারিং কমিটির সভায় গবর্নর

প্রকাশিত : ১ জুলাই ২০১৫

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ ব্যাংকের গবর্নর ড. আতিউর রহমান সুইজারল্যান্ডের ব্যাসেলে অবস্থিত ব্যাংক ফর ইন্টারন্যাশনাল সেটলমেন্টস (বিআইএস) অফিসে এ্যালায়েন্স ফর ফাইন্যান্সিয়াল ইনক্লুশনের (এএফআই) স্টিয়ারিং কমিটির সভায় যোগ দিয়েছেন। সভায় তাঞ্জানিয়ার গবর্নর অধ্যাপক বেনো ডুডু, স্টিয়ারিং কমিটির আরেকজন সদস্য এবং এএফআইর নির্বাহী পরিচালক মি. আলফ্রেড হ্যানিং উপস্থিত ছিলেন। স্টিয়ারিং কমিটির অপরাপর সদস্যগণ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সভায় অংশগ্রহণ করেন। এতে এ বছরের সেপ্টেম্বরে মোজাম্বিকের মপুটুতে ফাইন্যান্সিয়াল ইনক্লুশনের ওপর অনুষ্ঠিতব্য গ্লোবাল পলিসি ফোরামের (জিপিএফ) সভা সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এবারের গ্লোবাল পলিসি ফোরামের মূল প্রতিপাদ্য এসএমই অর্থায়ন।

বেক্সিমকোর হেপাটাইটিস সি রোগের ওষুধ বাজারে

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ সোফোভির-সি নামে হেপাটাইটিস সি রোগের ওষুধ (ট্যাবলেট) বাজারে ছেড়েছে বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড। ওষুধটির জেনেরিক নাম সোফোসবুভির। বেক্সিমকোর দাবি, এটিই এখন পর্যন্ত বাংলাদেশে হেপাটাইটিস সি রোগের সবচেয়ে কার্যকর ওষুধ ও এর সাফল্যের হার শতকরা ৯০ ভাগেরও বেশি। ট্যাবলেট আকারে ওষুধটি পাওয়া যাবে। পার্শ্ব প্রতিক্রিয়াও ইনজেকটেবল থেরাপির চেয়ে অনেক কম। এ প্রসঙ্গে বেক্সিমকো ফার্মার ব্যবস্থাপনা পরিচালক নাজমুল হাসান বলেন, বেক্সিমকো ফার্মা রোগীদের জন্য সুলভ মূল্যে নতুন নতুন থেরাপী আনতে বদ্ধপরিকর। আমরা অত্যন্ত আনন্দিত ও গর্বিত যে, বিশ্বে সবচেয়ে কম দামে হেপাটাইটিস সি রোগের ওষুধ বাজারজাত করতে পারছি।

উৎসে কর কমানোয় সরকারকে ইএবির অভিনন্দন

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ সকল রফতানিমুখী শিল্পপণ্য মূল্যের ওপর আরোপিত উৎসে কর ১ শতাংশের পরিবর্তে শূন্য দশমিক ৬০ শতাংশ করায় সরকারকে অভিনন্দন জানিয়েছেন এক্সপোর্টার্স এ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ইএবি)। মঙ্গলবার সংগঠনটির সভাপতি আব্দুস সালাম মুর্শেদী স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে একথা জানানো হয়। এতে বলা হয়, ২০১৫-১৬ অর্থবছরের বাজেটে সকল রফতানিমুখী শিল্পপণ্য মূল্যের ওপর আরোপিত উৎসে কর ১ শতাংশের পরিবর্তে শূন্য দশমিক ৬০ শতাংশ প্রধানমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রীকে এক্সপোর্টার্স এ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ইএবি) পক্ষ থেকে আন্তরিক ধন্যবাদ। আব্দুস সালাম মুর্শেদী বলেন, রফতানি পণ্য মূল্যের ওপর আরোপিত উৎস কর কমানো এবং প্রথমবারের মতো সকল রফতানি খাতের জন্য একই হারে উৎসে কর নির্ধারণ রফতানিখাতকে ভবিষ্যতে কিছুটা হলেও সক্ষমতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করবে। পাশাপাশি তৈরি পোশাক শিল্পের জন্য ১০ শতাংশ হ্রাসকৃত হারে করারোপের মেয়াদ ২০১৯ সাল পর্যন্ত বাড়ানো এবং ইউরোর অস্বাভাবিক অবমূল্যায়নের প্রভাব থেকে সুরক্ষা প্রদানের জন্য ইউরো জোনে রফতানিকারী সকল খাতের জন্য নতুন বাজার প্রণোদনার ন্যায় বিশেষ প্রণোদনা সহায়তা দেয়ার দাবি জানান তিনি।

প্রকাশিত : ১ জুলাই ২০১৫

০১/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: