মূলত পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২১.১ °C
 
১১ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

মুক্তিযোদ্ধাকে রুখে দিল ফেনী

প্রকাশিত : ৩০ জুন ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ‘মান্যবর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ’ ফুটবলে সোমবারের খেলায় গত লীগের তৃতীয় স্থান অর্জনকারী বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদকে রুখে দিয়েছে অপেক্ষাকৃত দুর্বল শক্তির ফেনী সকার ক্লাব। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত এ ম্যাচে কোন দলই গোল করতে পারেনি। লীগে প্রথম পর্বের মোকাবেলায় মুক্তিযোদ্ধা ২-১ গোলে হারিয়েছিল ফেনী সকারকে। একাদশ ম্যাচে মুক্তির এটা দ্বিতীয় ড্র। ২০ পয়েন্ট নিয়ে তারা রয়ে গেছে আগের ষষ্ঠ অবস্থানেই। পক্ষান্তরে সমান ম্যাচে এটা ফেনীর তৃতীয় ড্র। তাদের সংগ্রহ ৯ পয়েন্ট। একই সময়ে চট্টগ্রামের এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব লিমিটেড ৩-১ গোলে হারায় স্বাগতিক চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেডকে। ১১ ম্যাচে এটা সপ্তম জয় মোহামেডানের। ২৩ পয়েন্ট নিয়ে তাদের অবস্থান আগের মতোই, দ্বিতীয়। পক্ষান্তরে সমান ম্যাচে এটা চট্টগ্রাম আবাহনীর অষ্টম হার। ৫ পয়েন্ট নিয়ে অবস্থান আগের মতোই, ১১ দলের মধ্যে দশম।

উভয়দলের খেলাই ছিল সাদামাটা ও নিষ্প্রাণ। ৪ মিনিটে এগিয়ে যেতে পারত মুক্তিযোদ্ধা। কিন্তু বক্সের মধ্যে সেনেগালের ফরোয়ার্ড কামারা সার্বা গোলরক্ষককে একা পেয়েও গোল করার সুযোগ হাতছাড়া করেন। ২৪ মিনিটে সুযোগ পায় ফেনীও। ডিফেন্ডার ইমরান হোসেন রিমন ক্রস করেন। বক্সে বল পেয়ে জোরে হেড নেন ফরোয়ার্ড ইকবাল হোসেন ভুইয়া। কিন্তু তার হেড মুক্তি গোলরক্ষক তিতুমীর চৌধুরী টিটু ধরে ফেলেন। ৩৫ মিনিটে বল নিয়ে ফেনীর সীমানায় প্রবেশ করেন ফরোয়ার্ড এনামুল হক। কিন্তু প্রতিপক্ষ ডিফেন্ডারদের বাধায় ব্যর্থ হন মুক্তি অধিনায়ক। ৪৭ মিনিটে মুক্তির মিডফিল্ডার নাইমুর রহমান শাহেদ সহজ সুযোগ হাতছাড়া করেন। ৫৭ মিনিটে ফেনীর জাত্তা মোস্তফার ক্রসে বল পেয়ে হেড নেন গাম্বিয়ান মিডফিল্ডার দাওদা চেসি। কিন্তু বল পোস্টের বাইরে দিয়ে চলে যায়। ৬৮ মিনিটে নাইমুর রহমানের শট আয়ত্তে নিয়ে নেন ফেনীর গোলরক্ষক। পরের মিনিটে কামারার শট বার ঘেঁষে মাঠের বাইরে চলে যায়। ৭২ মিনিটে বক্সের একটু বাইরে থেকে এনামুলের ফ্রি কিক গ্রিপে নেন গোলরক্ষক গোলাম মোস্তফা। ৭৫ মিনিটে মাঝমাঠ থেকে বল নিয়ে ফেনী সীমানায় ঢুকে পড়েন নাইমুর। বারে শটও করলেন ডিফেন্ডারের গায়ে লেগে বল যায় কামারার পায়ে। এবারও ব্যর্থ হন কামারা সার্বা। তার শট গোলরক্ষকের গায়ে লেগে ফেরত আসে। ফিরতি বলে শট নিতে পারলেও গোল পেতে পারত ‘অলরেড’রা। কিন্তু ব্যর্থ হন বক্সে দাঁড়ানো ফরোয়ার্ড এনামুলও। ম্যাচের শেষদিকে সবচেয়ে সহজ সুযোগ নষ্ট করেন রোকনুজ্জামান কাঞ্চন। ফাঁকা পোস্ট পেয়েও বল বাইরে মেরে সহজ সুযোগ নষ্ট করেন তিনি। ইনজুরি টাইমে বক্সের বাইরে জটলা থেকে গিনির মিডফিল্ডার ভাসেবা ট্যুরের আচমকা শট আটকে দেন ফেনীর গোলরক্ষক। শেষ পর্যন্ত কোন দলই গোল করতে না পরায় পয়েন্ট ভাগাভাগি করে মাঠ ছাড়তে হয় দুই দলকে।

প্রকাশিত : ৩০ জুন ২০১৫

৩০/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: