আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৭ ডিসেম্বর ২০১৬, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

খেলা হবে, তবে...

প্রকাশিত : ২৮ জুন ২০১৫

আজ রোদ উঠলে বা বৃষ্টি না হলে যথাসময়ে খেলা অনুষ্ঠিত হবে

শনিবার তুমুল বৃষ্টিতে অনুশীলন ব্যাহত

লাল কার্ড, ইনজুরি ও যথাসময়ে বিদেশী ফুটবলার না আসাতে বিপর্যস্ত জামাল

তলানি থেকে ফরাশগঞ্জের উপরে ওঠার চেষ্টা

নিজেদের অবস্থানকে আরেকটু সুসংহত করতে চায় রহমতগঞ্জ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ শেকড় থেকে শিখরে। এটা বিজ্ঞাপনের মতো শোনালেও বাক্যটা অনেকটাই মিলে যায় শেখ জামাল ধানম-ি ক্লাব লিমিটেডের বেলায়। ২০১০ সালে ধানম-ি ক্লাবটি শেখ জামাল ধানম-ি ক্লাব নামে আত্মপ্রকাশ করার পর এ পর্যন্ত তারা পাঁচ বছরে জিতেছে সাতটি শিরোপা, যার মধ্যে দুটি হচ্ছে প্রিমিয়ার লীগের শিরোপা। সর্বশেষ লীগেও তারা চ্যাম্পিয়ন। শেকড় থেকে শিখরে উঠলেও জামালের বর্তমান অবস্থা খুব একটা আশাব্যঞ্জক নয়। যদিও তারাই এখনও পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে, তারপরও লীগের মাঝপথেই প্রধান কোচসহ পুরো কোচিং স্টাফই বদলে ফেলাটা ক্লাবের বিবর্ণ রূপটাই প্রমাণ করে। শীর্ষে থাকার চেয়ে শীর্ষাসন ধরে রাখাটা কঠিনÑ সেই বাস্তবতার মুখোমুখিই দাঁড়িয়ে এখন জামাল। আজ তারা ‘মান্যবর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ’ ফুটবলের দ্বিতীয় পর্বের প্রথম ম্যাচে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে বিকেল সোয়া ৪টায় মাঠে নামছে। প্রতিপক্ষ ‘নীলকুঠি’ খ্যাত ফরাশগঞ্জ স্পোর্টিং ক্লাব। লীগের পয়েন্ট টেবিলে শীর্ষে আছে ‘বেঙ্গল ইয়োলোস’ খ্যাত জামাল, আর তলানিতে আছে ফরাশগঞ্জ। একই ভেন্যুতে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় মুখোমুখি হবে ঢাকা আবাহনী লিমিটেড বনাম রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটি। ‘দ্য স্কাই ব্লু ব্রিগেড’ খ্যাত আবাহনী আছে ষষ্ঠ এবং ‘আইলো’, ‘ডাইলপট্টি’ ও ‘জায়ান্ট কিলার’ খ্যাত রহমতগঞ্জ আছে সপ্তম অবস্থানে।

তবে খেলার আগের দিন তুমুল বৃষ্টির কারণে কোন দলই মাঠে নেমে অনুশীলন করতে পারেনি। ফলে ব্যাহত হয় অনুশীলন পর্ব। শনিবার বাফুফে ভবনে পেশাদার লীগ কমিটির জরুরী এক সভা শেষে জানানো হয়, রবিবার যদি সকাল থেকে টানা বৃষ্টি না হয় বা রোদ ওঠে, তাহলে অবশ্যই দুটি ম্যাচই যথাসময়ে অনুষ্ঠিত হবে। আর যদি বৃষ্টি হয়, তাহলে খেলা পিছিয়ে দেয়া হবে। শনিবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে গিয়ে সরেজমিন দেখা গেছে তুমুল বৃষ্টিতে মাঠে কাদা ও জল জমে গেছে। টানা দুই দিনের বর্ষণে মাঠের ঘাসও অনেক বড় হয়ে গেছে, যেগুলো বৃষ্টি না থামার কারণে কাটা সম্ভব হয়নি গ্রাউন্ডস কমিটির কর্মীদের। রবিবার আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে ঘাস কাটা হবে এবং মাঠের যথাসম্ভব পরিচর্যা করা হবে।

শক্তির বিচারে জামাল থেকে যোজন ব্যবধানে দূরে ফরাশগঞ্জ। তারপরও প্রতিপক্ষকে সমীহ করছেন জামালের কোচ জোসেফ আফুসিÑ ‘এ মৌসুমে জামালকে চ্যাম্পিয়ন করতে চাই। আগামীকাল (আজ) লীগের দ্বিতীয় পর্বে আমাদের প্রথম ম্যাচ। ম্যাচটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ আমাদের জন্য। প্রথম ম্যাচটা জয় দিয়েই শুরু করতে চাই।’ জাতীয় দলের ১৩ ফুটবলারকে নিয়ে গড়া শেখ জামালের জন্য ইনজুরি এক বড় সমস্যা। ডিফেন্ডার নাসিরউদ্দিন চৌধুরী এবং গোলরক্ষক শহীদুল আলম সোহেলেরর চোট এখনও সারেনি। নাসিরকে হয়ত প্রথম ৬-৭টা ম্যাচে পাওয়া যাবে না। এছাড়া মড়ার উপর খাঁড়ার ঘা হয়েছে ফরোয়ার্ড এমেকা ডার্লিংটনের লাল কার্ডের নিষেধাজ্ঞা। গত ১৪ মে জামাল তাদের সর্বশেষ ম্যাচে ০-২ গোলে হারে ঢাকা আবাহনী লিমিটেডের কাছে। ওই ম্যাচে লাল কার্ড পান এই নাইজিরিয়ান ফরোয়ার্ড।

প্রথম লেগে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই করেছে মুক্তিযোদ্ধা, মোহামেডান, শেখ রাসেল আর ব্রাদার্সের মতো দলগুলো। তারা পয়েন্ট টেবিলে প্রভুত উন্নতি করায় শীর্ষে থাকা জামালের সঙ্গে ব্যবধানটাও কম। দ্বিতীয় লেগে দলের অবস্থান সুসংহত করার জন্য দুই বিদেশীকে দলভুক্ত করা হয়েছে। তবে তারা এখনও বাংলাদেশে না আসায় আজকের ম্যাচে তাদের খেলাটা অনিশ্চিত বলে জানান জামালের ম্যানেজার আনোয়ারুল করিম হেলাল। লীগের প্রস্ততি হিসেবে একটি প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেছে জামাল। বৃষ্টি ভেজা সেই ম্যাচে মোহামেডানের সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করে জামাল।

এবারের লীগে প্রথম পর্বে জামাল হারায় ফরাশগঞ্জকে ৪-১, রহমতগঞ্জকে ২-১, ফেনী সকারকে ২-০, চট্টগ্রাম আবাহনীকে ৪-০, টিম বিজেএমসিকে ২-১, শেখ রাসেলকে ১-০ ও মুক্তিযোদ্ধাকে ২-১ গোলে। একমাত্র হার ঢাকা আবাহনীর কাছে, ০-২ গোলে। ড্র করে ব্রাদার্স ইউনিয়নের সঙ্গে ০-০ এবং মোহামেডানের সঙ্গে ১-১ গোলে। আবাহনীর কাছে শেষ ম্যাচে পরাজিত জামাল স্বভাবতই আজ চাইবে ফরাশগঞ্জকে প্রথম লেগের মতো উড়িয়ে দিয়ে আবারও জয়ের ধারায় ফিরতে। পক্ষান্তরে জামালের কাছ থেকে অন্তত একটি পয়েন্ট ছিনিয়ে নিয়ে হলেও ফরাশগঞ্জ চাইবে তলানি থেকে খানিকটা উপরে উঠতে। বলাবাহুল্য, তারা এখনও জয়হীন!

এদিকে ১০ ম্যাচে ৫ জয়, ২ ড্র ও ৩ হারে ১৭ পয়েন্ট ও ষষ্ঠ স্থান নিয়ে অনেকটাই পিছিয়ে আছে ‘দ্য স্কাই ব্লু ব্রিগেড’ খ্যাত ঢাকা আবাহনী। দলের নির্ভরযোগ্য হাঙ্গেরিয়ান ফরোয়ার্ড জাবালোস সোর্বা পেটের মাংসপেশীর ইনজুরির কারণে নিজ দেশে ফিরে গেছেন চিকিৎসার জন্য। দুই ‘গঞ্জ’-এর সঙ্গে ড্র করে সমালোচিত হয় অস্ট্রিয়ান কোচ জর্জ কোটানের শিষ্যরা। প্রথম পর্বে আবাহনী হারিয়েছে ফেনী সকারকে ৪-০, চট্টগ্রাম আবাহনীকে ২-০, টিম বিজেএমসিকে ২-০, ব্রাদার্স ইউনিয়নকে ১-০ ও শেখ জামালকে ২-০ গোলে। হেরেছে শেখ রাসেলের কাছে ০-২, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কাছে ০-১ এবং মোহামেডানের কাছে ০-১ গোলে। ড্র করেছে রহমতগঞ্জের সঙ্গে ২-২ এবং ফরাশগঞ্জের সঙ্গে ০-০ গোলে। সবশেষ ম্যাচে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী মোহামেডানের কাছে হারা আবাহনীও আজ চাইবে রহমতগঞ্জকে হারিয়ে জয়ের বন্ধ খাতা আবারও খুলতে, যাদের প্রথম পর্বের সাক্ষাতে হারাতে ব্যর্থ হয়েছিল তারা। পক্ষান্তরে রহমতগঞ্জ নিশ্চিতভাবেই চাইবে আবাহনীকে হারিয়ে ‘জায়ান্ট কিলার’ তকমাটির যথার্থতা প্রমাণ করতে এবং পয়েন্ট টেবিলে নিজেদের অবস্থান আরেকটু মজবুত করতে।

* সর্বোচ্চ গোলদাতা ॥ ১১: অগাস্টিন (ব্রাদার্স), ৯: এনামুল (মুক্তিযোদ্ধা), ৮: বাঙ্গুরা (মোহামেডান), ৬: ওয়েডসন (শেখ জামাল), এমেকা (শেখ জামাল), ৫: এমিলি (শেখ রাসেল)।

* হ্যাটট্রিক ॥ ১টি: অগাস্টিন (ব্রাদার্স) এবং বাঙ্গুরা (মোহামেডান)।

প্রকাশিত : ২৮ জুন ২০১৫

২৮/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: