কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৪ ডিসেম্বর ২০১৬, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

মাঠে কোহলির আচরণ বাঁদরের মতো!

প্রকাশিত : ২৮ জুন ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ এ কী বললেন ভারতের সাবেক উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান সৈয়দ কিরমানি। মাঠে কোহলির আচরণ নাকি বাঁদরের মতো!

‘ক্রিকেট ভদ্রলোকের খেলা, কিন্তু খেলার মাঠে ভারতের ভবিষ্যত অধিনায়ক বিরাট কোহলির আচরণ একেবারেই বাঁদরের মতো’Ñ এমনটাই মন্তব্য করেছেন ভারতের সাবেক উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান সৈয়দ কিরমানি। ১৯৮৩ সালে বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য ছিলেন এ ক্রিকেটার। তার মতে, এমএস ধোনি একজন আদর্শ অধিনায়ক। মনসুর আলী খান পতৌদির পর ভারত এই প্রথম এত ভদ্র স্বভাবের অধিনায়ক পেয়েছে। তাই মাঠে ‘বাঁদরের’ মতো আচরণ না করে বর্তমান অধিনায়ক ধোনিকেই কোহলির অনুসরণ করা উচিত বলে মনে করেন কিরমানি।

কিরমানি বলেন, ‘অধিনায়ক দেশের প্রতিনিধিত্ব করেন। তাই তার আচরণ সব সময়ই মর্যাদাপূর্ণ হওয়া উচিত। যেটা ধোনি সবসময় বজায় রেখে এসেছেন।’ যদিও সম্প্রতি বাংলাদেশ সিরিজে বোলার মুস্তাফিজুর রহমানকে ধোনির ধাক্কা দেয়ার প্রসঙ্গটি এড়িয়ে যান তিনি। মাঠে ভারতের নয়া টেস্ট অধিনায়ক বিরাট কোহলির আক্রমণাত্মক আচরণ প্রসঙ্গে তাকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, ‘অধিনায়ক হয়ে কেউ মাঠে বাঁদরের মতো আচরণ করতে পারে না। ভারতের ভবিষ্যত অধিনায়কদের উচিত ধোনির পথ অনুসরণ করা।’ পাশাপাশি এ প্রজন্মের বেশকিছু খেলোয়াড়ের ভাবভঙ্গিতে যে তিনি মোটেই খুশি নন, তাও স্পষ্ট করে দেন। ক্রিকেট আর ফুটবলের মাঠ আলাদা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘ক্যাচ বা একটা উইকেট নেয়ার পর লাফানো, চেঁচানো বা আক্রোশ দেখানো ঠিক নয়। এ ধরনের আচরণ ফুটবলের ম্যাচে ভাল দেখায়। কিন্তু ক্রিকেটের ক্ষেত্রে নয়। ক্রিকেট ভদ্রলোকের খেলা। ক্রিকেটকে কখনই ফুটবলে পরিণত করা উচিত নয়।’ তবে মাঠে আক্রোশ দেখানোর কারণও ব্যাখ্যা করেছেন কিরমানি। তার ধারণা, মাঠে এত টেলিভিশন ক্যামেরা থাকে, তার জন্যই খেলার মাঠে অতিরিক্ত প্রতিক্রিয়া দেখায় খেলোয়াড়রা। আর এ কারণেই মাঠের আক্রমণাত্মক প্রবণতাও বাড়ছে।

প্রকাশিত : ২৮ জুন ২০১৫

২৮/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



ব্রেকিং নিউজ: