পরিষ্কার, তাপমাত্রা ২০ °C
 
১৭ জানুয়ারী ২০১৭, ৪ মাঘ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

পতাকা বৈঠক শেষ, নায়েক রাজ্জাককে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া শুরু

প্রকাশিত : ২৫ জুন ২০১৫, ০৪:৪৯ পি. এম.

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) নায়েক আবদুর রাজ্জাককে ফিরিয়ে আনতে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী পুলিশের (বিজিপি) সঙ্গে পতাকা বৈঠক শেষ হয়েছে।

বিজিবি সুত্র জানিয়েছে, অপহৃত আবদুর রাজ্জাককে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে।

পতাকা বৈঠকে যোগ দিতে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় টেকনাফ থেকে মিয়ানমারের মংডুর উদ্দেশে রওনা হন বিজিবি প্রতিনিধি দল।

বিজিবি কক্সবাজার সেক্টরের (জি-টু) মেজর আমিনুল ইসলাম জানান, বাংলাদেশের ছয় সদস্যের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দিয়েছেন টেকনাফে বিজিবির ৪২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আবু জার আল জাহিদ। প্রতিনিধিদলে একজন মেডিকেল অফিসারও রয়েছেন।

বৈঠকে বসার সম্মতি জানিয়ে ২৩ জুন বিকেলে বাংলাদেশকে চিঠি দেয় বিজিপি। এরই পরিপ্রেক্ষিতে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

১৭ জুন সকালে দমদমিয়া চেকপোস্টের বিপরীতে লালদিয়ায় টহল দিচ্ছিলেন বিজিবি সদস্যরা। ওই সময় একদল চোরাকারবারীকে ধাওয়া করেন বিজিবি। একপর্যায়ে চোরাকারবারিরা বিজিবির আওতার বাইরে চলে যায়। এ সময় মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর সদস্যরা বিজিবির টহল দলের ওপর গুলি চালায়। এতে বিপ্লব কুমার নামের বিজিবির এক সদস্য গুলিবিদ্ধ হন। এ ঘটনায় নায়েক রাজ্জাক নাফ নদীতে পড়ে গেলে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর সদস্যরা তাকে ধরে নিয়ে যায়।

এরপর নায়েক রাজ্জাকের হাতকড়া পরা ছবি প্রকাশ করে বিজিপি। নায়েক আবদুর রাজ্জাককে ফিরিয়ে দিতে দফায় দফায় পতাকা বৈঠকের আহ্বান জানায় বিজিবি। এতে বিজিপি কোন সাড়া দেয়নি। একপর্যায়ে মিয়ানমারের বন্দি থাকা ৫৫৫ জন অভিবাসীকে ফিরিয়ে আনলেই রাজ্জাককে ফিরিয়ে দিবে বলে জানায় মিয়ানমার সীমান্তরক্ষী বাহিনী। পরে কোন শর্ত ছাড়াই তাকে ফিরিয়ে দিতে রাজি হয় মিয়ানমার।

প্রকাশিত : ২৫ জুন ২০১৫, ০৪:৪৯ পি. এম.

২৫/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: