কুয়াশাচ্ছন্ন, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৩ ডিসেম্বর ২০১৬, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, শনিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

ছয় মাসের মধ্যে ছিটমহলে সব ধরনের উন্নয়ন হবে ॥ কুড়িগ্রামে এরশাদ

প্রকাশিত : ২৫ জুন ২০১৫
  • আ’লীগ ও ভারতকে ধন্যবাদ

স্টাফ রিপোর্টার, কুড়িগ্রাম ॥ দাস থেকে মুক্ত হয়েছে ছিটমহলের মানুষ। এখন আপনারা স্বাধীন। আপনাদের আর কষ্ট নেই। আগামী ছয় মাসের মধ্যে ছিটমহলে সকল প্রকার উন্নয়ন হবে। দীর্ঘ ৬৮ বছর ধরে বিগত সরকার এ চুক্তি বাস্তবায়ন করতে পারেনি। অথচ বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার এ চুক্তি বাস্তবায়ন করেছ। এ জন্য আওয়ামীলীগ ও ভারত সরকারকে আমি ধন্যবাদ জানাই। এখন ভারতের সঙ্গে আমাদের সুসম্পর্ক রয়েছে। তারা আমাদের বন্ধু। তারা আসবে আমরাও যাব এই তো বন্ধুত্ব। বুধবার বেলা ২টার দিকে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার দাসিয়ারছড়া ছিটমহল পরিদর্শনকালে কালিরহাট বাজারে এক পথসভায় একথা বলেন।

হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ আরও বলেন দাসিয়ারছড়া ইউনিয়ন করা হবে। আপনাদের মাঝ থেকে চেয়ারম্যান হবে। মেম্বার হবে। রাস্তা, সেতু, স্কুল হাসপাতাল সবই হবে। সরকারের সাহায্য পাবেন। অনেক উন্ন্য়ন হবে। তবে আপনাদের উন্নয়নের জন্য মাত্র ২০০ কোটি টাকায় হবে না। আরও টাকা লাগবে। ভারতের ভেতর ৫১টি ছিটমহলের জন্য ভারত সরকার অনেক টাকা দিযেছে তাদের উন্নয়নের জন্য। আমাদের ১১১টি ছিটমহলের জন্য আরও টাকা বৃদ্ধি করতে হবে।

তিনি বলেন, দীর্ঘদিন ধরে ঝুলে থাকা ছিটমহল সমস্যার সমাধান হয়েছে। একারণে ছিটমহলবাসীদের অভিনন্দন জানাতে এখানে এসেছি। ছিটবাসীদের সঙ্গে আমার দীর্ঘদিনের সম্পর্ক। কেননা কোচবিহার জেলায় আমার জন্ম। আর এই দাসিয়ারছড়া ছিটমহল ছিল কোচবিহার জেলার অন্তর্গত।

দাসিয়ারছড়া ইউনিটের সভাপতি আলতাফ হোসেনের সভাপতিত্বে পথসভায় এ সময় উপস্থিত ছিলেন কুড়িগ্রাম-১ আসনের জাতীয় পার্টির সাংসদ একেএম মোস্তাফিজুর রহমান, কুড়িগ্রাম জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম-আহ্বায়ক আজিজার রহমান, নাগেশ্বরী পৌর মেয়র ও উপজেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক আঃ রহমান, সদস্য সচিব আমপ আনিচুর রহমান, ফুলবাড়ী উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি ছিটমহল বিনিময় সমন্বয় কমিটির সভাপতি মইনুল হক, সাধারণ সম্পাদক হবিবর রহমান, ছিটমহল বিনিময় সমন্বয় কমিটির বাংলাদেশ ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা প্রমুখ।

এর আগে নাগেশ্বরী থানা মোড় এলাকায় উপজেলা জাতীয় পার্টির অফিস উদ্বোধন করেন এরশাদ। সেখানে সাবেক এই রাষ্ট্রপতি বলেন, দেশের মানুষ দু’দলকে আর ক্ষমতায় দেখতে চায় না। তারা চায় জাতীয় পার্টির সরকার। কারণ জাপা ক্ষমতা থাকাকালে দেশের মানুষ শান্তিতে থাকে। এ জন্য জাতীয় পার্টির সুদিন আসছে । আমাদের ভেদাভেদ ভুলে এক সঙ্গে কাজ করতে হবে।

প্রকাশিত : ২৫ জুন ২০১৫

২৫/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



ব্রেকিং নিউজ: