আংশিক মেঘলা, তাপমাত্রা ২২.২ °C
 
৬ ডিসেম্বর ২০১৬, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
শীর্ষ সংবাদ

হেরে হতাশ হ্যালেপ!

প্রকাশিত : ২২ জুন ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আর কয়েক দিন পরই লন্ডনে বসবে ‘লন টেনিসের বিশ্বকাপ’ খ্যাত উইম্বলডন টেনিসের আসর। ঘাসের কোর্টে অনুষ্ঠিতব্য এই আসরের প্রস্তুতিমূলক টুর্নামেন্ট হচ্ছে (মেয়েদের) ইংল্যান্ডে চলমান ‘বার্মিংহ্যাম ওপেন (এয়িগন ক্ল্যাসিক)’। এ আসরের অন্যতম শিরোপাপ্রত্যাশী ছিলেন রোমানিয়ার শীর্ষ টেনিস তারকা সিমোনা হ্যালেপ। সবাই ধরে নিয়েছিলেন ফাইনালে খেলবেন তিনি। কিন্তু তার জয়যাত্রা থেমে গেছে কোয়ার্টার ফাইনালেই! তাকে ২-৬, ৬-০, ৭-৬ (৭-৪) সেটে হারান ফ্রান্সের ক্রিস্টিনা ম্লাডেনোভিচ। হ্যালেপের হারের দিনে জয় কুড়িয়ে নিয়েছেন জার্মানির সাবিনে লিসিস্কি, এ্যাঞ্জেলিক কারবার এবং চেক প্রজাতন্ত্রের ক্যারোলিনা প্লিসকোভা। সাবিনে সেøাভাকিয়ার ড্যানিয়েলা হান্টুচোভাকে ৭-৬ (৭-২), ৬-২ গেমে, কারবার চেক প্রজাতন্ত্রের ক্যাটেরিনা সিনিয়াকোভাকে ৬-২, ৬-৪ গেমে এবং প্লিসকোভা স্পেনের কার্লা সুয়ারেজ নাভারোকে ৬-২, ৬-২ গেমে পরাভূত করেন। সেমিতে মুখোমুখি হবেন ক্রিস্টিনা-প্লিসকোভা এবং সাবিনে-কারবার।

ক্রিস্টিনার সঙ্গে খেলতে গিয়ে শুরু থেকেই আড়ষ্ট মনে হচ্ছিল ২৩ বছর বয়সী হ্যালেপকে। প্রথম গেমে মোটেও ভাল খেলতে পারেননি। তবে ঘুরে দাঁড়ান দ্বিতীয় গেমে। বলতে গেলে উড়িয়েই দেন প্রতিপক্ষকে। কঠিন প্রতিরোধ গড়ে তোলেন তৃতীয় ও শেষ গেমেও। তবে টাইব্রেকারে হার মেনে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নিতে হয় তাকে। ‘কোন সন্দেহ নেই, এই ম্যাচ জেতা ছিল আমার জন্য বিস্ময়কর। এটা আমার জন্য অনেক বড়মাপের জয়। এর আগেও আমি সিমোনাকে হারিয়েছি, তবে তখন সে সেরা দশে ছিল না। এখন সে টপটেনের তিন নম্বর খেলোয়াড়। তাই তার বিরুদ্ধে এ জয়টা অবশ্যই আমার জন্য তাৎপর্যপূর্ণ।’ ম্যাচ জয়ের পর এভাবেই নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করেন ২২ বছর বয়সী ও ৪৩ নম্বর র‌্যাঙ্কিংধারী ফ্রেঞ্চকন্যা ক্রিস্টিনা। ‘আমি দারুণ হতাশ এই হারে। তবে মুষড়ে পড়ছি না। আশা করি উইম্বলডনে ঠিকই ভাল ফল করব’Ñ হ্যালেপের ভাষ্য।

এখন দেখার বিষয়, উইম্বলডন আসরে কথাকে কাজে কতটা পরিণত করতে পারেন এই রোমানিয়ান টেনিসকন্যা।

প্রকাশিত : ২২ জুন ২০১৫

২২/০৬/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


ব্রেকিং নিউজ: